২৬ সেপ্টেম্বর , বুধবার, ২০১৮

শিরোনাম

> বাংলাদেশ

>> জনদুর্ভোগ

 

ফাতেমা জান্নাত মুমু  • রাঙামাটি

২৩ জুলাই ,সোমবার, ২০১৮ ১৭:৪০:১১

রাঙামাটিতে হঠাৎ ডেঙ্গুর প্রকোপ


রাঙামাটিতে হঠাৎ ডেঙ্গুর প্রকোপ

পুরোনো ছবি


রাঙামাটি জেলায় হঠাৎ ডেঙ্গু জ্বরের প্রকোপ বেড়েছে। সরকারি হিসাবে, গত মে মাসে ডেঙ্গু রোগী শনাক্ত হয়েছিল ১৫ জন। এরপর জুন থেকে জুলাই মাসের ২০ তারিখ পর্যন্ত এ সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ায় ৪৫জনে। এর মধ্যে ডেঙ্গু জ্বরে এক রোগীর মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছে একটি সূত্র। এ ঘটনায় চরম আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে পাহাড়ের মানুষের মধ্যে। যদিও এ নিয়ে আতঙ্কের কিছু নেই বলে জানিয়েছে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ।

রাঙামাটি জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ সূত্রে জানা যায়, ডেঙ্গু প্রধানত দুই ধরনের হয়। একটা ক্লাসিক্যাল ডেঙ্গু ফিভার। অন্যটা হেমোরেজিক ফিভার। মে থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত, বিশেষ করে গরম এবং বর্ষার সময়ে ডেঙ্গু জ্বরের প্রকোপ বেশি থাকে। বিশেষ করে বর্ষার শুরুতে সেগুলো থেকে নতুন করে ডেঙ্গু ভাইরাসবাহিত মশা বিস্তার লাভ করে।

ডেঙ্গু ভাইরাস চার ধরনের হয়। তাই ডেঙ্গু জ্বরও চারবার হতে পারে। তবে যারা আগেও ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়েছে, তাদের ক্ষেত্রে পরবর্তী সময়ে রোগটি হলে সেটি মারাত্মক হওয়ার ঝুঁকি থাকে। বিশেষ করে শিশুদের ক্ষেত্রে এটি বেশি দেখা যায়।

রাঙামাটি জেলা সিভিল সার্জন ডা. শহীদ তালুকদার জানান, ডেঙ্গু রোগের প্রকোপ দেখা যাওয়ার পর থেকে স্বাস্থ্য অধিদফতরের একটি বিশেষজ্ঞ টিম রাঙামাটি এসে বিভিন্ন এলাকা থেকে রক্তের নমুনা নিয়ে পরীক্ষা করে রির্পোট দিয়েছে। সেই হিসেবে পৌর এলাকায় চিকনগুনিয়া এবং ডেঙ্গু রোগের লক্ষণ পাওয়া গেছে। ডেঙ্গু জ্বর থেকে বাঁচতে হলে এডিস মশার বিস্তার রোধ এবং এই মশা যাতে কামড়াতে না পারে তার ব্যবস্থা করা জরুরি। মশা নিধনের স্প্রে, কয়েল, ম্যাট ব্যবহারের ক্ষেত্রে সবাইকে সচেতন হতে হবে।

রাঙামাটি সদর জেনারেল হাসপাতালে ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত আকরাম হোসেন ও চন্দ্র শেখর চাকমা জানান, কয়েকদিন ধরে জ্বরে আক্রান্ত থাকার পর হাসপাতালে ভর্তি হন। পরে রক্ত পরীক্ষা করে জানা যায় ডেঙ্গু জ্বর হয়েছে।

অভিযোগ রয়েছে, সম্প্রতি রাঙামাটিতে বৃষ্টিপাতের কারণে বিভিন্ন মশার উপদ্রব আশংকাজনকভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে। বিশেষ করে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের অবহেলার কারণে তা ভয়াবহ রূপ নিয়েছে। এছাড়া দীর্ঘদিন ধরে মশা নিধন স্প্রে ব্যবহার বন্ধ, ময়লা আবর্জনা পরিষ্কার না করা, ডাস্টবিন ও ড্রেন সময়মত পরিষ্কার না করার কারণে একদিকে যেমন পৌর এলাকার পরিবেশ দূষিত হচ্ছে, অন্যদিকে মশার উপদ্রব বৃদ্ধি পাচ্ছে। 

এ ব্যাপারে রাঙামাটি পৌরসভার মেয়র আকবর হোসেন চৌধুরী জানান, গত কয়েক মাস ধরে পৌর এলাকায় সিভিল সার্জনসহ আমরা ডেঙ্গু মশা নিধনের জন্য কাজ করে যাচ্ছি। ইতোমধ্যে কিছু এলাকায় মশা নিধনের জন্য স্প্রে করা হয়েছে। বাকি এলাকাগুলোতেও মশা নিধনের জন্য স্প্রে করা হবে। পাশাপাশি পৌর এলাকার বাসিন্দাদের তাদের নিজ নিজ এলাকা পরিষ্কার রাখার জন্য মাইকিংসহ দ্রুত প্রচার চালানোর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।


মুমু/অরিন/নিউজ টোয়েন্টিফোর


রেলিং ভেঙে ট্রাক খালে, মা-মেয়ে নিহত
সেই হৃদয় সরকার ঢাবিতে সুযোগ পেয়েছে
কলেজ ছাত্র হত্যার দায়ে ৪ জনের ফাঁসি  
মুশফিকের ফিফটি, শতরানের জুটিতে এগিয়ে বাংলাদেশ
দেশে ফিরেছেন লক্ষাধিক হাজি
নোয়াখালীতে যুবককে নির্মমভাবে হত্যা
সুনামগঞ্জে হত্যার দায়ে একজনের ফাঁসি 
আজ দলে নেই সাকিব
ইন্টারনেটে বাংলাদেশ-পাকিস্তান ম্যাচ দেখবেন যেভাবে 
বগুড়ায় দশ হাজার ইয়াবাসহ আটক ২
রাঙামাটিতে অগ্নিকাণ্ডে ২৩টি দোকান পুড়ে ছাই
ফেসবুককে সরকারের ৩ প্রস্তাব 
বাজারে এসেছে এইচপির ক্ষুদ্রতম লেজার প্রিন্টার
ইউএস-বাংলার উড়োজাহাজের জরুরি অবতরণ
‘সিরিয়ার ওপর হামলা চলবেই’
১৬-তেই ধর্ষিত হয়েছিলেন এই অভিনেত্রী
স্বামী কালো তাই...
পাকিস্তানের বিপক্ষে বাংলাদেশের সম্ভাব্য একাদশ
ইরান ইস্যুতে ইউরোপ-আমেরিকার ফাটল
কুকুর কামড়ালে যা করবেন, যা করবেন না
রেলিং ভেঙে ট্রাক খালে, মা-মেয়ে নিহত
মিঠুন-মুশফিক জুটিতে ভর করে বাংলাদেশের ১৫০
সেই হৃদয় সরকার ঢাবিতে সুযোগ পেয়েছে
কলেজ ছাত্র হত্যার দায়ে ৪ জনের ফাঁসি  
মুশফিকের ফিফটি, শতরানের জুটিতে এগিয়ে বাংলাদেশ
দেশে ফিরেছেন লক্ষাধিক হাজি
একনজরে বাংলাদেশ-পাকিস্তান ম্যাচে হার-জিত
নোয়াখালীতে যুবককে নির্মমভাবে হত্যা
মুশফিক-মিঠুনের জুটিতে বাংলাদেশ ৯০
সুনামগঞ্জে হত্যার দায়ে একজনের ফাঁসি 
তিন উইকেট হারিয়ে বিপর্যয়ে বাংলাদেশ
আজ দলে নেই সাকিব
ইন্টারনেটে বাংলাদেশ-পাকিস্তান ম্যাচ দেখবেন যেভাবে 
বগুড়ায় দশ হাজার ইয়াবাসহ আটক ২
রাঙামাটিতে অগ্নিকাণ্ডে ২৩টি দোকান পুড়ে ছাই
কানাডায় চলচ্চিত্র উৎসবের জুরিতে বাংলাদেশি নির্মাতা
ফেসবুককে সরকারের ৩ প্রস্তাব 
বাজারে এসেছে এইচপির ক্ষুদ্রতম লেজার প্রিন্টার
ইউএস-বাংলার উড়োজাহাজের জরুরি অবতরণ
‘সিরিয়ার ওপর হামলা চলবেই’
এনার্জি ড্রিংক নিষিদ্ধ করলো বিএসটিআই
স্বামী কালো তাই...
‘দলের শৃঙ্খলা ভাঙলে বরদাশত করা হবে না’
আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে টাইগারদের সম্ভাব্য একাদশ
শিক্ষক হলেন হাছান মাহমুদ, পড়াবেন জাহাঙ্গীরনগরে
ইসরাইলকে রাশিয়ার হুঁশিয়ারি
প্রধান শিক্ষকের নির্যাতনে শিক্ষার্থী অজ্ঞান!
নগ্ন হয়ে ঘর পরিষ্কার করেন ইনি!
ডাকাত দেখে চিৎকার দিল গৃহবধূ, অতঃপর
ট্রাম্পের গোপন বিষয়ে ‘বোমা’ ফাটালেন স্টর্মি
‘প্রিন্সিপাল আমাকে পর্ন ভিডিও দেখাতেন’
এক অবিশ্বাস্য জয় এনে দিলেন মোস্তাফিজ
রোববার চালু হচ্ছে সিম্ফোনির কারখানা 
ইরানে সামরিক কুচকাওয়াজে হামলায় নিহত বেড়ে ২৪
মোস্তাফিজকে নিয়ে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের টুইট
‘নারীর লজ্জাস্থানে মাদকের কারবার’
নওগাঁয় প্রতারক চক্রের ৪ যুবতী ও তাদের সহযোগী আটক
ছেলের চুরির অপরাধে মা-বোনকে পিটিয়ে জখম
রাতে ফেসবুক বন্ধ চান রওশন এরশাদ
চরমোনাই পীরের ওয়াজ মাহফিল পণ্ডের অভিযোগ

সব খবর