১৯ মার্চ ,মঙ্গলবার, ২০১৯

শিরোনাম

> বিশেষ প্রতিবেদন

 

নিউজ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক

২৩ জুলাই ,সোমবার, ২০১৮ ২২:৪৮:৪৯

‘খারাপ কাজ না করলে ইঞ্জেকশন দিত’


‘খারাপ কাজ না করলে ইঞ্জেকশন দিত’


‘তারা আমার লগে খারাপ কাজ করতে চাইত। খারাপ কাজ না করলে ইঞ্জেকশন দিত। হাত মিলাইবার কথা কইয়া সুঁই ঢুকে দিত। যখন সুঁইগুলা দিত, তখন মাথা ঘুইরা পইরা যাইতাম, অজ্ঞান হইতাম; কিচ্ছু কইতে পারতাম না’- এভাবেই কথাগুলো বলছিলেন সৌদি ফেরত নির্যাতনের শিকার নারী রেখা (ছদ্মনাম)।

গৃহকর্মী হিসেবে সৌদি আরবে গিয়েছিলেন রেখা। সেখানে একটি বাসায় ছিলেন ৭ মাস। কিন্তু এই কয় মাসে বাসার মালিক, মালিকের স্ত্রী ও সন্তানরা তার ওপর অমানবিক নির্যাতন চালান বলে অভিযোগ তার। 

নির্যাতনে মানসিক ভারসাম্য হারিয়ে ঠিকমতো কথাও বলতে পারছিলেন না রেখা। কিছু সঠিক তথ্য দিলেও বেশির ভাগ সময়েই তিনি উল্টাপাল্টা বকছিলেন। অবশ্য বাসার মালিক তাকে ইঞ্জেকশন দেওয়ার পর আর কী হতো, তা বলতে পারেননি জোছনা। 

পরশু (২১ জুলাই) রাতে এয়ার এরাবিয়ার একটি বিমানে গৃহকর্মী হিসেবে গিয়ে নির্যাতনের শিকার হওয়া ৪৩ জন নারী দেশে ফিরেছেন। তারা সকলে সৌদির ইমিগ্রেশন ক্যাম্পে ছিলেন। তাদের মধ্যে রেখাও ছিলেন একজন। 

সৌদি ফেরত অন্য নারীদের অবস্থা স্বাভাবিক মনে হলেও রেখা ছিলেন পুরোপুরি অস্বাভাবিক। শাহজালাল বিমানবন্দরে ফ্লাইট থেকে নামার পর তাকে এক নারীর মাধ্যমে বের করে আনা হয়। এরপর তাকে কিছুক্ষণের জন্য একটি মালবাহী স্ট্রেচারে বসিয়ে রাখা হয়। পরে তার হাতে ব্র্যাকের অভিবাসন শাখা থেকে আগত স্বেচ্ছাসেবকরা খাবারের প্যাকেট তুলে দেন। সেই খাবার খাওয়ার ফাঁকে ফাঁকে জোছনার কথা হয় সাংবাদিকদের।

সৌদি ফেরত ওই নারী মাঝেমধ্যে তার বাবার নাম, গ্রাম, জেলার নাম বলতে পারলেও পরক্ষণই আবার সব ভুলে যাচ্ছিলেন। বারবার সৌদির সেই বাসার মালিকের নির্যাতনের গল্পগুলো বলছিলেন আর বাংলা-আরবি মিশিয়ে কী কী সব বলছিলেন! বারবার তার শরীরে ইঞ্জেকশন পুশ করার কথাও বলছিলেন। তার শরীরের বিভিন্ন জায়গায় বাসার মালিক কেন ইঞ্জেকশন পুশ করতেন, তা তিনি নিজেও জানতেন না। 

রেখার ভাষ্য, খারাপ কাজ করতে চাইলে বাঁচার জন্য তিনি সবার সামনে বসে নামাজ পড়তেন। তার শরীরে ৩০টা ইঞ্জেকশন দেওয়া হয়েছে। তার মালিক বলতেন, ইদরা (আরবিতে ইঞ্জেকশন) ভালো, এটা বলেই পুশ করতো। 

‘সুঁই ফুটানোর লগে লগে আমার মাথা ঘুরান দিয়া পইরা যাইতাম। মাটিত পইড়া অজ্ঞান হইয়া যাইতাম। ওরা আমারে মাইরা পাগল বানাইছে। আল্লাহ ওগো বিচার কইরবে।’ 

রেখা আরও জানান, তার কোনো এক সময় বিয়ে হয়েছিল। কিন্তু স্বামীর সঙ্গে সংসার করা হয়নি। সৌদি যাওয়ার আগ মুহূর্ত পর্যন্ত বাবার বাড়িতেই থাকতেন। বাড়তি আয়ের আশায় দালালের মাধ্যমে সৌদি পাড়ি জমান তিনি। মানসিক ভারসাম্যহীন হয়ে রেখা যে দেশে ফিরছেন, খবরটি সে আসার দিন পর্যন্ত জানতে না তার পরিবারের সদস্যরা। 

পরে তার পরিবারকে ব্র্যাকের অভিবাসন শাখার পক্ষ থেকে যোগাযোগ করে জানানো হয়েছে। অবশ্য এখনো ব্র্যাকের অভিবাসন শাখায় তাকে রাখা হয়েছে। 

আগামীকাল (২৪ জুলাই) রেখাকে মানসিক হাসপাতালে ভর্তি করা হতে পারে বলে জানিয়েছেন অভিবাসন শাখার সংশ্লিষ্টরা। 


অরিন/নিউজ টোয়েন্টিফোর


ঘাতক সেই সুপ্রভাতের নিবন্ধন সাময়িক বাতিল
ওবায়দুল কাদেরের বাইপাস সার্জারি, নোয়াখালীতে মিলাদ
কাপ্তাইয়ে ট্রাক উল্টে দু'জন নিহত
সড়ক আন্দোলনকারীদের সঙ্গে ভিপি নুরের একাত্মতা
বনানী কবরস্থানে শিক্ষার্থীর দাফন সম্পন্ন 
'খালেদা জিয়া খুবই অসুস্থ, হুইল চেয়ারে বসতে পারছেন না'
'সর্বোচ্চ সাজা পাবে মসজিদে হামলাকারী'
কাল ওবায়দুল কাদেরের বাইপাস সার্জারি, দোয়া কামনা
সুপ্রভাতের চালকের সর্বোচ্চ শাস্তিসহ ৮ দাবি
‘অস্তিত্ব বিলিনের পথে হাঁটছে বিএনপি’
‘নির্বাচন নিয়ে দুর্বৃত্তদের দৌরাত্ম্য বেড়েই চলেছে’
দাঁড়িয়ে থাকা বাসকে কাভার্ডভ্যানের ধাক্কা, নিহত ৩
উত্তরায় এসি বিস্ফোরণে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা দগ্ধ
টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে মাদক কারবারি’ নিহত
রায়পুরায় আ.লীগের দুপক্ষের গোলাগুলি, নিহত ২
বাল্যবিয়ের বলি হলো তানিয়া
অপহরণের সাতদিন পর সংখ্যালঘু কিশোরী উদ্ধার
তিন ডাকাতকে চিনলেন রোজী সিদ্দিকী
সুনামগঞ্জে আ.লীগ নেতাকে ছুরি মেরে হত্যা
রাঙামাটিতে আ.লীগ নেতাকে গুলি করে হত্যা
ঘাতক সেই সুপ্রভাতের নিবন্ধন সাময়িক বাতিল
ওবায়দুল কাদেরের বাইপাস সার্জারি, নোয়াখালীতে মিলাদ
কাপ্তাইয়ে ট্রাক উল্টে দু'জন নিহত
পাহাড়ে ফের হত্যাযজ্ঞ, আওয়ামী লীগ নেতা খুন
উপজেলা নির্বাচনে প্রচার-প্রচারণায় এগিয়ে খালেক
গাজীপুরে বসুন্ধরা সিমেন্টের রাজমিস্ত্রি কর্মশালা
মাধবদীতে ৬ দিন ধরে কলেজ ছাত্র নিখোঁজ
বেনাপোল সীমান্তে ১০ হাজার ডলারসহ আটক ১
ট্রাকের চাকায় ফার্নিচার ব্যবসায়ী নিহত
সড়ক আন্দোলনকারীদের সঙ্গে ভিপি নুরের একাত্মতা
বনানী কবরস্থানে শিক্ষার্থীর দাফন সম্পন্ন 
'খালেদা জিয়া খুবই অসুস্থ, হুইল চেয়ারে বসতে পারছেন না'
'সর্বোচ্চ সাজা পাবে মসজিদে হামলাকারী'
কাল ওবায়দুল কাদেরের বাইপাস সার্জারি, দোয়া কামনা
সুপ্রভাতের চালকের সর্বোচ্চ শাস্তিসহ ৮ দাবি
ফরিদপুরের আট উপজেলায় নির্বাচিত হলেন যারা
‘অস্তিত্ব বিলিনের পথে হাঁটছে বিএনপি’
‘নির্বাচন নিয়ে দুর্বৃত্তদের দৌরাত্ম্য বেড়েই চলেছে’
দাঁড়িয়ে থাকা বাসকে কাভার্ডভ্যানের ধাক্কা, নিহত ৩
উত্তরায় এসি বিস্ফোরণে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা দগ্ধ
মসজিদে হামলা নিয়ে বিশ্বের মুসলিম নেতাদের বক্তব্য
নিউজিল্যান্ডে মসজিদে হামলাকারীকে রিমান্ডে
গোপনেই হলো সৌদি যুবরাজের দাফন
১২ এপ্রিল থেকে সিনেমা হল বন্ধ
‘নতুন জঙ্গি বিমান প্রস্তুত; রিয়াদ-আবু ধাবিতে হামলা হবে’
বিয়ে করলেন সাব্বির রহমান
নিউজিল্যান্ডের হামলার ভিডিও প্রচার করে ধরা কিশোর
শপথ নিও না: ছাত্রলীগকে নাজমুল আলম
হামলাকারীর অস্ত্র কেড়ে মুসল্লির প্রাণ বাঁচায় খাদেম
কে এই হামলাকারী, কেন চালালেন হামলা!
ট্রাম্প বললেন, শ্বেত সন্ত্রাসবাদ হুমকি নয়
‘হাততালি ও রেটিং পেতে মুসলিমদের দায়ী করি’
‌‘ভারত ছয়টি মারলে পাকিস্তান মারবে ১৮টি’
মৃতের ভান করে বাঁচলেন বাংলাদেশি ওমর জাহিদ
নিউজিল্যান্ডে হামলায় নিহত বেড়ে ২৭
মসজিদে হামলায় নিহতদের তালিকা
‘কনসেনট্রেশন হারিয়েছিলেন’ নুর
পাকিস্তানে ঢুকতেই ভারতীয় ড্রোন ভূপাতিত
পাক সীমান্তের কাছে হিটের পরীক্ষা চালাল ভারত
সংবাদ সম্মেলন দেরিতে শেষ, বাঁচল তামিমরা

সব খবর