২০ সেপ্টেম্বর ,বৃহস্পতিবার, ২০১৮

শিরোনাম

> আন্তর্জাতিক

 

নিউজ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক

২৯ আগস্ট , বুধবার, ২০১৮ ১৮:৫৭:১৪

মিয়ানমারের সেনাপ্রধান যে কারণে নিষিদ্ধ ফেসবুকে


মিয়ানমারের সেনাপ্রধান যে কারণে নিষিদ্ধ ফেসবুকে

ছবি-সংগৃহীত


এই প্রথমবার কোনো দেশের সামরিক বা রাজনৈতিক নেতৃত্বকে ফেসবুক থেকে নিষিদ্ধ করলো। মিয়ানমারের সেনাবাহিনী প্রধানসহ কয়েকজন পদস্থ সেনা কর্মকর্তা এখন আর ফেসবুকে নেই।

মিয়ানমারের সেনা কর্মকর্তার অ্যাকাউন্ট বাতিল করে দিয়েছে ফেসবুক। রাখাইনে 'গণহত্যা' ও রোহিঙ্গাদের ওপর চালানো সহিংসতায় তাদের ভূমিকার বিষয়টি জাতিসংঘের একটি রিপোর্টে উঠে আসার পর ফেসবুক এই পদক্ষেপ নিয়েছে।

সবমিলিয়ে মিয়ানমারের সাথে সম্পর্কিত আঠারটি অ্যাকাউন্ট ও বায়ান্নটি পেজ সরিয়ে ফেলে ফেসবুক। এদের অনুসারীর সংখ্যা প্রায় এক কোটি বিশ লাখ।

মিয়ানমারে ফেসবুকই সবচেয়ে জনপ্রিয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম যার ব্যবহারকারী রয়েছে প্রায় এক কোটি আশি লাখ।

তবে জাতিসংঘের রিপোর্ট বলছে বেশিরভাগ ব্যবহারকারী মনে করেন ফেসবুকই ইন্টারনেট কিন্তু 'এটাই ঘৃণা ছড়ানোর একটি কার্যকর মাধ্যম' হিসেবে ব্যবহৃত হচ্ছে সেখানে।

কি ছিলো জাতিসংঘ রিপোর্টে?

রোহিঙ্গাদের ওপর সেনা অভিযানের বিষয়ে সম্ভবত এটাই জাতিসংঘের সবচেয়ে কড়া প্রতিবাদ।

একটি পুলিশ ফাঁড়িতে হামলার জের ধরে ওই ভয়াবহ অভিযান চালানো হয় রাখাইনে।

হাজার হাজার মানুষ নিহত হয় এবং আরও প্রায় দশ লাখ মানুষ প্রাণ বাঁচাতে পালিয়ে আসে বাংলাদেশে।

এসময় রাখাইনে ভয়াবহ মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগ ওঠে যার মধ্যে ছিলে হত্যা, ধর্ষণ, নির্যাতন।

জাতিসংঘের রিপোর্টে ছয় সামরিক কর্মকর্তার নাম উঠে আসে আর এ ছয়জনের মধ্যে রয়েছেন সেনা প্রধান জেনারেল মিন আং লিয়ান। রিপোর্টে এদের বিরুদ্ধে গণহত্যার অভিযোগ এনে তাদেরকে আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতে বিচারের কথা বলা হয়েছে।
রোহিঙ্গাদের সম্পর্কে অনলাইনে কি বলা হচ্ছে?

রয়টার্সের একটি রিপোর্টে গত বছর বলা হয়েছে যে তারা অন্তত এক হাজার পোস্ট, কমেন্টস ও ছবি পেয়েছে ফেসবুকে যেখানে রোহিঙ্গা ও মুসলিমদের আক্রমণ করা হয়েছে।

এসব কমেন্টে রোহিঙ্গাদের 'কুকুর', 'ধর্ষক' হিসেবে বর্ণনা করা হয়।

অনেকের কমেন্টে ইসলাম ধর্ম নিয়ে কটূক্তি পাওয়া যায় এমনকি একটি পেজে 'সব মুসলিমকে মেরে ফেলার' কথাও বলা হয়।

জাতিসংঘের এই রিপোর্ট নিয়ে প্রকাশিত খবরেও রোহিঙ্গা বিরোধী এমন অনেক মন্তব্য এসেছে।

একজন লিখেছেন, "রোহিঙ্গারা বাঙ্গালি..তারা আগ্রাসনকারী"।

"তারা বাঙ্গালী খাবার খায়, বাংলায় কথা বলে, বাঙ্গালী পোশাক পড়ে। বার্মার জনগণের উচিত প্রত্যেকটি বাঙ্গালীকে বাংলাদেশে পাঠিয়ে দেয়া"।

সেনাপ্রধান সম্পর্কে কী জানা যাচ্ছে?

সেনা প্রধান জেনারেল মিন আং লিয়ানের দুটি অ্যাকাউন্ট ছিলো ফেসবুকে।

এএফপি বলছে একটি অ্যাকাউন্টে অনুসারী ছিলো তের লাখ আর অন্যটি অনুসরণ করছিলেন ২৮ লাখ ফেসবুক ব্যবহারকারী।

মিয়ানমারের সামাজিক ও রাজনৈতিক বাস্তবতায় সেনাপ্রধান খুবই প্রভাবশালী।

একটি ফেসবুক পোস্টে তিনিও রোহিঙ্গাদের 'বাঙ্গালী' হিসেবে চিত্রিত করেন এবং বলেন যে রোহিঙ্গা শব্দটি একটি বানানো শব্দ।

ফেসবুক বলছে নিষিদ্ধ অন্য পেজগুলোর মতো সেনাপ্রধানের পেজও জাতিগত ও ধর্মীয় উত্তেজনাকে উস্কে দিয়েছে।

মিয়ানমারর নিউজ সাইট মিয়ানমার টাইমসের মতে দেশটির প্রেসিডেন্টের একজন মুখপাত্র বলেছেন ফেসবুক অ্যাকাউন্টগুলো নিষিদ্ধের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে সরকারের সাথে কোনো আলোচনা ছাড়াই।

অ্যাকাউন্টগুলো পুনরায় চালুর বিষয়ে ফেসবুকের সাথে আলোচনার কথাও জানান তিনি।
ফেসবুক আসলে কী করেছে?

২০১৪ সালেই মিয়ানমারে ঘৃণা ছড়ানোর কাজে ফেসবুক ব্যবহৃত হচ্ছে বলে অভিযোগ ওঠে।

ওই বছর মার্চেই জাতিসংঘের একজন কর্মকর্তার মুখেও বিষয়টি উঠে আসে।

জাতিসংঘ রিপোর্ট বলছে ঘৃণা ছড়ানোর বিরুদ্ধে ফেসবুকের ব্যবস্থা নেয়ার গতি ধীর ও অকার্যকর।

এতে বৈষম্য ও সহিংসতায় ফেসবুক পোস্ট ও ম্যাসেজ কিভাবে ভূমিকা রেখেছে তার স্বাধীন ও বিস্তারিত তদন্তের কথাও বলা হয়েছে।

শেষ পর্যন্ত ফেসবুক নিজেও তাদের ধীরগতির ব্যবস্থা নেয়ার কথা স্বীকার করেছে।

যদিও একই সাথে তারা হেট স্পিচ চিহ্নিত করতে উন্নত প্রযুক্তি ব্যবহারের কথা বলেছে।

একই সাথে তারা স্বীকার করেছে যে মিয়ানমারে অনেকেই নিউজের জন্য ফেসবুকের ওপরই নির্ভর করে থাকেন।


নিউজ টোয়েন্টিফোর/কামরুল)


প্রধান শিক্ষকের নির্যাতনে শিক্ষার্থী অজ্ঞান!
শিক্ষক হলেন হাছান মাহমুদ, পড়াবেন জাহাঙ্গীরনগরে
জাল নোট ও টাকা তৈরির সরঞ্জামসহ প্রতারক আটক
নদীতে ডুবে নির্মাণ শ্রমিকের মৃত্যু
কুমিল্লায় দুই ব্যক্তির অস্বাভাবিক মৃত্যু
প্রেম প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায়.... 
'বিচার বিভাগকে সরকার নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে'
অসহনীয় লোড শেডিংয়ে অতিষ্ঠ রাঙামাটিবাসী
টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্তে আফগানরা
যমুনার পেটে টাঙ্গাইলের শতাধিক ঘর-বাড়ি
কারাগারে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে যুবকের মৃত্য
রোববার চালু হচ্ছে সিম্ফোনির কারখানা 
অক্টোবরে আসছে গুগলের স্মার্ট ডিসপ্লে
খুলনায় কিশোরের লাশ নদীতে
রক্তাল্পতার লক্ষণ, কারণ ও প্রতিকারের উপায়
ইসরাইলকে রাশিয়ার হুঁশিয়ারি
খালেদা জিয়ার অনুপস্থিতিতে বিচার চলবে
নিউইয়র্কে যুবলীগের দু'গ্রুপে সংঘর্ষ
ভারতীয় ২০টি প্রশিক্ষিত ঘোড়া বেনাপোল বন্দরে
বাজারে আসছে গো-মূত্রের শ্যাম্পু ও গোবরের সাবান!
প্রধান শিক্ষকের নির্যাতনে শিক্ষার্থী অজ্ঞান!
সিংড়ায় হাজার হাজার শিক্ষার্থীদের শপথ
শিক্ষক হলেন হাছান মাহমুদ, পড়াবেন জাহাঙ্গীরনগরে
জাল নোট ও টাকা তৈরির সরঞ্জামসহ প্রতারক আটক
চাঁপাইনবাবগঞ্জে নদীতে ডুবে রাজমিস্ত্রির মৃত্যু
নদীতে ডুবে নির্মাণ শ্রমিকের মৃত্যু
কুমিল্লায় দুই ব্যক্তির অস্বাভাবিক মৃত্যু
প্রেম প্রস্তাবে রাজি না হওয়ায়.... 
'বিচার বিভাগকে সরকার নিয়ন্ত্রণে নিয়েছে'
অসহনীয় লোড শেডিংয়ে অতিষ্ঠ রাঙামাটিবাসী
টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্তে আফগানরা
যমুনার পেটে টাঙ্গাইলের শতাধিক ঘর-বাড়ি
কারাগারে বিদ্যুৎস্পৃষ্টে যুবকের মৃত্য
রোববার চালু হচ্ছে সিম্ফোনির কারখানা 
অক্টোবরে আসছে গুগলের স্মার্ট ডিসপ্লে
মায়ের ওপর অভিমানে স্কুলছাত্রীর আত্মহত্যা
মাদারীপুরে সেতুর দাবিতে শিক্ষার্থীদের সড়ক অবরোধ
খুলনায় কিশোরের লাশ নদীতে
দিনাজপুরে মাদক বিরোধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত
রক্তাল্পতার লক্ষণ, কারণ ও প্রতিকারের উপায়
রাষ্ট্রপতির হাতে পুরস্কার পাওয়া ছাত্রীকে গণধর্ষণ!
জ্বালানি মন্ত্রণালয়ের স্টিকারযুক্ত মাইক্রোবাসে ৪ মণ গাাঁজা
ওমানের সালাম এয়ারকে শাহজালাল বিমানবন্দরে জরিমানা
নয় বছরের শিশুকে ধর্ষণ করল বাবা!
বসুন্ধরা নিয়ে এল স্বাস্থ্য সহনীয় মশার কয়েল 'এক্সট্রিম'
দেহ ব্যবসা করতো র‌্যাম্প মডেল কান্তা
পোশাক নিয়ে সমালোচনার মুখে জাহ্নবী কাপুর
৩০ দেশ পাড়ি দিয়ে হেঁটে হজে গিয়েছিলেন মহিউদ্দিন
আ.লীগ-বিএনপির ৪০০ নেতার শপথ
কাবা শরীফের ভেতরে ঢুকলেন ইমরান খান(ভিডিও)
আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে টাইগারদের সম্ভাব্য একাদশ
এখন ‌‘বয়ফ্রেন্ড’ জুটবে অ্যাপের মাধ্যমে
‘মন্ত্রীর পা ধরেও সড়কের কাজ শুরু করা যায় নি’
জাম্বুরি পার্কে ১ ঘণ্টা হাঁটলেন গণপূর্তমন্ত্রী!
অরুণা বিশ্বাসের এ কী হাল!
ইয়াবা সেবনে বাধা দেয়ায় মাকে হত্যা!
কুড়িগ্রামে কিশোর-কিশোরীর লাশ উদ্ধার
ব্রিজের রেলিং ভেঙে হাতিরঝিল লেকে প্রাইভেটকার
ওমরাহ ভিসায় সৌদি ভ্রমণে বিশেষ ছাড়
সুন্দরী তরুণীদের ধর্ষণ ও হত্যা করাই তার কাজ

সব খবর