২৪ অক্টোবর , বুধবার, ২০১৮

শিরোনাম

> বাংলাদেশ

>> জনদুর্ভোগ

 

রতন মাহমুদ, শরীয়তপুর

১৬ সেপ্টেম্বর ,রবিবার, ২০১৮ ১২:৫৭:০৭

নদীর পেটে ঘরবাড়ি, তার উপরে কিস্তি আতঙ্ক


নদীর পেটে ঘরবাড়ি, তার উপরে কিস্তি আতঙ্ক

নড়িয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স পদ্মা গর্ভে বিলীন হয়ে যাচ্ছে


পদ্মার করাল গ্রাস প্রতিদিনই গিলে খাচ্ছে শরীয়তপুরের নড়িয়া উপজেলার সরকারি-বেসরকারি ভবন ও মূলফৎগঞ্জ বাজারের বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানসহ বহু লোকের সাজানো গোছানো ঘর-বাড়ি। পরিবার-পরিজন নিয়ে হাজারো মানুষের ঠাঁই হয়েছে খোলা আকাশের নিচে। নেই খাবার, নেই পানি। যখন খোলা আকাশের নিচে এমনই মানবেতর জীবন যাপন করছে নদীভাঙনের কবলে পড়া অসহায় মানুষগুলো, তখন আরেকটি দুঃশ্চিন্তা তাদের তাড়া করে ফিরছে। কিস্তি ও সুধের টাকা পরিশোধ করবে কীভাবে?

চড়া সুদে টাকা এনে অনেকেই কৃষিকাজ ও ব্যবসা করতেন। ক'দিনের ভাঙনে অনেকের ঘর-বাড়ি, ব্যবসা প্রতিষ্ঠান নদীগর্ভে বিলীন হয়ে গেছে। নেই থাকার জায়গা। খাবার টাকা। নেই শিশুদের জন্য ওষুধ কেনার টাকা। খোলা আকাশের নিচে যুবতি মেয়েদের নিরাপত্তা নিয়ে রয়েছে পরিবারগুলোর মধ্যে শঙ্কা। তার উপরে রয়েছে চোরের উৎপাত। এই অবস্থায় কিস্তির টাকা নিয়েও বিপাকে আছে কয়েকশ' পরিবার। পেটে ভাত থাকুক আর নাই থাকুক, সময়মতো ঋণদাতা প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা হাজির হচ্ছেন কিস্তি ও সুদের টাকা নিতে।

ভাঙন কবলিত রাশ মনি দাস বলেন, জীবন বাঁচাতে আমার স্বামী বাজারে বাজারে গিয়ে বাদাম বিক্রি করছেন। এতে আর সংসার চলে না। তার উপর আবার কিস্তির টাকা পরিশোধ করতে হচ্ছে। আমরা খাইতে পাই না, কিস্তি দিমু কীভাবে। প্রতিদিন কিস্তির স্যারেরা আইসা চাপ দিতাছে। আমি এক বছর যাবৎ প্যারালাইসিসে ভুগতাছি। আমারে ডাক্তার দেহানোর জন্য স্বামী কিস্তি তুলেছিল। নদী সব নিয়া গেছে। এহন তো ওষুধই কিনতে পারি না, কিস্তি দেব কীভাবে?
সরকারের কাছে কিস্তি থেকে মুক্ত করার দাবি জানিয়েছে ভাঙন কবলিতরা।

এদিকে বর্ষা মৌসুমে ৫ হাজার ৮২ পরিবারের তালিকা করেছে উপজেলা প্রশাসন। এবার ভাঙনে দুই শয়ের উপরে ভবন নদী গর্ভে বিলীন হয়েছে বলে জানিয়েছে প্রশাসন। এ পর্যন্ত ভাঙন কবলিতদের আশ্রয়ের ব্যবস্থা করতে পারেনি প্রশাসন, তবে বলছে নির্মান কাজ চলছে।

রাশ মনি দাস বলেন, আমার স্বামী মূলফৎগঞ্জ বাজারে দোকান করতো। এক মাস সাত দিন হলো আমাদের ঘরবাড়ি, দোকান পাট নদীতে চলে গেছে। সব হারিয়ে কেদারপুর রাস্তার পাশে কোনরকম মাথা গুজে আছি। আমার দুইটি সন্তান- ছেলে অনিক দাস আর মেয়ে প্রিয়া দাস। নদীতে আমাদের সব নিয়ে যাওয়ায় ছেলে-মেয়ের পড়ালেখে বন্ধ হয়ে গেছে। 

নড়িয়া থানার ওসি মো: আসলাম উদ্দিন বলেন, ভাঙন এলাকায় পর্যাপ্ত নিরাপত্তা দেওয়া হয়েছে । প্রয়োজনে নিরাপত্তার জন্য আরো পুলিশ মোতায়ন করা হবে।

নড়িয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সানজিদা ইয়াসমিন বলেন, ভাঙনে ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের মাঝে চাল, শুকনা খাবার ও টিন বিতরণ অব্যাহত আছে। আমাদের কৃষি ঋণ কমিটির মিটিংয়ে জেলা প্রশাসক নদী ভাঙন কবলিত এলাকায় আগামী পাঁচ মাস কিস্তি আদায়ের সকল কার্যক্রম স্থগিত রাখার জন্য ঋণদাতা ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানগুলোকে নিদের্শনা দিয়েছেন। নির্দেশনার চিঠি সকল ব্যাংক, এনজিও ও বিমা কোম্পানিতে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।


মেয়ের বয়সীদের সঙ্গেও অনু মালিকের যৌন সম্পর্ক! 
সিলেটে ঐক্যফ্রন্ট নেতাদের মাজার জিয়ারত
‘মেয়েদের দেহ স্পর্শ দোষের কিছু না’
রংপুরে দুই বাসের সংঘর্ষ, নিহত ২
‘প্রধানমন্ত্রীর ১০০ বছরের প্ল্যান’
বাবরী মসজিদ ইস্যুতে ওয়াইসির হুঁশিয়ারি
খাসোগির ছেলের সঙ্গে সৌদি বাদশাহ ও যুবরাজের সাক্ষাৎ
পাঁচ ম্যাচ পর রিয়ালের জয়
ছেলেকে বেড়াতে পাঠিয়ে পুত্রবধূকে ধর্ষণ!
ডা. জাফরুল্লাহর গণস্বাস্থ্য ফার্মাসিউটিক্যালস সিলগালা
জর্ডানকে ভয় দেখাচ্ছে ইসরাইল!
নারায়ণগঞ্জে গৃহবধূকে গণধর্ষণ
লাশ পাওয়া গেছে খাসোগির!
ভবনের ছাদে মিলল যুবকের লাশ
কেক কেটে ডেইলি সানের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন শুরু
‘রাজনীতি নয়, ব্যক্তিগত কারণে মইনুল গ্রেপ্তার’
রণবীরের আগেও পাঁচটি প্রেম করে দীপিকা?
‘রাজনৈতিক নেতাকর্মীদের গ্রেপ্তার অনাকাঙ্ক্ষিত‘
মাদারীপুরে জেএমবির সামরিক কমান্ডার গ্রেপ্তার
যুক্তরাষ্ট্রে ভয়াবহ আগুন, ধসে পড়ল ভবন
মেয়ের বয়সীদের সঙ্গেও অনু মালিকের যৌন সম্পর্ক! 
সিলেটে ঐক্যফ্রন্ট নেতাদের মাজার জিয়ারত
‘মেয়েদের দেহ স্পর্শ দোষের কিছু না’
রংপুরে দুই বাসের সংঘর্ষ, নিহত ২
‘প্রধানমন্ত্রীর ১০০ বছরের প্ল্যান’
বাবরী মসজিদ ইস্যুতে ওয়াইসির হুঁশিয়ারি
খাসোগির ছেলের সঙ্গে সৌদি বাদশাহ ও যুবরাজের সাক্ষাৎ
পাঁচ ম্যাচ পর রিয়ালের জয়
ছেলেকে বেড়াতে পাঠিয়ে পুত্রবধূকে ধর্ষণ!
ডা. জাফরুল্লাহর গণস্বাস্থ্য ফার্মাসিউটিক্যালস সিলগালা
'মাসুদা ভাট্টি আমার জন্য ছুরি শানাতে ব্যস্ত ছিল'
জর্ডানকে ভয় দেখাচ্ছে ইসরাইল!
নারায়ণগঞ্জে গৃহবধূকে গণধর্ষণ
পলাশে ২০০ পিস ইয়াবাসহ মাদক সম্রাজ্ঞী আটক
লাশ পাওয়া গেছে খাসোগির!
ভবনের ছাদে মিলল যুবকের লাশ
সিডনিতে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় শোক দিবস পালন
কেক কেটে ডেইলি সানের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন শুরু
‘রাজনীতি নয়, ব্যক্তিগত কারণে মইনুল গ্রেপ্তার’
রণবীরের আগেও পাঁচটি প্রেম করে দীপিকা?
ক্ষেপণাস্ত্র ছুড়লেই পরমানু হামলা, পুতিনের হুঁশিয়ারি
সালমান ইন, সালমান আউট!
খাসোগির দেহের টুকরো সৌদি যায় যেভাবে
মাসুদা ভাট্টি ভীষণরকম চরিত্রহীন: তসলিমা নাসরিন
বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘতম সমুদ্র সেতু
অবশেষে খাসোগি হত্যার কথা স্বীকার সৌদির
টেলিভিশনে খবর পড়লেন চঞ্চল-জয়া
এস-৩০০-এর ভয়ে সিরিয়ায় যায় না ইসরাইল
ডা. জাফরুল্লাহর গণস্বাস্থ্য ফার্মাসিউটিক্যালস সিলগালা
লাশ পাওয়া গেছে খাসোগির!
যৌতুক দাবি, বরের মাথা ন্যাড়া করল গ্রামবাসী!
মহানবী (স.) এর রওজা জিয়ারত করেছেন প্রধানমন্ত্রী
মইনুলের গ্রেপ্তার উদ্বেগজনক: ড. কামাল
‘শীঘ্রই চীন-রাশিয়ার সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের যুদ্ধ’
বিনিয়োগ বাড়াতে সৌদির প্রতি প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান
চার বছর ধরে বোনকে ধর্ষণ করল দুই ভাই
জেলেদের হাতে পুলিশ আটক!
শারীরিক সম্পর্কে রাজি না হওয়ায়...
সৌদির সঙ্গে হাজার কোটি ডলারের অস্ত্রচুক্তি বাতিল!
'ক' ইউনিটে ফেল করা ছাত্র যেভাবে 'ঘ' ইউনিটে প্রথম

সব খবর