২১ সেপ্টেম্বর ,শুক্রবার, ২০১৮

শিরোনাম

> বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

 

নিউজ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক

১৪ ফেব্রুয়ারি , বুধবার, ২০১৮ ২০:১৭:১৯

‌‍‍‍‍‍‘ইন্টারনেট নয়, প্রশ্ন ফাঁস করে মানুষ’


‌‍‍‍‍‍‘ইন্টারনেট নয়, প্রশ্ন ফাঁস করে মানুষ’

ফাইল ছবি


ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার বলেছেন, মানুষের ধারণা ইন্টারনেট প্রশ্ন ফাঁস করে। কিন্তু ইন্টারনেট প্রশ্ন ফাঁস করে না, করে মানুষ।

বুধবার সচিবালয়ে এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী এমন মন্তব্য করেন। ‘অমর একুশে গ্রন্থমেলা- ২০১৮’ উপলক্ষে ডাকটিকিট, উদ্বোধনী খাম, ডাটাকার্ড প্রকাশ ও জাতীয় পরিচয়পত্র পরিবহনের জন্য নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে ডাক বিভাগের সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরের (এমওইউ) জন্য এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

তিনি বলেন, দেশের পরীক্ষা নেয়ার প্রাচীন পদ্ধতি ডিজিটাল যুগে অচল হয়ে যাবে।

প্রশ্ন প্রস্তুত সত্যি দুরুহ একটি কাজ উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, প্রশ্ন ফাঁস কেমন করে হয় এবং এগুলো শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের বিষয়। শিক্ষামন্ত্রী এ বিষয়ে বিস্তারিত তথ্য দিতে পারবেন। আমাদের দিক থেকে যে বিষয়টি স্পষ্ট করা দরকার তা হলো, প্রচলিত যে পদ্ধতিতে আমরা পরীক্ষা গ্রহণ করি, প্রশ্ন যেভাবে প্রস্তুত করি, প্রশ্ন প্রস্তুত করা থেকে পরীক্ষার্থী পর্যন্ত যেভাবে পৌঁছায়; প্রক্রিয়াটি এমন যে এতসব মানুষ এত স্তরে যুক্ত আছেন, এটি যে কারো জন্যই একটি চ্যালেঞ্জ। পুরো প্রক্রিয়াটির মধ্যে নিচ্ছিদ্র নিরাপত্তার বিধান করা।

আমাদের মধ্যে ধারণা জন্ম নিয়েছিল যে, ফেসবুকে প্রশ্ন ফাঁস হয়। ধারণা জন্মেছিল ইন্টারনেট প্রশ্ন ফাঁস করে। বিষয়টি খুব সিম্পল, না ফেসবুক, না ইন্টারনেট, না হোয়াটস অ্যাপ প্রশ্ন ফাঁস করে। প্রশ্ন ফাঁস হয় মানুষের হাতে।

তিনি বলেন, মানুষে হাতে যখন প্রশ্ন ফাঁস হয় তথন আমাদের ইন্টারনেটের ওপর দায়টা আসে। কারণ ইন্টারনেটের মাধ্যমে ব্যক্তিগত তথ্য থেকে রাষ্ট্রীয় তথ্য পর্যন্ত প্রচারের জন্য ব্যবহার হয়।

মন্ত্রী বলেন, তথ্য প্রচারের দায়টা যদি প্রযুক্তির ঘাড়ে দিতে চান তবে তাকে দেয়া যেতে পারে। কিন্তু বস্তুত পক্ষে আমি বিশ্বাস করি, যে পদ্ধতিতে পরীক্ষা নেয়া হয়, যে পদ্ধতিতে প্রশ্ন তৈরি হয়, যে পদ্ধতিতে শিক্ষার্থীদের মূল্যায়নের চেষ্টা হয়, আমার মনে হয় সেটা নতুন করে ভাবার সময় এসেছে। আমরা যদি নতুন করে না ভাবি তবে শত শত বছরের প্রাচীন পদ্ধতি ডিজিটাল যুগে অচল হতে পারে।

‘ডিজিটাল পদ্ধতিতে নিচ্ছিদ্র নিরাপত্তা দেয়ার উপায় আছে’ জানিয়ে মোস্তাফা জব্বার বলেন, ‘সেই উপায় আমাদের হাতে আছে তবে তা প্রয়োগ করাটা একটা বড় চ্যালেঞ্জ। লাখ লাখ শিক্ষার্থী, লাখ লাখ শিক্ষকের মধ্যে কারো পক্ষে প্রশ্ন ফাঁস করা সম্ভব হবে না। তবে ইন্টারনেট বন্ধ করা কিংবা ফেসবুক বন্ধ করা সমাধান নয়।’

প্রযুক্তিগত দিক থেকে আমরা যে কাউকে ট্রেস করতে পারি জানিয়ে তিনি বলেন,  প্রযুক্তিতে যেভাবে সরাসরি চিহ্নিত করার সুযোগ আছে, আবার ফাঁকি দেয়ার সুযোগও আছে। আমার কাছে যদি কোনো রিয়েল আইপি অ্যাড্রেস থাকে তবে তাকে আমি খুব সহজেই শনাক্ত করতে পারব। কিন্তু ভিপিএন ইউজ করা হলে শনাক্ত করা ডিফিকাল্ট হয়ে যাবে।

‘ফাঁকিটা রোধের জন্য প্রযুক্তিগত সক্ষমতার বিষয় আছে। আমাদের এখানে ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর সংখ্যা ব্যাপকভাবে বেড়েছে, বলতে গেলে বিস্ফোরণ ঘটেছে। সেই জায়গায় যে ধরনের নিরাপত্তা ব্যবস্থা গড়ে ওঠার দরকার ছিল সেভাবে আমরা গড়ে উঠতে পারিনি।’

মন্ত্রী বলেন, ‘সামগ্রিক কাজগুলো দ্রুত করার চেষ্টা করছি, আমরা চ্যালেঞ্জটা বুঝতে পারছি। চ্যালেঞ্জটা মোকাবেলার সক্ষমতা সরকারের আছে।’

এখন কি তবে প্রশ্ন ফাঁস রোধে কিছুই করার নেই- এমন প্রশ্নের জবাবে মোস্তাফা জব্বার বলেন, ‘এখন যে মুহূর্তের মধ্যে আছি, সেই মুহূর্তে যে ধরনের প্রযুক্তিগুলো আমাদের হাতে থাকা দরকার সেই প্রযুক্তিগুলো.....যেমন ধরুন যিনি ফেসবুক থেকে প্রশ্ন ফাঁস করেছেন তার আইপি অ্যাড্রেস পেতে আমার ফেসবুক থেকে তথ্য পাওয়া দরকার। আমাদের যদি ফেসবুকের সঙ্গে সরাসরি এমওইউ না থাকে, যদিও ইতোমধ্যে ফেসবুকের সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক স্থাপিত হয়েছে, কিন্তু ওই অ্যাড্রেস পেতে আমাদের যে সময় লাগবে ওই সময়টুকুর মধ্যে আমার ক্ষতি যা হওয়ার হয়ে যায়। সমস্যাটা হচ্ছে সেই জায়গায়।’

তিনি আরও বলেন, আমরা ইনফ্যাক্ট তিনদিক থেকে কাজ করছি- আমাদের বিটিআরসি কাজ করছে, আইসিটি ডিভিশন কাজ করছে, পুলিশ বাহিনী কাজ করছে। এর মধ্যে একটা সমন্বয় গড়ে তোলার চেষ্টা করছি। যে সমস্যাটা, সেটা যাতে প্রকৃত সমাধানের জায়গায়... শুধু প্রশ্ন ফাঁসের বিষয় নয়, বস্তুত পক্ষে আমাদের চ্যালেঞ্জ হচ্ছে পুরো ইন্টারনেট ব্যবস্থাকে নিরাপদ করা।

ডাকটিকিট, উদ্বোধনী খাম, ডাটাকার্ড প্রকাশ

‘অমর একুশে গ্রন্থমেলা- ২০১৮’ উপলক্ষে ১০ ও ৫ টাকা মূল্যমানের দুটি স্মারক ডাকটিকিট, ৫ টাকা মূল্যমানের একটি স্যুভেনির শিট, ১০ টাকা মূল্যমানের একটি উদ্বোধনী খাম ও ৫ টাকা মূল্যমানের একটি ডাটাকার্ড প্রকাশ করেন মোস্তাফা জব্বার।

 


নওগাঁয় শিক্ষকের প্রহারে শিক্ষার্থীর মৃত্যু, সুপার গ্রেপ্তার
নাম নিয়ে বিপাকে সালমান!
“ছাত্র আন্দোলনের নামে এরা কারা?”
লিটন-শান্তর পর সাকিবও আউট
চট্টগ্রামের সঙ্গে ঢাকা-সিলেটের রেল যোগাযোগ বন্ধ
কুমিল্লায় বিদ্যুতায়িত হয়ে ৪ জনের মৃত্যু
আমিরাতকে উড়িয়ে দিল বাংলাদেশের মেয়েরা
আজ কি পারবে বাংলাদেশ?
তাঞ্জানিয়ায় ফেরি ডুবি: নিহতের সংখ্য বেড়ে শতাধিক 
কাশ্মীরে ৩ পুলিশকে হত্যা করল গেরিলারা
নারী কন্ঠে ‘এসপি ভাবি’ সেজে ওসিদের সঙ্গে প্রতারণা!
স্টার জলসায় সিরিয়াল দেখতে গিয়ে...
নওগাঁয় প্রতারক চক্রের ৪ যুবতী ও তাদের সহযোগী আটক
‘ইরান নয়, সৌদি আরবই বিশ্বের জন্য হুমকি’
সব স্কুলের বার্ষিক পরীক্ষা শুরু ২৮ নভেম্বর
যেভাবে বুঝবেন হার্ড ডিস্ক নষ্ট হচ্ছে
ট্রেনে কাটা পড়ে প্রাণ গেল যুবকের
পাবনায় নৌকাডুবি: নিখোঁজদের সন্ধানে অভিযান চলছে
মানব দেহেও রয়েছে সোনা!
মাথায় শোকের কালো কাপড় বেঁধে কারবালার স্মরণ
নওগাঁয় শিক্ষকের প্রহারে শিক্ষার্থীর মৃত্যু, সুপার গ্রেপ্তার
নাম নিয়ে বিপাকে সালমান!
ঢাকায় যাত্রা করলো 'হ্যালো ভিসা প্রসেস এন্ড ট্যুরস'
“ছাত্র আন্দোলনের নামে এরা কারা?”
লিটন-শান্তর পর সাকিবও আউট
চট্টগ্রামের সঙ্গে ঢাকা-সিলেটের রেল যোগাযোগ বন্ধ
কুমিল্লায় বিদ্যুতায়িত হয়ে ৪ জনের মৃত্যু
আমিরাতকে উড়িয়ে দিল বাংলাদেশের মেয়েরা
আজ কি পারবে বাংলাদেশ?
তাঞ্জানিয়ায় ফেরি ডুবি: নিহতের সংখ্য বেড়ে শতাধিক 
কাশ্মীরে ৩ পুলিশকে হত্যা করল গেরিলারা
নারী কন্ঠে ‘এসপি ভাবি’ সেজে ওসিদের সঙ্গে প্রতারণা!
স্টার জলসায় সিরিয়াল দেখতে গিয়ে...
নওগাঁয় প্রতারক চক্রের ৪ যুবতী ও তাদের সহযোগী আটক
‘ইরান নয়, সৌদি আরবই বিশ্বের জন্য হুমকি’
সব স্কুলের বার্ষিক পরীক্ষা শুরু ২৮ নভেম্বর
যেভাবে বুঝবেন হার্ড ডিস্ক নষ্ট হচ্ছে
রাজৈরে পানিতে ডুবে ২ শিশুর মৃত্যু
ট্রেনে কাটা পড়ে প্রাণ গেল যুবকের
পাবনায় নৌকাডুবি: নিখোঁজদের সন্ধানে অভিযান চলছে
জ্বালানি মন্ত্রণালয়ের স্টিকারযুক্ত মাইক্রোবাসে ৪ মণ গাাঁজা
নয় বছরের শিশুকে ধর্ষণ করল বাবা!
বসুন্ধরা নিয়ে এল স্বাস্থ্য সহনীয় মশার কয়েল 'এক্সট্রিম'
কাবা শরীফের ভেতরে ঢুকলেন ইমরান খান(ভিডিও)
আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে টাইগারদের সম্ভাব্য একাদশ
আ.লীগ-বিএনপির ৪০০ নেতার শপথ
শিক্ষক হলেন হাছান মাহমুদ, পড়াবেন জাহাঙ্গীরনগরে
‘মন্ত্রীর পা ধরেও সড়কের কাজ শুরু করা যায় নি’
কুড়িগ্রামে কিশোর-কিশোরীর লাশ উদ্ধার
ইসরাইলকে রাশিয়ার হুঁশিয়ারি
ওমরাহ ভিসায় সৌদি ভ্রমণে বিশেষ ছাড়
ব্রিজের রেলিং ভেঙে হাতিরঝিল লেকে প্রাইভেটকার
সুন্দরী তরুণীদের ধর্ষণ ও হত্যা করাই তার কাজ
ট্রাম্পের গোপন বিষয়ে ‘বোমা’ ফাটালেন স্টর্মি
বগুড়ায় ইয়াবাসহ চার বোন আটক
দুই স্কুল ছাত্রীকে বেত্রাঘাত 
ঘুমন্ত স্ত্রীর পাশেই ১২ বছরের মেয়েকে ধর্ষণ!
ভাড়াটে গুণ্ডা দিয়ে মনুকে খুন করান স্ত্রী ও ছোট ভাই
নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতাল থেকে ৯ দালাল আটক
ময়মনসিংহ মেডিকেলের শিক্ষার্থী ভুটানের প্রধানমন্ত্রী!

সব খবর