২৩ এপ্রিল ,সোমবার, ২০১৮

শিরোনাম

> বাংলাদেশ

>> বিবিধ

 

ফাতেমা জান্নাত মুমু,রাঙামাটি

১৬ এপ্রিল ,সোমবার, ২০১৮ ১৭:০৮:০৬

‘পোশাকে মিলছে স্ব স্ব সম্প্রদায়ের পরিচয়’


‘পোশাকে মিলছে স্ব স্ব সম্প্রদায়ের পরিচয়’

ভাষার ভিন্নতা, তেমনি রয়েছে পোশাকের বৈচিত্র্যতা


তিন পার্বত্য জেলা মিলে বসবাস করে ১০ ভাষাভাষির ১১টি ক্ষুদ্র ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠী। এরা হচ্ছে- চাকমা, খিয়াং, তঞ্চঙ্গ্যা, মারমা, রাখাইন, খুমী, ম্রো, চাক, বম, পাংখোয়া ও ত্রিপুরা। এসব নৃ-গোষ্ঠীদের যেমন রয়েছে ভাষার ভিন্নতা, তেমনি রয়েছে পোশাকের বৈচিত্র্যতা। যেন পোশাকে মিলছে স্ব স্ব সম্প্রদায়ের পরিচয়। এসব পেশাক দেখতে যেমন আকর্ষনীয় তেমনি চাহিদাও অনেক। তাই রাঙামাটি, খাগড়াছড়ি ও বান্দরবান জেলায় ঘুরতে গিয়ে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের বাহারি পোশাক কিনে আনেননি এমন মানুষ খুব কমই আছেন। এক সময় এসব পোশাক কিনতে হলে আসতে হতো পার্বত্যাঞ্চলে। কিন্তু বর্তমানে দেশের বিভিন্ন দোকানেই পাওয়া যাচ্ছে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের ঐতিহ্যবাহী পোশাক। ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের পোশাক ও গহনায় ভিন্নতা থাকায় তা ফ্যাশন হিসেবেই ব্যবহৃত হচ্ছে সমতলের মানুষের কাছে।

জানা যায়, ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের মধ্যে চাকমা, তঞ্চঙ্গ্যা ও ত্রিপুরা নারীরা নিচের অংশে যেটা পরিধান করে তার নাম-পিনন আর যেটা উপরের অংশে পড়ে সেটা হচ্ছে হাদি অর্থাৎ পিনন-হাদি। এ পোশাকটি উজ্জ্বল রং আর বুননে চমৎকারভাবে তৈরি। আবার অনেক গোষ্ঠীর মধ্যে দেখা যায় তারা একখন্ড কাপড় এক প্যাঁচে জড়িয়ে পরছেন। চাকমারা একে ডাকে কোমরকাটা নামে। প্রত্যন্ত অঞ্চলে এখনো ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর নারীরা জুম থেকে তুলা সংগ্রহ করে সুতা তেরি করে। আর সে সুতা থেকে কোঁমড় তাতে পিনন-হাদি তৈরি করে তারা। এক জোড়া পিনন হাদি তৈরি করতে অনন্ত ১০ থেকে ১৫দিন সময় লাগে। এ পিনোন হাদি তৈরি করতে প্রথমে রদং বাশেঁর (বাশেঁ গায়ে ছিদ্র করা) ওপর ছোট ছোট বাঁশ বসিয়ে দিয়ে সুতা গাঁথা হয়। পরে বাইন (কোমর তাঁতে) বিভিন্ন নকশা সংবলিত ক্যাটালক দেখে পিনোন হাদি তৈরি করতো। কিন্তু বর্তমানে জুম পোশাকের বাহার এখন আধুনিক তরুণীদের কাছে একটি আকর্ষনীয় পোশাক। বর্তমানে দেশের বিভিন্ন শপিং মলে মিলছে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের ঐতিহ্যবাহী পোশাকের আদলে তৈরি সালোয়ার-কামিজ, ফতুয়া, শার্ট, পাঞ্জাবি ও শাড়ি। বিশেষ করে পর্যটন এলাকার বিভিন্ন ফ্যাশন হাউজগুলো তরুণদের কথা মাথায় রেখে এসব পোশাকের পাশাপাশি নিত্যব্যবহার্য জিনিসপত্রও বিক্রি করছেন। এ পোশাকের  চাহিদা অনেক থাকায় বিক্রিও হচ্ছে জমজমাট। এতে করে দেশের বিভিন্ন স্থানে ছড়িয়ে পড়ছে ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের ঐতিহ্য সংষ্কৃতি, তেমনি অর্থনৈতিক ভাবে লাভবান হচ্ছে ব্যবসায়ীরা বলে জানালেন স্থানীয় তাঁত বস্ত্রব্যবসায়ী বাবর টেক্সটাইলের মালিক এলেন বড়–য়া।

এক বস্ত্রব্যবসায়ী বলেন, তাদের নিজেদের তাঁতে বেশির ভাগ কাপড় ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের পোশাকের আদলে তৈরি। কারণ এসব পোশাকের চাহিদা অনেক। তাই ব্যবসাও বেশ লাভ জনক।

একটা সময় ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর নারীরা নিজেদের প্রয়োজনে পিনন-হাদি তৈরি করতো। সুতা রঙ করতো বিভিন্ন ফুল, ফল, পাতা কিংবা গাছের ছাল দিয়ে। এই ভেষজ উপকরণ ব্যবহার করেই সুতার নানা রঙ অর্থাৎ লাল, কাল নীল ও হলুদ করা হতো। তবে কালের বিবর্তনে নানা রঙের সুতা বাজারে মিলছে বলে পিনন হাদি তৈরি করা অনেকটা সহজ হয়ে গেছে। এছাড়া এখন আর তেমন কেউ কষ্ট করে কোমর তাঁতে কাপড় বুনছেনা। পার্বত্যাঞ্চলে গড়ে উঠেছে বিভিন্ন তাঁত শিল্প। এখন চাকমা, তঞ্চঙ্গ্যা ও ত্রিপুরাদের বেশির ভাগ তাঁতের তৈরি পিনন হাদি বাজারে পাওয়া যাচ্ছে। তবে কালের পরিবর্তনে বিলুপ্ত হচ্ছে - খিয়াং, খুমী, ম্রো, চাক, বম, পাংখোয়াদের পোশাক । সংরক্ষন অভাবে হারিয়ে যাচ্ছে বেশিরভাগ ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের ঐতিহ্য, পোশাক, কৃষ্টি ও সংষ্কৃতি বলে দাবি পার্বত্য চট্টগ্রাম মহিলা সমিতির সভা নেত্রী জয়িতা চাকমার।

 


নেত্রকোনায় ভিন্ন প্রশ্নপত্র বিতরণ: ২ কর্মকর্তাকে অব্যাহতি 
উচ্ছেদ আতঙ্কে শতাধিক ভূমিহীন পরিবার, হয়রানির অভিযোগ 
উন্নয়নে পাকিস্তানকে পেছনে ফেলেছে বাংলাদেশ: মোদি
লিঙ্গ বাবার কাণ্ড!
দেশে ফিরেই নাটকের কাজে ব্যস্ত মোনালিসা
স্কুলছাত্রীকে হাত-পা বেঁধে ধর্ষণ!
সন্তানের বাবা-মা হচ্ছেন সানিয়া-মালিক
ইংলিশদের শায়েস্তা করতে কুংফু শিখছে রাশিয়ানরা
‘ইরানের বিরুদ্ধে হুমকি বাস্তবায়নের ক্ষমতা কারো নেই’
পরমাণু সমঝোতার প্রতি সমর্থন মার্কেলের
দেশে ফেরার মতো 'ডকুমেন্ট' তারেকের নেই: পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী
এবার ৬ বছরের শিশুকে ধর্ষণ করে হত্যার চেষ্টা
স্মার্টফোনের অতি ব্যবহার একাকিত্বের কারণ!
বিশ্ব একাদশে খেলবেন সাকিব-তামিম
স্ত্রীর মামলায় মডেল কাজী আসিফ কারাগারে
'১৯ ক্যাটাগরির কর্মী নেবে আরব আমিরাত'
ঢাকা-কাঠমান্ডু ‘পরীক্ষামূলক’ বাস চলাচল শুরু
ডিজিটাল সিকিউরিটি আইন সংশোধনের ইঙ্গিত আইনমন্ত্রীর
পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীকে তারেকের লিগ্যাল নোটিশ
পদ্মা সেতুকে ঘিরে বদলে যাচ্ছে দক্ষিণাঞ্চলের চিত্র
নেত্রকোনায় ভিন্ন প্রশ্নপত্র বিতরণ: ২ কর্মকর্তাকে অব্যাহতি 
মালদ্বীপকে ৩-০ উড়িয়ে সেমি-ফাইনালে বাংলাদেশ
উচ্ছেদ আতঙ্কে শতাধিক ভূমিহীন পরিবার, হয়রানির অভিযোগ 
উন্নয়নে পাকিস্তানকে পেছনে ফেলেছে বাংলাদেশ: মোদি
লিঙ্গ বাবার কাণ্ড!
দেশে ফিরেই নাটকের কাজে ব্যস্ত মোনালিসা
খুসিক নির্বাচন: ৩৯ কাউন্সিলর প্রার্থীর মনোনয়ন প্রত্যাহার
স্কুলছাত্রীকে হাত-পা বেঁধে ধর্ষণ!
সন্তানের বাবা-মা হচ্ছেন সানিয়া-মালিক
ইংলিশদের শায়েস্তা করতে কুংফু শিখছে রাশিয়ানরা
ধর্ষণ বন্ধে মোদিকে ছয় শতাধিক বুদ্ধিজীবীর চিঠি
উত্ত্যক্তকারীকে মোটরসাইকেল চাপা দিল নারী
‘ইরানের বিরুদ্ধে হুমকি বাস্তবায়নের ক্ষমতা কারো নেই’
পাহাড় ধসে জানমালের ক্ষতি চায় না সরকার: মায়া
সাতক্ষীরা সীমান্তে ইয়াবাসহ আটক ৬ 
পরমাণু সমঝোতার প্রতি সমর্থন মার্কেলের
দেশে ফেরার মতো 'ডকুমেন্ট' তারেকের নেই: পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী
নাইজেরিয়ায় বন্দুক হামলায় নিহত ১৩
দেশের সুষম উন্নয়নে কাজ করছে সরকার : পলক
তেঁতুলিয়ায় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের উদ্বোধন
আমি দুধের শিশু না : হ্যাপি
স্ত্রীর সামনেই কলগার্ল ডেকে ফুর্তি করতেন খুবি শিক্ষক!
মেয়ের পোশাকে রক্ত দেখেই সন্দেহ হয় মায়ের
ফিরবেন এবার ইলিয়াস আলী?
'দিনে ৩০ জনের সঙ্গে বিছানায় যেতে হয়!'
সৌদি যুবরাজকে আবু জাহেলের সঙ্গে তুলনা
যে মরণব্যাধি কেড়ে নিল আনিসুল হককে
ছাত্রী নির্যাতনকারী এশাকে যেভাবে শাস্তি দেয় শিক্ষার্থীরা (ভিডিও)
১ কোটি ৭ লাখই দিতে হবে : অপু
স্কেটিংয়ের সময় খুলে পড়লো পোশাক (ভিডিও)
খালেদার গাড়ি বহরে হাবিব-উন নবী সোহেল
যে কারণে প্রেম নেই জাপানি তরুণীদের জীবনে
যেভাবে বেরিয়ে এলো 'ভয়ঙ্কর খুনি'
থানার ছাদে বিদেশি যুগলের সঙ্গম ভাইরাল
মাথায় ঘিলু না থাকলে পাইলট হওয়া যায় না
কন্ট্রোলরুমের শেষ কথাটি শুনতে পাননি পাইলট?
শ্রীদেবীর মৃত্যুর খবরের আগেই অমিতাভের টুুইট!
সমকামিতায় বাধা দেওয়ায় মেয়ের হাতে মা খুন!
অন্তঃসত্ত্বা শ্রীদেবীকে মারধর করেন অর্জুনের নানি!
গোসল করিয়ে আমাকে পাতলা ফিনফিনে কাপড় পরতে দেয়