১৬ নভেম্বর ,শুক্রবার, ২০১৮

শিরোনাম

> বাংলাদেশ

>> সুখবর

 

ফাতেমা জান্নাত মুমু  • রাঙামাটি

১৮ এপ্রিল , বুধবার, ২০১৮ ১৭:২৪:০৯

পাহাড়ে জলোৎসবে মাতোয়ারা মারমা তরুণ-তরুণীরা


পাহাড়ে জলোৎসবে মাতোয়ারা মারমা তরুণ-তরুণীরা


পাহাড়ে জলোৎসবে মেতেছে মারমা তরুণ-তরুণীরা। ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীদের বৈসাবি ও বর্ষবরণ উৎসব শেষ হতে না হতেই শুরু হয়েছে মারমা সম্প্রদায়ের সাংগ্রাইং উৎসব। মারমা ভাষায় এ উৎসবকে বলা হয় ‘রিলংপোয়ে’। পুরনো বছরকে বিদায় আর নতুন বছরকে বরণ করতে জলোৎসবের আয়োজন করে মারমা সম্প্রদায়।

জলখেলার জন্য এরা আগে থেকে প্যান্ডেল তৈরি করে। ওই প্যান্ডেলে মারমা যুবক-যুবতীরা একে অপরকে জল ছিটিয়ে কাবু করার প্রতিযোগিতায় শামিল হয়। এ সময় কৃত্রিম ভারি বর্ষণ হয় অনুষ্ঠানস্থল জুড়ে। উৎসবের আনন্দ জলে সিক্ত হয় মারমা তরুণ-তরুণীরা। আনন্দ-উল্লাসে নেচে-গেয়ে পার করে দিন।

আজ দুপুরে আনুষ্ঠানিকভাবে মং (ধর্মীয় ঘণ্টা) বাজিয়ে রাঙামাটি জেলা শহরের আসামবস্তি নারকেল বাগানে আয়োজিত দিনব্যাপী জলোৎসবের উদ্বোধন করেন সাবেক পার্বত্য চট্টগ্রাম বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী দীপংকর তালুকদার। 

 অনুষ্ঠানে রাঙামাটির সংরক্ষিত নারী সংসদ সদস্য ফিরোজা বেগম চিনু, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বৃষ কেতু চাকমা, জেলা প্রশাসক এ কে এম মামুনুর রশিদ, রাঙামাটি রিজিয়ন কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার মো. গোলাম ফারুক,  জেলা পুলিশ সুপার মো. আলমগীর কবির, সদর জোন কমান্ডার লে. কর্ণেল মো. রেদুওয়ান ইসলাম, সাবেক জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও মারমা সাংস্কৃতিক সংস্থার প্রধান উপদেষ্টা চিংকিউ রোয়াজা, জেলা পরিষদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক মো. মুছা মাতব্বর বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন। 

এতে সভাপতিত্ব করেন মারমা সংস্কৃতি সংস্থার সভাপতি ও জেলা পরিষদ সদস্য অংসুই প্রু চৌধুরী। স্বাগত বক্তব্য রাখেন সাংগ্রাই উদযাপন কমিটি-২০১৮’এর আহবায়ক মংউচিং মারমা।

ঘণ্টা বাজানোর সঙ্গে সঙ্গেই পানি ছিটিয়ে জল উৎসবের সূচনা করেন, সাবেক পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী দীপঙ্কর তালুকদার। এতে মারমা তরুণ-তরুণীরা মেতে ওঠেন সাংগ্রাই জল উৎসবে। পরিবেশিত হয় বাংলাসহ পাহাড়ি জাতিসত্তাগুলোর ঐতিহ্যবাহী সংস্কৃতির নৃত্যসঙ্গীত।

উৎসব পরিণত হয় সম্প্রীতির মিলন মেলায়। উৎসবে মারমা সম্প্রদায়ের তরুণ-তরুণীদের ঐতিহ্যবাহী জলকেলি ছাড়াও পরিবেশিত হয় আবহমান বাংলার নৃত্যসঙ্গীতসহ বৈচিত্র্যপূর্ণ পাহাড়ি জাতিসত্তাগুলোর নান্দনিক সাংস্কৃতিক পরিবেশনা। এতে আনন্দ-উচ্ছ্বাসে মাতে পাহাড়ি বাঙালি। 

মারমা সম্প্রদায় ছাড়াও উৎসবে যোগ দেয় চাকমা, ত্রিপুরা, খিয়াং, গুর্খা, অহমিয়া, তঞ্চঙ্গ্যা, উসুই, লুসাই, চাক, রাখাইন, খুমি, বমসহ বাঙালি জনগোষ্ঠীর হাজার হাজার নারী-পুরুষ। শিশু-কিশোর, তরুণ-তরুণীসহ সব বয়সের মানুষ সমবেত হয় উৎসবস্থলে। পার্বত্য তিন জেলার ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর পদচারণায় উৎসবের নগরীতে পরিণত হয় পুরো রাঙামাটি শহর। 

সকাল থেকে রাঙামাটি, খাগড়াছড়ি ও বান্দরবানসহ চট্টগ্রাম থেকেও মানুষের ঢল নামতে শুরু করে জলোৎসবস্থলে। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে জনসমুদ্রে পরিণত হয় নারিকেল বাগান  এলাকা। পাহাড়ি-বাঙালিসহ সব ধর্ম, বর্ণ, জাতি-গোষ্ঠী নির্বিশেষে সম্প্রীতির মিলনমেলায় জমে উঠে সাংগ্রাইং উৎসব।

এ ব্যাপারে সাবেক পার্বত্য প্রতিমন্ত্রী দীপঙ্কর তালুকদার বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন বর্তমান আওয়ামী লীগ সরকার পাহাড়িদের আর্থ-সামাজিক, শিক্ষা-সংস্কৃতিসহ সবক্ষেত্রে  ব্যাপক উন্নয়ন কর্মকাণ্ড বাস্তবায়ন করছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এখানকার মানুষের প্রতি অত্যন্ত আন্তরিক। যে কারণে পার্বত্য চট্টগ্রামে স্থায়ী শান্তি প্রতিষ্ঠায় ঐতিহাসিক পার্বত্য শান্তিচুক্তি সম্পাদন করেছেন। কিন্তু কিছু মহল নানা ধরনের বিভ্রান্তিকর কথাবার্তা বলে সরকারের চলমান উন্নয়ন ও শান্তি প্রক্রিয়াকে ব্যাহত করার চেষ্টায় লিপ্ত রয়েছে।  

প্রসঙ্গত, পার্বত্যাঞ্চলের ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীগুলো বৈসাবিকে ভিন্ন ভিন্ন আঙ্গিকে পালন করে। যেমন: চাকমারা বিজু, ত্রিপুরারা বৈসুক, তঞ্চঙ্গ্যারা বিষু, অহমিয়ারা বিহু, মারমারা সাংগ্রাইং নামে পালন করে থাকে। মারমা তরুণ-তরুণীরা একে অপরকে জল ছিটিয়ে পুরনো বছরের সব গ্লানি, দুঃখ, বেদনা ও অপশক্তিকে দূর করে নতুন বছরকে স্বাগত জানায়।

মুমু/অরিন/নিউজ টোয়েন্টিফোর


বিশ্ব ইজতেমা স্থগিত
জ্যোতিষ শাস্ত্র মতে যেমন হবে দীপিকা-রণবীরের দাম্পত্য?
রাঙামাটিতে কঠিন চীবর দানোৎসব
 রণবীর-দীপিকার বিয়ের ছবি ভাইরাল
চীন বা রাশিয়ার সঙ্গে যুদ্ধে হারবে আমেরিকা?
বিয়ের পর কেমন বাড়িতে থাকবেন মুকেশকন্যা ইশা?
মির্জা ফখরুলকে ক্ষমা চাইতে আল্টিমেটাম
দ্বিতীয় বিয়েতে দীপিকা-রণবীর
'বর্তমান পরিস্থিতিতে থাকলে নিরপেক্ষ নির্বাচন অসম্ভব'
কাশ্মীর নিয়ে মন্তব্য, তোপের মুখে আফ্রিদি
'নির্বাচন পেছালে আইনি জটিলতায় পড়বে'
‘ভোট, উইন্ডিজ সিরিজে নেই মাশরাফি’
ধানের শীষ নিয়ে লড়বে ঐক্যফ্রন্ট: মান্না
মনোনয়নপত্র কিনলেন বাবরের স্ত্রী শ্রাবণী
২১৮ রানের বিশাল জয় বাংলাদেশের
খাসোগি হত্যায় সালমান জড়িত: সিআইএ
পর নারীর সঙ্গে কথা বলায় স্বামীর গোপনাঙ্গ ছেদ
যশোরে বাস দুর্ঘটনায় একজন নিহত, আহত ১৫
নির্বাচন পেছানোর দাবি অবান্তর: কাদের
‘মুহাম্মদ আলী বক্সার না হলে ইমাম হতেন’
বিশ্ব ইজতেমা স্থগিত
নরসিংদীর ৫ আসনে ধানের শীষ চান ৩০ জন
জ্যোতিষ শাস্ত্র মতে যেমন হবে দীপিকা-রণবীরের দাম্পত্য?
রাঙামাটিতে কঠিন চীবর দানোৎসব
বিএনপি সদস্য নিপুর রায় চৌধুরী গ্রেপ্তার
 রণবীর-দীপিকার বিয়ের ছবি ভাইরাল
চীন বা রাশিয়ার সঙ্গে যুদ্ধে হারবে আমেরিকা?
নোয়াখালীতে ডোবা থেকে কলেজছাত্রীর মরদেহ উদ্ধার
ময়মনসিংহে ছাত্রলীগের বিক্ষোভ মিছিল
বিয়ের পর কেমন বাড়িতে থাকবেন মুকেশকন্যা ইশা?
'চলনবিলবাসীকে উন্নয়ন,সুশাসন ও নিরাপদ জনপদ উপহার দিয়েছি' 
মির্জা ফখরুলকে ক্ষমা চাইতে আল্টিমেটাম
দ্বিতীয় বিয়েতে দীপিকা-রণবীর
নোবিপ্রবিতে কৃষি দিবস  পালিত
দিনাজপুরে তিনদিন ব্যাপী নবান্ন উৎসব শুরু
বিচার না হওয়া পর্যন্ত ফিরতে চায় না রোহিঙ্গারা
দীপন হত্যা মামলার অভিযোগপত্র দাখিল
'বর্তমান পরিস্থিতিতে থাকলে নিরপেক্ষ নির্বাচন অসম্ভব'
কাশ্মীর নিয়ে মন্তব্য, তোপের মুখে আফ্রিদি
শ্রীলঙ্কায় এখন কোনও প্রধানমন্ত্রী নেই
নির্বাচন করবেন হিরো আলম!
৩০ ডিসেম্বর নির্বাচন ‘উদ্দেশ্যপ্রণোদিত’: রব
'পুলিশ রাষ্ট্রের কর্মচারী, প্রতিপক্ষ ভাববেন না'
বিএনপিকে চাঙ্গা করতে আসছেন জোবাইদা
চীন সফরে বিএনপির প্রতিনিধি দল
ইসলাম গ্রহণকারী ভারতীয় সেই নারী খুন
মাশরাফির নির্বাচন নিয়ে যা বললেন তার বাবা
হামাসের ক্ষেপণাস্ত্রে ইসরাইলের সেনাবাস ভস্মীভূত
বিএনপির কাছে ১০০ আসন চাচ্ছেন শরিকরা
মৃত্যুর আগে যে কথা বলেন খাসোগি
আওয়ামী লীগের মনোনয়নপত্র কিনবেন মাশরাফি
সংসদ নির্বাচনে যাচ্ছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট
বয়স বাড়বে কিন্তু শক্তি কমবে না
‘বিনা উসকানিতে’ এটা করল বিএনপি: কাদের
চাঁদা চাওয়া সেই এসআই বরখাস্ত
দ্বিতীয় বিয়েতে দীপিকা-রণবীর
মনোনয়নপত্র কিনলেন বাবরের স্ত্রী শ্রাবণী
ফকিরাপুল-কাকরাইল বিএনপির দখলে
‘আমাদের নির্বাচনে যাওয়ার দরকার নেই’
একসঙ্গে দুই বোনের আত্মহত্যা!

সব খবর