সোমবার, ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | আপডেট ৩৫ মিনিট আগে

মালয়েশিয়ায় নাগরিকত্ব পেলেন জাকির নায়েক

নিউজ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক

মালয়েশিয়ায় নাগরিকত্ব পেলেন জাকির নায়েক

প্রখ্যাত ধর্মপ্রচারক ডাক্তার জাকির নায়েককে মালয়েশিয়ার স্থায়ী নাগরিকত্ব প্রদান করা হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন খোদ মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী মাহাথির মোহাম্মদ।

মাহাথির বলেছেন, ‘যতদিন পর্যন্ত জাকির নায়েক মালয়েশিয়ায় সমস্যা সৃষ্টি না করছেন, ততদিন তাকে ভারতে ফেরানোর কথা ভাবছে না মালয়েশিয়া সরকার। কারণ নায়েককে ইতোমধ্যেই স্থায়ী নাগরিকত্ব দিয়েছে মালয়েশিয়া সরকার। জাকির এদেশে আসার ফলে কোনো সমস্যা তৈরি হয়নি৷ স্থায়ী বসবাসের অনুমতি দেওয়ার পর তাকে ভারতের হাতে তুলে দেওয়া যাবে না৷’

ভারতে ফিরছেন ডাক্তার জাকির নায়েক- সম্প্রতি এমন খবর দেশটির বিভিন্ন গণমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে। 

এই খবরের প্রতিক্রিয়ায় জাকির নায়েক বলেন, ‘এই মুহূর্তে আমি ভারতে ফিরছি না। ভারত এখন আমার জন্য নিরাপদ না। যদি কখনো মনে করি ভারত সরকার আমার সাথে সঠিক বিচার করছে, তখনই আমি দেশে ফিরবো।’

দুই বছর আগে বাংলাদেশে হলি আর্টিজান রেস্টুরেন্টে জঙ্গি হামলার পর ব্যাপক আলোচনায় আসেন এই ধর্মপ্রচারক। তার বিরুদ্ধে অভিযোগ ওঠে, তার বক্তব্য শুনে নাকি উৎসাহ পেয়েছে জঙ্গিরা। এ অভিযোগের প্রেক্ষিতেই বাংলাদেশে বন্ধ করে দেওয়া হয় জাকির নায়েকের চ্যানেল পিস টিভির সম্প্রচার। ভারতেও ব্যাপক সমালোচনায় মুখে তিনি দেশ ছেড়ে আশ্রয় নেন মালেশিয়ায়।

তবে সন্ত্রাসীদের কয়েকজন জাকির নায়েকের প্রচারে প্রভাবিত হয়েছিল বলে অভিযোগ উঠলেও তিনি ওই অভিযোগ নাকচ করে দেন, ‘আমি শান্তির দূত, কখনো সন্ত্রাসবাদকে উৎসাহিত করিনি। ইসলামে সন্ত্রাসবাদের কোনো স্থান নেই।’

জানা যায়, জাকির নায়েক মালয়দের মধ্যে জনপ্রিয় চরিত্র হয়ে উঠেছেন। এ অবস্থায় দেশটির সরকার যদি তাকে থেকে বের করে দেয়, তাহলে তা জনগণের দৃষ্টিতে ধর্মীয় বিশ্বাসযোগ্যতা হারানোর কারণ হয়ে দাঁড়াবে।

তাছাড়া মালয়েশিয়ার বিরোধী দল ইসলামিক পার্টিও জাকির নায়েককে সমর্থন জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছে এবং কোনো বিদেশি সরকারের হাতে তাকে তুলে না দেয়ার আহ্বান জানিয়েছে।

অরিন/
নিউজ টোয়েন্টিফোর

মন্তব্য