অনশনে প্রেমিকা, প্রেমিক বলছেন ‘জাস্ট ফ্রেন্ড’
অনশনে প্রেমিকা, প্রেমিক বলছেন ‘জাস্ট ফ্রেন্ড’

সংগৃহীত ছবি

অনশনে প্রেমিকা, প্রেমিক বলছেন ‘জাস্ট ফ্রেন্ড’

অনলাইন ডেস্ক

বরিশালে সহপাঠীকে বিয়ের দাবিতে অনশনে বসেছেন দ্বাদশ শ্রেণির এক ছাত্রী। বিষয়টি স্থানীয় চেয়ারম্যান সমাধানের চেষ্টা করে ব্যর্থ হওয়ায় অবশেষে পুলিশ ওই ছাত্রীকে থানায় নিয়ে গেছে। বরিশাল সদর উপজেলার ২নং কাশীপুর ইউনিয়নের কলশগ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন নগরীর এয়ারপোর্ট থানার উপপরিদর্শক (এসআই) শফিক।

 

তিনি জানান, খবর পেয়ে ওই ছাত্রীকে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। এছাড়া ছাত্রীর পরিবারের লোকজনকে খবর দেওয়া হয়েছে। তারা এলে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।  এসআই শফিক বলেন, মেয়েটি যে ছেলেকে বিয়ের দাবি করেছে, তাকে পরিবারের জিম্মায় রাখা হয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, বুধবার বিকেলে কলশগ্রামের বাসিন্দা সরকারি বরিশাল কলেজের দ্বাদশ শ্রেণির ছাত্র নাঈমের বাসায় গিয়ে অবস্থান নেন তারই সহপাঠী এক ছাত্রী। মেয়েটির বাড়ি পটুয়াখালীর বদরপুর ইউনিয়নে।  

ওই ছাত্রী বলেন, নাঈমের সঙ্গে আমার প্রায় এক বছরের প্রেমের সর্ম্পক। কিন্তু কিছু দিন ধরে নাঈম আমার সঙ্গে যোগাযোগ বন্ধ করে দিয়েছে। আমি যোগাযোগ করলেও সে রেসপন্স করে না। এতে বাধ্য হয়ে তার বাড়িতে এসে অবস্থান নিয়েছি। ও আমাকে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। আমি সেই আশ্বাসে এসেছি।

তবে নাঈম বলেন, ক্লাসমেট হিসেবে তার সঙ্গে ভালো সর্ম্পক। কিন্তু তার সঙ্গে আমার কোনো প্রেমের সর্ম্পক নেই। সে আমার জাস্ট ফ্রেন্ড। কিন্ত কেন সে এই কাজটি করল আমি বুঝতে পারছি না। পুরো ঘটনা নিয়ে আমি এবং আমার পরিবার বিপাকে রয়েছি।

news24bd.tv/আলী