লর্ডস টেস্টের প্রথম দিনে ১৭ উইকেটের পতন
লর্ডস টেস্টের প্রথম দিনে ১৭ উইকেটের পতন

সংগৃহীত ছবি

লর্ডস টেস্টের প্রথম দিনে ১৭ উইকেটের পতন

অনলাইন ডেস্ক

ইংল্যান্ডের টেস্ট কোচ হিসেবে নিউজিল্যান্ডের সাবেক অধিনায়ক ব্রেন্ডন ম্যাককালামের অভিষেক হলো বৃহস্পতিবার লর্ডসে তার নিজ দেশেরই বিপক্ষে। এটি আবার বেন স্টোকসেরও অধিনায়ক হিসেবে অভিষেক ম্যাচ। স্টোকসের জন্মও নিউজিল্যান্ডে। এমনকি, তার বাবা-মা নিউজিল্যান্ডেই বসবাস করেন।

তো, এই কিউই অস্ত্র দিয়েই কিউইদের কাবু করল ইংলিশরা! আজ লর্ডস টেস্টে ৩৬ রানে ৬ উইকেট হারিয়ে বসে অতিথি দলটি। তারা অলআউট হয় মাত্র ১৩২ রানে। অবশ্য নেমে ব্যাটিং ধস হয়েছে ইংলিশদেরও। ৭ উইকেটে ১১৬ রান নিয়ে প্রথম দিন মাঠ ছাড়ে স্বাগতিকরা। লর্ডসে প্রথম দিন দুই দলের ১৭ উইকেটের পতন ঘটে!

টস জিতে আগে ব্যাটিং নেয়া নিউজিল্যান্ডকে ইনিংসের তৃতীয় ওভারেই প্রথম ধাক্কাটা দেন অভিজ্ঞ পেসার জেমস অ্যান্ডারসন। দলীয় এক রানে তিনি বিদায় করেন উইল ইয়াংকে। পঞ্চম ওভারে তার শিকার টম ল্যাথাম। অষ্টম ওভারে ডেভন কনওয়েকে সাজঘরে ফেরান আরেক জ্যেষ্ঠ পেসার স্টুয়ার্ট ব্রড। এরপর অভিষিক্ত পেস বোলার ম্যাথিউ পটস টানা তিনটি উইকেট শিকার করে কিউই ব্যাটিংকে ধ্বংসযজ্ঞে পরিণত করেন। তিনি সাজঘরে ফেরান কেন উইলিয়ামসন, ড্যারিল মিচেল ও টম ব্লান্ডেলকে (৩৬/৬)।

এরপর নিয়মিত ব্যবধানে উইকেট হারিয়ে ১৩২ রানে গুটিয়ে যায় কিউইরা। অ্যান্ডারসন ও পটস চারটি করে উইকেট নেন। ব্রড ও বেন স্টোকস নেন একটি করে উইকেট।

জবাব দিতে নেমে ইংলিশরাও কিউই পেস তোপে বিধ্বস্ত হয়। বিনা উইকেটে ৫৯ রান তোলা ইংলিশরা পরের ৪১ রানের মধ্যে ৭ উইকেট হারায়। টিম সাউদি (২/৪০), ট্রেন্ট বোল্ট (২/১৫) ও কাইল জেমিসন (২/২০) প্রত্যেকেই দুটি করে ও কলিন ডি গ্র্যান্ডহোম একটি করে উইকেট নেন। ইংল্যান্ডের ওপেনার জ্যাক ক্রলে সর্বোচ্চ ৪৩ রান করেন।

ওয়ার্ল্ড টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের আগের অংশ এই সিরিজে তিনটি ম্যাচ খেলবে দুই দল। ওয়ার্ল্ড টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের আগের আসরে চ্যাম্পিয়ন হয় নিউজিল্যান্ড। গত বছর লর্ডস ফাইনালে তারা হারায় ভারতকে।  

news24bd.tv/আলী