অ্যাকুয়াম্যান আর অ্যাভেঞ্জারসের ছায়া ব্রহ্মাস্ত্রে!
অ্যাকুয়াম্যান আর অ্যাভেঞ্জারসের ছায়া ব্রহ্মাস্ত্রে!

সংগৃহীত ছবি

অ্যাকুয়াম্যান আর অ্যাভেঞ্জারসের ছায়া ব্রহ্মাস্ত্রে!

অনলাইন ডেস্ক

পানি, বায়ু, অগ্নির মতো প্রাকৃতিক শক্তিগুলো আসলে একেকটা অস্ত্র। আর সেই অস্ত্রেরও এক দেবতা রয়েছেন। যার ক্ষমতা অসীম। ‘ব্রহ্মাস্ত্র’ সিনেমায় সেই কাহিনীই বুনেছেন  বলিউড পরিচালক অয়ন মুখোপাধ্যায়।

সিনেমাটি কোনো সুপারহিরো সিনেমা নয়। বরং হিন্দু দেবদেবী এবং পৌরাণিক চরিত্রদেরই সিনেমার পর্দায় ফুটিয়ে তুলেছেন অয়ন। ব্রহ্মাস্ত্রের প্রথম পার্টে এক যুবকের কাহিনী ফুটিয়ে তোলা হয়েছে, যে এই ব্রহ্মাস্ত্রের ধারক।  

তার মধ্যেই রয়েছে দেবাদিদেব মহাদেব। কিন্তু, ব্যাপারটা তার অজানা। অথচ এই ব্রহ্মাস্ত্র রক্ষা করার দায়িত্ব তাকে নিতে হবে। শিবের যাত্রা কী ভাবে শুরু হবে, তা-ই দেখানো হবে ব্রহ্মাস্ত্র ফ্র্যাঞ্চাইজির প্রথম সিনেমায়।  

এই সিনেমার ট্রেলারে হাই কোয়ালিটি ভিএঅএক্স দেখা গেছে। বুধবার বহুল প্রতীক্ষিত এই সিনেমার ট্রেলার মুক্তি পেয়েছে। ট্রেলার দেখে ভালো লেগেছে রণবীর কাপুর এবং আলিয়া ভাটের ভক্তদের।  

কিন্তু অনেকে আবার সমালোচনায় মেতে উঠেছেন। শুরু হয়েছে ট্রলও। বলা হচ্ছে- অ্যাকুয়াম্যান আর অ্যাভেঞ্জারসের মিশ্রণে তৈরি হয়েছে এই সিরিজটি। অনেকেই হলিউড সুপারহিরোদের কথা টেনে এনেছেন।  এদিকে রণবীর কাপুরকে নিয়েও বিতর্ক শুরু হয়েছে। কারণ, ব্রহ্মাস্ত্র ট্রায়োলজির প্রথম সিনেমার ট্রেলারের একটি দৃশ্যে জুতো পরেই মন্দিরের ঘণ্টা বাজাতে দেখে গেছে রণবীরকে। এর জেরে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়তে হয়েছে তাকে।  

মহাদেবের ভূমিকায় থাকা রণবীর কীভাবে জুতা পরে মন্দিরের ঘণ্টা স্পর্শ করতে পারেন? প্রশ্ন তুলছেন অনেকেই। সোশ্যাল মিডিয়ায় রাগ-অভিমান ব্যক্ত করেছেন অনেকে।   ৯ সেপ্টেম্বর মুক্তি পেতে যাচ্ছে ব্রহ্মাস্ত্র: পার্ট ওয়ান। সিনেমাটি শিবা চরিত্রকে ঘিরে।

news24bd.tv/আলী 

সম্পর্কিত খবর