চাচির সঙ্গে পরকীয়া, প্রেমিকের হাতের কব্জি কাটলো ফুফা 
চাচির সঙ্গে পরকীয়া, প্রেমিকের হাতের কব্জি কাটলো ফুফা 

সংগৃহীত ছবি

চাচির সঙ্গে পরকীয়া, প্রেমিকের হাতের কব্জি কাটলো ফুফা 

অনলাইন ডেস্ক

নরসিংদীর পশালে চাচির সঙ্গে পরকীয়ার জেরে এক যুবকের দুই হাতের কব্জি কেটে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে ফুফার বিরুদ্ধে। মঙ্গলবার সকালে উপজেলার গজারিয়া ইউনিয়নের নোয়াকান্দা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। ভুক্তভোগীর নাম হাদিউল মিয়া। ২৩ বছর বয়সী হাদিউল শিবপুর উপজেলার বাড়িগাঁও গ্রামের মোরশেদ মিয়ার ছেলে।

অভিযুক্ত জালাল মিয়া নেয়াকান্দা গ্রামের আক্কাস মিয়ার ছেলে। তিনি সম্পর্কে হাদিউলের চাচির দুলাভাই।

স্থানীয়রা জানায়, দীর্ঘদিন ধরে চাচির সঙ্গে হাদিউলের পরকীয়া চলছিল। এ নিয়ে প্রায়ই হাদিউলের সঙ্গে তার পরিবারের সদস্যদের ঝগড়া হতো। সোমবার সন্ধ্যায় চাকরির কথা বলে হাদিউলকে নোয়াকান্দা গ্রামে নিজ বাড়িতে ডেকে নেন জালাল। পরে ভালোমন্দ রান্না করে খাওয়ান জালালের স্ত্রী রুপা। এরপর রাতে সেখানেই থাকেন হাদিউল। মঙ্গলবার সকাল ৬টার দিকে হাদিউলকে বাড়ির পাশে একটি ঝোপে নিয়ে যান জালাল।

এরপর মুখ আর পা বেঁধে হাদিউলের দুই হাতের কব্জি কেটে ফেলেন জালাল। পরে হাদিউলের চিৎকারে লোকজন এসে উদ্ধার করে জেলা সদর হাসপাতালে নেন। তবে অবস্থার অবনতি হওয়ায় তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠান চিকিৎসকরা।

পলাশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. ইলিয়াস জানান, এ ঘটনায় থানায় কেউ লিখিত অভিযোগ দেয়নি। অভিযোগ পেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

news24bd.tv/আলী