নড়াইলে শিক্ষক লাঞ্ছনার ঘটনায় ওসি প্রত্যাহার
নড়াইলে শিক্ষক লাঞ্ছনার ঘটনায় ওসি প্রত্যাহার

সংগৃহীত ছবি

নড়াইলে শিক্ষক লাঞ্ছনার ঘটনায় ওসি প্রত্যাহার

অনলাইন ডেস্ক

নড়াইলে শিক্ষক লাঞ্ছনার ঘটনায় সদর থানার ওসি শওকত কবিরকে প্রত্যাহার করে খুলনায় রেঞ্জ রিজার্ভ ফোর্সে (আরআরএফ) সংযুক্ত করা হয়েছে। শনিবার রাতে ওসি শওকত কবীরকে প্রত্যাহার করা হয়।  

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সদর থানার ওসি (তদন্ত) ইন্সপেক্টর মাহমুদুর রহমান।

তিনি বলেন, শনিবার রাত ১০টার পরে জেলা পুলিশ সুপার কার্যালয় থেকে একটি পত্রে এই নির্দেশনা আসে।

আজ সকালে তিনি খুলনায় যোগদান করবেন।  
বর্তমানে সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার দ্বায়িত্ব পালন করবেন পরিদর্শক (তদন্ত) মোহাম্মদ মাহামুদুর রহমান।

উল্লেখ্য, গত ১৮ জুন নড়াইল সদর উপজেলার মির্জাপুর ইউনাইটেড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসকে লাঞ্ছিত করা হয়। এর আগের দিন ১৭ জুন ওই কলেজের একাদশ শ্রেণির এক শিক্ষার্থী নিজের ফেসবুকে ভারতের ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দল বিজেপির বহিষ্কৃত মুখপাত্র নূপুর শর্মাকে প্রণাম জানিয়ে ছবিসহ একটি পোস্ট দেয়। এ নিয়ে উত্তেজনা তৈরি হলে অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাস কলেজশিক্ষক, ওই শিক্ষার্থীর বাবা ও কলেজ পরিচালনা পরিষদের কয়েকজন সদস্যকে ডেকে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করেন। আলোচনায় নেওয়া সিদ্ধান্ত অনুযায়ী, কলেজ ক্যাম্পাসে পুলিশ ডেকে শিক্ষার্থীকে তাদের কাছে সোপর্দ করা হয়। পুলিশ সদস্যরা ওই শিক্ষার্থীকে ক্যাম্পাস থেকে নিয়ে যেতে চাইলে উত্তেজিত ছাত্র ও বহিরাগত কয়েকজন বাধা দেন। তখন জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারকে বিষয়টি জানানো হয়।

বিকেল চারটার দিকে শিক্ষক স্বপন কুমার বিশ্বাস এবং ওই শিক্ষার্থীকে কলেজের দ্বিতীয় তলার একটি কক্ষ থেকে বের করা হয়। পরে মির্জাপুর ইউনাইটেড ডিগ্রি কলেজে কয়েক’শ পুলিশের উপস্থিতিতে অধ্যক্ষ শ্বপন কুমার বিশ্বাসকে জুতার মালা পরানো হয়। শিক্ষককে জুতার মালা পরানোর সময় থেকে পুলিশের গাড়িতে ওঠানো পর্যন্ত পুলিশি পাহারা দিচ্ছিলেন ওসি শওকত কবির।

news24bd.tv/রিমু