ফ্ল্যাটে মিললো আরও ২৯ কোটি রুপি
ফ্ল্যাটে মিললো আরও ২৯ কোটি রুপি

সংগৃহীত ছবি

ফ্ল্যাটে মিললো আরও ২৯ কোটি রুপি

অনলাইন ডেস্ক

গ্রেপ্তার হওয়া পশ্চিমবঙ্গের সাবেক শিক্ষামন্ত্রী ও শিল্পমন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও তার ঘনিষ্ঠ সহযোগী অর্পিতা মুখোপাধ্যায়ের আরেকটি ফ্ল্যাট থেকে নগদ ২৯ কোটি রুপি ও ৫ কেজি সোনার গয়না জব্দ করেছে ভারতের এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরেট (ইডি)।

এনডিটিভির প্রতিবেদনে বলা হয়, অর্পিতার ফ্ল্যাটটিতে প্রায় ১৮ ঘণ্টা তল্লাশি চালিয়ে ইডির তদন্তকারীরা ফ্ল্যাটটি থেকে ১০টি ট্রাংক নিয়ে গেছে।

সেখান থেকে জব্দ করা ২৯ কোটি রুপি গুনতে ৩টি মেশিন ব্যবহার করতে হয়েছে ইডিকে। অর্পিতার আগের ফ্ল্যাটটি থেকে জব্দ করা ২১ কোটি রুপিসহ দুই ফ্ল্যাটে সব মিলিয়ে ৫০ কোটি রুপি জব্দ করা হলো।

শিক্ষক নিয়োগ দুর্নীতির সঙ্গে যুক্ত একটি মানি লন্ডারিং কেলেঙ্কারি মামলায় তদন্ত চালাচ্ছে ইডি। এরই মধ্যে ২৩ জুলাই পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের সাবেক শিক্ষামন্ত্রী ও বর্তমান শিল্পমন্ত্রী পার্থ এবং তার সহযোগী অর্পিতাকে আটক করেছে সংস্থাটি।

অর্পিতা তদন্তকারীদের জানিয়েছেন, এই অর্থ শিক্ষক নিয়োগের অনিয়ম থেকেই প্রাপ্ত। সাবেক শিক্ষামন্ত্রী পার্থ তার ও আরেক নারীর বাসাকে মিনি ব্যাংক হিসেবে ব্যবহার করতেন বলে জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছেন অর্পিতা।

ওই নারীও পার্থের ঘনিষ্ঠ বন্ধু। তবে ইডির পক্ষ থেকে সেই নারীর পরিচয় প্রকাশ করা হয়নি। তদন্তকারীদের এই মডেল আরও বলেছেন, সব অর্থ একটা ঘরে লুকিয়ে রাখা হতো। এই ঘরে শুধু পার্থ চট্টোপাধ্যায় এবং তার লোকজন প্রবেশ করতেন।

তবে তার ঘরে রাখা হলেও এসব ব্যাগে ঠিক কী পরিমাণ অর্থ থাকত তা তিনি জানতেন না বলে ইডির তদন্তকারীদের কাছে দাবি করেছেন অর্পিতা।

১০ দিনের জন্য ইডির হেফাজতে আছেন অর্পিতা। একই সময়ের জন্য হেফাজতে থাকছেন পার্থও। রিমান্ডে থাকা অবস্থায় সামনাসামনি বসিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হতে পারে তাদের।

news24bd.tv/আলী