ছোটমণি নিবাসে রাখার সিদ্ধান্ত হলো সেই নবজাতককে
ছোটমণি নিবাসে রাখার সিদ্ধান্ত হলো সেই নবজাতককে

ছোটমণি নিবাসে রাখার সিদ্ধান্ত হলো সেই নবজাতককে

অনলাইন ডেস্ক

ময়মনসিংহের ত্রিশালে ট্রাকচাপায় মায়ের পেট ফেটে সড়কেই ভূমিষ্ঠ সেই নবজাতককে ছোটমণি নিবাসে রাখার সিদ্ধান্ত। টানা ১০ দিন ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসায় শারীরিক অবস্থার উন্নতি হওয়ায় তাকে রাজধানীর আজিমপুরে 'ছোটমণি নিবাসে' রাখার সিদ্ধান্ত হয়।  

শুক্রবার সকাল ১০টায় তাকে সেখানে নিয়ে যাওয়া হবে। বৃহস্পতিবার এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন ত্রিশালের ইউএনও আক্তারুজ্জামান।

এর আগে বুধবার শিশুটির পরবর্তী লালনপালন নিয়ে জেলা প্রশাসন ও উপজেলা শিশুকল্যাণ বোর্ডের একাধিক সভা হয়।

গত ১৬ জুলাই ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে রাস্তা পারাপারের সময় ত্রিশাল পৌর শহরের কোর্ট ভবন এলাকায় ট্রাকচাপায় ঘটনাস্থলেই উপজেলার রায়মনি গ্রামের জাহাঙ্গীর আলম, তার অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রী রত্না বেগম ও তাদের ছয় বছরের শিশুকন্যা সানজিদার মৃত্যু হয়। এ সময় মায়ের পেট ফেটে সড়কেই ভূমিষ্ঠ হয় আরেক কন্যা। তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। নানা জটিলতা পেরিয়ে এখন সে সুস্থ।

ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের উপপরিচালক ডা. ওয়ায়েজ উদ্দিন ফরাজী জানান, শিশুটির শারীরিক অবস্থা আগের চেয়ে অনেক ভালো। তাকে এখন লালনপালনের জন্য হস্তান্তর করা যায়। উপজেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা মাহমুদুল হাসান বলেন, শিশুটিকে নিরাপদে আজিমপুরের ছোটমণি নিবাসে পৌঁছানোর দায়িত্ব আমাকে দেওয়া হয়েছে।

news24bd.tv/কামরুল

সম্পর্কিত খবর