১০ টাকা নিয়ে ঝগড়ায় খুন
১০ টাকা নিয়ে ঝগড়ায় খুন

১০ টাকা নিয়ে ঝগড়ায় খুন

অনলাইন ডেস্ক

অটোরিকশার ১০ টাকা বেশি ভাড়া নিয়ে ঝগড়ায় খুন হন নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে অটোচালক বলরাম মজুমদার। হত্যার ছয় মাস পর খুনের রহস্য উদ্‌ঘাটন করেছে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)।

এ ঘটনার গতকাল বুধবার (১০ আগস্ট) শ্যামল চন্দ্র দাস (৩২) ও আবদুল খালেক তোতা মিয়া (৫২) নামে দুই আসামিকে গ্রেপ্তার করা হয়।

বৃহস্পতিবার (১১ আগস্ট) শ্যামল চন্দ্র দাস হত্যার দায় স্বীকার করে আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছেন।

গ্রেপ্তার অন্য আসামি চোরাই অটোর ক্রেতা ছিলেন।

নোয়াখালীর পুলিশ সুপার মো. শহীদুল ইসলাম এসব তথ্য নিশ্চিত করেন।

তিনি বলেন, চলতি বছরের ৩১ জানুয়ারি বলরাম মজুমদারকে শ্বাসরোধে হত্যা করা হয়। ক্লুলেস এই হত্যার রহস্য উদ্‌ঘাটনে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ তদন্ত শুরু করে।

একপর্যায়ে শ্যামল চন্দ্র দাস ও আবদুল খালেক তোতার সম্পৃক্ততা পেয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

তিনি বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে শ্যামল চন্দ্র দাস জানান, বলরাম মজুমদারকে হত্যার চার-পাঁচদিন পূর্বে অটোরিকশার ১০ টাকা বেশি ভাড়া নিয়ে ঝগড়া হয় এ ঘটনার সঙ্গে জড়িত পলাতক দুই আসামির সঙ্গে।

পুলিশ সুপার বলেন, সেই ঝগড়াকে কেন্দ্র করে আসামিরা তাকে শ্বাসরোধে হত্যা করে। পরবর্তীতে বলরামের অটোরিকশাটি আবদুল খালেক তোতা মিয়ার কাছে ২৭ হাজার টাকায় বিক্রি করে দেওয়া হয়। পলাতক অন্য দুই আসামিকে গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

news24bd.tv/তৌহিদ