ইউরোপে শিগগিরিই বন্ধ হতে পারে রুশ প্রবেশ
ইউরোপে শিগগিরিই বন্ধ হতে পারে রুশ প্রবেশ

সংগৃহীত ছবি

ইউরোপে শিগগিরিই বন্ধ হতে পারে রুশ প্রবেশ

অনলাইন ডেস্ক

ইউক্রেনে হামলার পর থেকেই ইউরোপ-আমেরিকার নানা নিষেধাজ্ঞার মুখে রাশিয়া। একের পর এক আর্থিক নিষেধাজ্ঞা রুশদের ওপর। দেশটির মন্ত্রীসহ শিল্পপতিদের অনেককে নিষিদ্ধ ঘোষণা করেছে ইউরোপ-আমেরিকা জোট। বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে তাঁদের বিদেশে থাকা বিপুল সম্পত্তি।

এবার সমগ্র ইউরোপেই রুশ প্রবেশ নিষিদ্ধ করতে যাচ্ছে জোট।

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলোর আশংকা, বর্তমানে ইউরোপীয় ইউনিয়ন (ইইউ)-এর সভাপতিত্ব করছে চেক প্রজাতন্ত্র। তারা জানিয়েছে, এবার রুশ পর্যটকদের ভিসা দেওয়ায় নিষেধাজ্ঞা জারি হবে। এরই ধারাবাহিকতায় চেক পররাষ্ট্রমন্ত্রী জান লিপাভস্কি একটি বিবৃতিতে বলেন, ‘শীঘ্রই ইইউ-এর সব সদস্য দেশের পক্ষ থেকে রুশদের ভিসা দেওয়া বন্ধ করে দেওয়া হতে পারে।

এটি হবে পরবর্তী কার্যকরী পদক্ষেপ। ’’ চলতি মাসের শেষেই ইইউ বিষয়টি নিয়ে বিশেষ আলোচনায় বসবে। তার পরেই চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত।

আগ্রাসনের শুরুতেই ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জ়েলেনস্কি পশ্চিমের কাছে রুশ পর্যটকদের উপরে নিষেধাজ্ঞা জারি করা হোক বলে দাবি তোলেন। ওই সময়ে জেলেনস্কি বলেন, রুশরা যতক্ষণ না তাঁদের দর্শন পরিবর্তন করছেন ততক্ষণ তাঁদের নিজেদের জগতেই থাকা উচিত।

তবে চেক প্রজাতন্ত্রে এই নিয়ম বেশ আগে থেকেই। রাশিয়ার আগ্রাসনের একদিন পর থেকেই তারা সাধারণ রুশদের ভিসা দেওয়া বন্ধ করে দেয়। কিন্তু ফিনল্যান্ড দিয়ে ঢুকে গোটা ইউরোপেই ঘুরে বেড়াচ্ছেন অসংখ্য রুশ পর্যটক। শেনজ়েন অঞ্চলে রুশদের ভিসা লাগে না। একবার সে অঞ্চলে ঢুকলে, সেখান থেকে গোটা মহাদেশেই অবাধ যাতায়াত। এ বিষয়ে চেক প্রজাতন্ত্রের বক্তব্য, এর মধ্যে রুশ গুপ্তচরেরাও থাকতে পারে।

news24bd.tv/FA