ঋণ নিয়ে আলোচনা হবে অক্টোবরের শেষে: আইএমএফ
ঋণ নিয়ে আলোচনা হবে অক্টোবরের শেষে: আইএমএফ

সংগৃহীত ছবি

ঋণ নিয়ে আলোচনা হবে অক্টোবরের শেষে: আইএমএফ

নিজস্ব প্রতিবেদক

জ্বালানি তেলের দাম বাড়ানোর সিদ্ধান্ত একান্তই বাংলাদেশ সরকারের, এর সাথে আইএমএফ এর কোনো সম্পর্ক নেই। মঙ্গলবার (১৬ আগস্ট) এক ভার্চুয়াল সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন আইএমএফ এর এশীয়-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চল ও বাংলাদেশ মিশনের প্রধান রাহুল আনান্দ।

বাংলাদেশের চাওয়া ঋণ নিয়ে অক্টোবরের শেষের দিকে আলোচনা শুরু হবে। এ অবস্থায় কোনো শর্ত দেওয়ার প্রশ্নই আসে না।

তবে, চলমান বৈশ্বিক সংকটে তৈরি হওয়া অথনৈতিক চ্যালেঞ্জ কাটিয়ে ওঠার শক্তি বাংলাদেশের আছে বলেও জানান তিনি।  

ভার্চুয়াল ব্রিফিংয়ে ঋণের অর্থ কতো কিংবা ঋণ পরিশোধে শর্ত কি রকম হতে পারে এ বিষয়ে এখনো কোন আলোচনা হয়নি বলেও জানানো হয়। সংস্থাটির মতে, বৈদেশিক মুদ্রার সরবরাহ কমায়, এদেশের বৈদেশিক বানিজ্যে যে টালমাটাল পরিস্থিতি তৈরি হয়েছিলো তা সামাল দেয়াও সম্ভব হয়েছে।

বাংলাদেশ কোনও সংকটময় পরিস্থিতিতে নেই বলেও মন্তব্য করেন রাহুল আনন্দ।

তিনি বলেন, বিদেশি ঋণের ক্ষেত্রে এ অঞ্চলের অন্য দেশগুলোর তুলনায় বাংলাদেশ বেশ ভিন্ন অবস্থানে রয়েছে। অন্যান্য দেশের তুলনায় বাংলাদেশের বৈদেশিক ঋণ তুলনামূলক অল্প, যা জিডিপির ১৪ শতাংশের মতো। তিনি আরো বলেন, বাংলাদেশের পরিস্থিতি শ্রীলঙ্কা থেকে ভিন্ন । দেশটির  ঋণখেলাপির পথে যাওয়ার ঝুঁকিও কম।

news24bd.tv/আজিজ