গৃহবধূর হাত-পা বাঁধা মরদেহ মিললো মাটির নিচে
গৃহবধূর হাত-পা বাঁধা মরদেহ মিললো মাটির নিচে

সংগৃহীত ছবি

গৃহবধূর হাত-পা বাঁধা মরদেহ মিললো মাটির নিচে

শেরপুর প্রতিনিধি

শেরপুরে নিখোঁজের ৫ দিন পর মাটিচাপা অবস্থায় এক গৃহবধূর হাত-পা বাঁধা মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার (২৫ আগস্ট) বিকালে উপজেলার বিশগিড়িপাড়া বন বিভাগের বাগানে ঝোপের মধ্য থেকে ওই নারীর মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। নিহত নাছিমা বেগম (৩৮) উপজেলার মানিককুড়া গ্রামের গ্রাম পুলিশ (চৌকিদার) আমির হোসেন মন্ডলের স্ত্রী।

পুলিশ ও নিহতের পরিবার জানায়, গত শনিবার বিকেলে নাছিমা বাড়ি থেকে বের হয়ে রাতেও ফিরে না আসায় স্বজনরা তাকে খোঁজাখুজি শুরু করে।

সব জায়গায় খুঁজে না পেয়ে মঙ্গলবার আমির হোসেন নালিতাবাড়ী থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন। আজ সকালে বাড়ি থেকে প্রায় এক কিলোমিটার দূরে বন বিভাগের বাগানে ঝোপের নিচে মাটিচাপা অবস্থায় একটি হাত ও একটি পা দেখতে পান ওই নারী মা। পরে ওই নারীর হাতে থাকা চুড়ি ও পরনের কাপড় দেখে মরদেহ শনাক্ত করে পরিবার।  
খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে নালিতাবাড়ী সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার আফরোজা নাজনীনসহ পুলিশ, পিবিআই, র‌্যাব, সিআইডির সদস্যরা বিকেলে মাঠি খুড়ে মরদেহ উদ্ধার করে।
মরদেহ শেরপুর জেলা সদর হাসপাতালে ময়না তদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে নাছিমার পরিবারের পক্ষ থেকে নালিতাবাড়ী থানায় মামলা করার প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

নালিতাবাড়ী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এমদাদুল হক জানান, খবর পেয়ে মরদেহ উদ্ধারে থানা পুলিশ, পিবিআই, সিআইডি ও র‌্যাবের টিম ঘটনাস্থলে আছে। হত্যাকাণ্ডের কারণ ও অপরাধী সনাক্তে কাজ করা হচ্ছে বলেও জানান তিনি।

news24bd.tv/আজিজ