মৃত্যুর কাছে হার মানলেন কলেজ শিক্ষিকা মুনা 
মৃত্যুর কাছে হার মানলেন কলেজ শিক্ষিকা মুনা 

সংগৃহীত ছবি

মৃত্যুর কাছে হার মানলেন কলেজ শিক্ষিকা মুনা 

অনলাইন ডেস্ক

মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করে আর পারলেন না শিক্ষিকা তাহমিনা মুনা (৩২)। রোববার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে রাজধানী ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে তার মৃত্যু হয়। কুমিল্লায় ভাড়া বাসায় রান্না করার সময় গ্যাসের আগুনে দগ্ধ হওয়ার পর এক সপ্তাহ জীবনের সঙ্গে লড়াই করে হার মানলেন তিনি।

রোববার রাতে মুনার স্বামী নাট্যকর্মী ও আবৃত্তি শিল্পী সুমন সালাহউদ্দিন তার মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, গত ২৯ আগস্ট রাতে তার স্ত্রী নগরীর রেইসকোর্স ভাড়া বাসায় গ্যাসের আগুনে দগ্ধ হন। মুনাকে রক্ষা করতে গিয়ে তিনি নিজেও আহত হন। পরে বাসার লোকজন তাদের উদ্ধার করে প্রথমে কুমিল্লা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল এবং পরে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি করেন।

সুমন সালাউদ্দিন বলেন, চিকিৎসক জানিয়েছিলেন, মুনার কোমরসহ শরীরের প্রায় ৬০ শতাংশ পুড়ে গেছে।

তবু আমরা আশা ছাড়িনি। শেষ পর্যন্ত মুনা আমাদের ছেড়ে চলেই গেল। তার অবস্থা শংকটাপন্ন হওয়ায় তাকে আইসিইউতে নেয়া হয়েছিল।

শিক্ষিকা তাহমিনা মুনা কুমিল্লার দেবিদ্বার উপজেলার নবীয়াবাদ এলাকায় অবস্থিত ‘কুমিল্লা মডেল কলেজের’ বাংলা বিভাগের প্রভাষক ছিলেন। তার বাবার বাড়ি কুমিল্লা নগরীর পাথুরিয়াপাড়া এলাকায়। মুনার স্বামীর বাড়ি জেলার চান্দিনা উপজেলার হারং গ্রামের ভূঁইয়া বাড়িতে। তার ২ বছর ৩ মাস বয়সী একটি কন্যা সন্তান রয়েছে।

শিক্ষিকা মুনা কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া সরকারি কলেজের বাংলা বিভাগের ২০০৭- ২০০৮ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী ছিলেন। ২০১৫ সাল থেকে তিনি কুমিল্লা মডেল কলেজে প্রভাষক হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

news24bd.tv/সাব্বির