পটুয়াখালীতে সাংবাদিক লিটুর ওপর হামলা
পটুয়াখালীতে সাংবাদিক লিটুর ওপর হামলা

সংগৃহীত ছবি

পটুয়াখালীতে সাংবাদিক লিটুর ওপর হামলা

জেলা প্রতিনিধি,পটুয়াখালী

টেলিভিশন চ্যানেল নিউজ২৪, বাংলাদেশ প্রতিনিধি ও বিডি নিউজের পটুয়াখালী জেলা প্রতিনিধি সঞ্জয় দাস লিটুর ওপর হামলার ঘটনা ঘটেছে। হামলার পর বরগুনা বিডিনিউজের প্রতিনিধি মোঃ কামাল হোসেন তাকে উদ্ধার করে পটুয়াখালী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করেন।

মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) রাতে পটুয়াখালী লাউকাঠী ব্রিজের উত্তরপাড় শিয়ালীবাজারে ঢাকা থেকে পটুয়াখালীর উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসা মেঘনা পরিবহনের বাসে এ ঘটনা ঘটে। হামলা কারীদের সনাক্তে কাজ শুরু করেছে পটুয়াখালী সদর থানা পুলিশ।

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সাংবাদিক লিটু ঢাকায় বিডিনিউজের একটি কর্মসূচী শেষে বিকেলে মেঘনা পরিবহনের বাসে পটুয়াখালী রওয়ানা করেন। এসময় একজন তাকে নজরে রাখে এবং পটুয়াখালীর কাছাকাছি পৌঁছালে তার উপর হামলা করে পালিয়ে যায়।

কামাল হোসেন জানান, বাসটি পটুয়াখালী পৌঁছালে হঠাৎ করে অজ্ঞাত একজন সাংবাদিক লিটুর উপর হামলা করে। এসময় লিটু গুরুতর আহত হয়।

হামলার সময় নিজেকে পটুয়াখালী শীর্ষ ৫জন সন্ত্রাসীর মধ্যে নিজেকে শ্রেষ্ঠ বলেও দাবী করেন হামলাকারী।  

তবে, এখন পর্যন্ত কি কারণে হামলা হয়েছে তা নিদিষ্ট করে বলতে পারেনি কেউ। ইতিমধ্যে পটুয়াখালী সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ মনিরুজ্জামান হাসপাতালে আহত সাংবাদিক লিটু সার্বিক বিষয় পর্যবেক্ষণ করছেন।

এদিকে এই জঘন্য সন্ত্রাসী হামলার নিন্দা জানিয়েছেন পটুয়াখালী জেলায় কর্মরত গণমাধ্যম কর্মীরা। তারা অতিদ্রুত এই হামলার সাথে প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে জড়িতদের খুঁজে বের করে গ্রেপ্তাতার ও দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন।

পটুয়াখালী সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ মনিরুজ্জামান বলেন, ‘আমরা আহত সাংবাদিকের খোঁজ খবর নিয়েছি। হাসপাতালে আমিসহ ফোর্স তার কথা শুনেছি। আমরা প্রাথমিক তথ্যের ভিত্তিতে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ ও ঘটনার সাথে জড়িতদের খুঁজে বের করতে কাজ শুরু করছি। ’

news24bd.tv/আমিরুল

এই রকম আরও টপিক