‘টিকটকার সাব্বির’, টিটকারি দর্শকদের
‘টিকটকার সাব্বির’, টিটকারি দর্শকদের

সংগৃহীত ছবি

‘টিকটকার সাব্বির’, টিটকারি দর্শকদের

অনলাইন ডেস্ক

সামনের নভেম্বরেই ৩১-এ পা রাখবেন বাংলাদেশি ক্রিকেটার সাব্বির রহমান। দল থেকে দীর্ঘ সময় দূরে থাকলে এ বয়সে খুব ভালো পারফরম্যান্স ছাড়া ঢোকা খুব কষ্টসাধ্যই বটে। তবে সাব্বিরের সৌভাগ্য, কোথাও কোনো পারফর্ম না করেই এই বয়সে ফের জাতীয় দলে ঢুকেছেন তিনি।  

এশিয়া কাপের আগে সাব্বিরকে টি২০ দলে ডাকেন নির্বাচকরা।

সাম্প্রতিক ফর্ম ভালো না হলেও, অন্যদের ব্যর্থতা এবং টি২০’র চাহিদা ভালোই মেটাতে পারেন বলে তার ওপর একটা বাজি ধরেছে বাংলাদেশের টিম ম্যানেজমেন্ট।

তবে দলকে সাব্বির হতাশই করেছেন। টি২০ দলে ফেরার পর এখন পর্যন্ত সাব্বির ম্যাচ খেলেছেন তিনটি। সবকটিই ওপেনিং পজিশনে।

তবে এই তিন ম্যাচে তার ব্যাট থেকে এসেছে মোটে ১৭ রান। এর মধ্যে সংযুক্ত আরব আমিরাতের মতো দলের বিপক্ষে শূন্য রানে সাজঘরে ফেরার লজ্জার মুহূর্তও রয়েছে।

ভাগ্যক্রমে দলে ঢোকার পর এমন বিবর্ণ পারফরম্যান্স, সাব্বিরকে নিয়ে এমনিতেই বড্ড হতাশ সমর্থকরা। তার ওপর নিজের ব্যক্তিগত কার্যকলাপে সেই হতাশাকে ক্ষোভে পরিণত করছেন সাব্বির নিজেই।

আমিরাতের বিপক্ষে টি২০ সিরিজ খেলতে দেশ ছাড়ার আগে সাব্বির সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টিকিটকে নিজের আইডি ভেরিফাই হওয়ার ‘সুখবর’ দেন সবাইকে। বিষয়টি নিয়ে তখন থেকেই তীব্র সমালোচনা হচ্ছিল। টি২০ দলের অবস্থা যাচ্ছেতাই। সাব্বিরের ব্যাটও কথা বলছে না। এমন সময় খেলায় মন না দিয়ে বিতর্কিত ভিডিও শেয়ারিং অ্যাপ টিকটক নিয়ে তার মাতামাতি দেখেই জনরোষ তৈরি হয়।

আরব আমিরাতের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচে ডাক মেরে ফেরার পর তাই দর্শকদের টিটকারি শুনতে হয়েছে সাব্বিরকে। তাকে নিয়ে দর্শকদের ঠাট্টার ভিডিওটি ভাইরাল হয়েছে দ্বিতীয় টি২০ ম্যাচ চলাকালীন। সেই ভিডিওতে দেখা যায় গ্যালারিতে থাকা বাংলাদেশি সমর্থকরা ফিল্ডিং করার সময় বাউন্ডারি লাইনের পাশে থাকা সাব্বিরকে ‘স্লেজিং’ করছেন।

একজন চিৎকার করে সাব্বিরের টিকটক ভেরিফিকেশন ভিডিওর নকল করে বলছিলেন, ‘এইটা আমার রিয়েল আইডি সাব্বির ভাই। ’ এছাড়া তাকে ‘টিকটক সাব্বির’ বলেও টিটকারি দেওয়া হচ্ছিল। সাব্বির অবশ্য দর্শকদের এমন বিরূপ মন্তব্যে কোনো প্রতিক্রিয়া দেখাননি।

news24bd.tv/সাব্বির