দেশে প্রবীণ জনগোষ্ঠী দেড় কোটি
দেশে প্রবীণ জনগোষ্ঠী দেড় কোটি

সংগৃহীত ছবি

দেশে প্রবীণ জনগোষ্ঠী দেড় কোটি

অনলাইন ডেস্ক

আজ শনিবার বিশ্ব প্রবীণ দিবস। ‘পরিবর্তিত বিশ্বে প্রবীণ ব্যক্তির সহনশীলতা’ প্রতিপাদ্যে বিশ্বের অন্য দেশগুলোর মতো বাংলাদেশেও পালিত হচ্ছে বিশ্ব প্রবীণ দিবস। দেশে জনসংখ্যা বৃদ্ধির হার কম হলেও প্রবীণ জনসংখ্যা বৃদ্ধির হার বেশি।  

বর্তমানে দেশে বয়স্ক মানুষের সংখ্যায় দেড় কোটি।

২০৫০ সালে তা বেড়ে হবে ৪ কোটি। গড় আয়ু বেড়ে যাওয়ায় প্রবীণের সংখ্যা বাড়ছে।  

জনশুমারি ও গৃহগণনা-২০২২ এর প্রতিবেদন অনুযায়ী, দেশে বর্তমানে ৬০ বছরের বেশি বয়সী মানুষের সংখ্যা ১ কোটি ৫৩ লাখ ২৬ হাজার। যা মোট জনসংখ্যার ৯ দশমিক ২৮ শতাংশ।

 

২০১১ সালের জনশুমারির তথ্য অনুযায়ী, এ হার ছিল ৭ দশমিক ৪৭ শতাংশ। দেশের মানুষের গড় আয়ু বেড়ে যাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে প্রবীণ মানুষের সংখ্যা বাড়ছে।

জাতিসংঘের জনসংখ্যা উন্নয়ন তহবিলের তথ্য অনুযায়ী, বাংলাদেশে ২০২৫-২৬ সালে প্রবীণের সংখ্যা হবে ২ কোটি। ২০৫০ সালে এ সংখ্যা দাঁড়াবে সাড়ে ৪ কোটি এবং তখনকার জনসংখ্যার ২১ শতাংশ হবে প্রবীণ।

প্রতিবছরের মতো এবারও সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় ও সমাজসেবা অধিদপ্তর দিবসটি যথাযোগ্য মর্যাদায় পালনের প্রস্তুতি নিয়েছে। বৃহস্পতিবার সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের তথ্য ও জনসংযোগ কর্মকর্তা জাকির হোসেন স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, দিবসটির তাৎপর্য তুলে ধরতে আগারগাঁও সমাজসেবা অধিদপ্তরে আলোচনা সভা ও র‌্যালি অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।

সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, প্রবীণ জনগোষ্ঠীর কল্যাণ ও সুরক্ষায় কর্মকৌশল এবং পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে সরকার। এ জন্য চলতি অর্থবছরে এ খাতের বরাদ্দ ৭ হাজার ৬৮৩ কোটি টাকা।

news24bd.tv/হারুন