তিন গোলই সিঙ্গাপুরের অথচ জিতল বাংলাদেশ 
তিন গোলই সিঙ্গাপুরের অথচ জিতল বাংলাদেশ 

বাফুফে

এএফসি অনূর্ধ্ব-১৭ চ্যাম্পিয়নশিপ বাছাইপর্ব

তিন গোলই সিঙ্গাপুরের অথচ জিতল বাংলাদেশ 

অনলাইন ডেস্ক

ম্যাচে তিন গোলের তিনটিই করেছে সিঙ্গাপুরের ফুটবলাররা। দুর্ভাগ্যক্রমে সেই তিন গোলের দুটিই তারা পাঠায় নিজেদের জালে। ফলে ম্যাচ জিতেছে বাংলাদেশ। আজ বুধবার এএফসি অনূর্ধ্ব-১৭ চ্যাম্পিয়নশিপের বাছাইপর্বে বাংলাদেশ নিজেদের প্রথম ম্যাচ জিতেছে ২-১ গোলে।

কমলাপুরের বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহী মোহাম্মদ মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে আসা দর্শকরা জমজমাট এক ম্যাচই উপভোগ করেছে। টানটান উত্তেজনা বজায় ছিল ম্যাচের একদম শেষ মিনিট পর্যন্ত।

বাংলাদেশের সামনে এগিয়ে যাওয়ার সুযোগ এসেছিলে ম্যাচের তৃতীয় মিনিটেই। সিঙ্গাপুর গোলরক্ষকের ভুলে বল পেয়ে যান নাজিম উদ্দিন।

তবে ডি বক্সে ঢুকেও শট গোল বরাবর রাখতে পারেননি তিনি। ফলে বেঁচে যায় সিঙ্গাপুরের কিশোরেরা।

তবে ১০ মিনিটে প্রতিপক্ষের আত্মঘাতী গোলে লিড পায় স্বাগতিকরা। এবারও দৃশ্যপটে সেই নাজিম উদ্দিন। বাঁ-প্রান্ত থেকে তার উড়ন্ত ক্রস মিরাজুলের কাছে আসার আগেই ক্লিয়ার করতে গিয়ে নিজেদের জালেই জড়িয়ে দেন সিঙ্গাপুরের ডিফেন্ডার ব্রাইডেন গোহ।

সিঙ্গাপুর ম্যাচে ফিরতে অবশ্য বেশি সময় নেয়নি। ২৭ মিনিটে ঠাণ্ডা মাথায় মুহাম্মদ সাইয়াজয়ান ডান পায়ের শটে তার দলকে সমতায় ফেরান। স্কোরলাইন ১-১ রেখেই দুই দল যায় বিরতিতে।

দ্বিতীয়ার্ধে বাংলাদেশ-সিঙ্গাপুর দুই দলের সামনেই একাধিক সুযোগ আসে ম্যাচে এগিয়ে যাওয়ার। তবে গোলটাই আসছিল না। রেফারির নির্ধারিত ৯০ মিনিট পর ইনজুরি সময় দেন ৮ মিনিট। বাড়িয়ে দেওয়া সময়েই বাংলাদেশকে জিতিয়ে দেন সিঙ্গাপুরের মোহাম্মদ রাতুল।

রেফারি যখন শেষ বাঁশি বাজানোর অপেক্ষায় তখনই রাতুল গোলমুখে লম্বা থ্রো করেন। জটলার মধ্যে সিঙ্গাপুর গোলরক্ষক আইজাক লি বল নিয়ন্ত্রণ করতে পারেননি। তার হাত ফসকে জালে ঢুকে যায়। গোল পেয়ে যায় বাংলাদেশ। যে গোলে জয়ও নিশ্চিত হয় মিরাজুলদের।

এএফসি অনূর্ধ্ব-১৭ বাছাইপর্বে বাংলাদেশের পরের ম্যাচ শুক্রবার সন্ধ্যা ৭টায়। প্রতিপক্ষ ভুটান।

news24bd.tv/সাব্বির