বিশ্বকাপের টানে মরুভূমির বুকে হেঁটে কাতার যাত্রা  
বিশ্বকাপের টানে মরুভূমির বুকে হেঁটে কাতার যাত্রা  

সংগৃহীত ছবি

বিশ্বকাপের টানে মরুভূমির বুকে হেঁটে কাতার যাত্রা  

অনলাইন ডেস্ক

ফুটবল বিশ্বকাপ মানেই যেন অন্যরকম উন্মাদনা। বিশ্বের অন্যতম জনপ্রিয় এই আসর এলেই ভক্ত-অনুরাগীদের অভিনব সব ঘটনা লক্ষ করা যায়। সৌদি আরবের এক ফুটবল ভক্ত তো বিশ্বকাপের টানে একেবারে মরুভূমির মধ্য দিয়ে হেঁটে কাতার যাত্রা করেছেন।  

আব্দুল্লাহ আলসুলমির নামে ওই যুবকের সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে দেওয়া পোস্টগুলো থেকে জানা যায়, রাতে ঘুমানোর জায়গার অভাব এবং কখনো কখনো শরীরের কাছে বিষাক্ত বিছা ঘুরে বেড়াতেও দেখেছেন তিনি।

গত সপ্তাহে রিয়াদ থেকে ৩৪০ কিলোমিটার দক্ষিণপশ্চিমের শহর আল-খাসরাহ থেকে আব্দুল্লাহ বলেন, ‘আমরা এই বিশ্বকাপকে সমর্থন দিতে চাই। ’

চওড়া হ্যাট পরে, ব্যাকপ্যাক কাঁধে নিয়ে (যার মধ্যে সৌদি আরব ও কাতারের পতাকা আটকানো) ‘সলো ট্রেকিং’ চালিয়ে যাওয়া আব্দুল্লাহ বলেন, ‘আমি নিজেকে একজন কাতারির মতোই মনে করি। আমি আসন্ন বিশ্বকাপ ও এর সফল আয়োজন দেখতে ভীষণ আগ্রহী। ’

একসময় কানাডা ও অস্ট্রেলিয়ায় বসবাস করার সুবাদে দীর্ঘ ট্রেকিংয়ের অভিজ্ঞতা আছে আব্দুল্লাহর।

কিন্তু অত্যন্ত প্রতিকূল পরিবেশের মধ্য দিয়ে আরব উপদ্বীপ পাড়ি দেওয়ার সঙ্গে সেসব ট্রেকিংয়ের তুলনা হয় না বরে উল্লেখ করেন তিনি।  

জানা গেছে, প্রতিদিন সূর্য ওঠার সাথেসাথে হাঁটা শুরু করেন আব্দুল্লাহ এবং সকাল ১০টা অথবা ১০.৩০ মিনিট পর্যন্ত হাঁটেন তিনি। কিন্তু এরপরে তীব্র গরমের কারণে তাকে কয়েক ঘণ্টা বিরতি নিতে হয় এবং আবার বিকালে শুরু করে সূর্য ডোবার আগপর্যন্ত হাঁটেন তিনি। তবে আব্দুল্লাহ জানান, মাঝেমাঝে তিনি রাতেও হাঁটেন, যাতে করে তার দৈনিক ৩৫ কিলোমিটার হাঁটার রুটিন বজায় থাকে।

নিজের সাথের বোঝা হালকা রাখার জন্য আব্দুল্লাহ শুধু পেট্রোল স্টেশন থেকেই খাবার কিনে খান, বেশিরভাগ সময়ই দেখা যায় ভাত এবং মুরগি দিয়ে খাওয়া সারতে হয় তাকে। আর গোসল এবং কাপড় ধোওয়ার কাজটা তিনি আশেপাশের কোনো মসজিদ থেকে সেরে নেন।
সূত্র: আল জাজিরা

news24bd.tv/ইস্রাফিল