বৃহস্পতিবার, ২৪ অক্টোবর, ২০১৯ | আপডেট ০৩ ঘন্টা ৫৪ মিনিট আগে

মৃত্যুবার্ষিকীতে তারেক মাসুদ ও মিশুক মুনীরকে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ

নিউজ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক

মৃত্যুবার্ষিকীতে তারেক মাসুদ ও মিশুক মুনীরকে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ

খ্যাতিমান চলচ্চিত্র নির্মাতা তারেক মাসুদ ও চলচ্চিত্রগ্রাহক  মিশুক মুনীরের ৭ম মৃত্যুবার্ষিকী আজ। ২০১১ সালের এই দিনে (১৩ আগস্ট) তারেক-মিশুকসহ আরও ৩ জন চলচ্চিত্রকর্মী সড়ক দুর্ঘটনায় মারা যান।

তাদের স্মরণে আজ ঢাকা ও ঢাকার বাইরে বেশকিছু আয়োজন করেছে বিভিন্ন সংগঠন।

এর মধ্যে মুভিয়ানা ফিল্ম সোসাইটি ও বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি যৌথভাবে গেল শনিবার থেকে আজ সোমবার পর্যন্ত কর্মশালা ও চলচ্চিত্র প্রদর্শনীর আয়োজন করেছে।

একাডেমির সেমিনার কক্ষে প্রতিদিন সকাল ১০টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত এটি চলছে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে তারেক মাসুদ মেমোরিয়াল ট্রাস্ট ও মুভিয়ানা ফিল্ম সোসাইটি আয়োজন করেছে স্মরণ অনুষ্ঠান।

বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্র-শিক্ষক (টিএসসি)কেন্দ্রের কাছে ও শামসুন নাহার হলের সম্মুখে অবস্থিত ‘সড়ক দুর্ঘটনা স্মৃতিস্থাপনায়' এ আয়োজনটি করা হয়েছে।

চলচ্চিত্রবিষয়ক কর্মশালায় বক্তব্য প্রদান করেন ক্যাথরিন মাসুদ

উল্লখ্যে, ২০১১ সালের ১৩ আগস্ট মানিকগঞ্জের ঘিওর উপজেলাধীন ঢাকা-আরিচা মহাসড়কে সড়ক দুর্ঘটনায় তারেক মাসুদ ও এটিএন নিউজের তৎকালীন প্রধান নির্বাহী মিশুক মুনীরসহ ৫জন নিহত হন।

‘কাগজের ফুল’ চলচ্চিত্রের শুটিং লোকেশন বাছাই করে ঢাকায় ফেরার সময় এ দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনায় তারেক মাসুদের স্ত্রী ক্যাথরিন মাসুদও আহত হয়েছিলেন। আদম সুরত, মুক্তির গান, মুক্তির কথা, মাটির ময়না, অন্তর্যাত্রা ও রানওয়ে চলচ্চিত্র দিয়ে তারেক মাসুদ বাংলা চলচ্চিত্রের নতুন ধারার সূচনা করেছেন।

ক্যামেরার পেছনে থেকে তাকে সর্বক্ষেত্রেই সহযোগিতা করেছেন বাংলাদেশের টেলিভিশন সাংবাদিকতার পথিকৃৎ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের অধ্যাপক মিশুক মুনীর।

অরিন/নিউজ টোয়েন্টিফোর

মন্তব্য