১০ ঘণ্টার অভিযানে সেই নির্মাণশ্রমিক জীবিত উদ্ধার
১০ ঘণ্টার অভিযানে সেই নির্মাণশ্রমিক জীবিত উদ্ধার

সংগৃহীত ছবি

১০ ঘণ্টার অভিযানে সেই নির্মাণশ্রমিক জীবিত উদ্ধার

অনলাইন ডেস্ক

রংপুরের বদরগঞ্জে ২০ ফুট গভীর টয়লেটের কূপের মধ্যে আটকে পড়া নির্মাণশ্রমিক আবু হাসানকে (২৮) উদ্ধার করা হয়েছে। ফায়ার সার্ভিসের কর্মীদের ১০ ঘণ্টার প্রাণান্তকর চেষ্টায়  তাকে জীবিত উদ্ধার করা সম্ভব হয়েছে।  

কূপের মধ্যে আটকে পড়া নির্মাণশ্রমিকের নাম আবু হাসান (২৮)। তিনি পৌর এলাকার শাহাপুর মাস্টারপাড়া গ্রামের বাসিন্দা।

শনিবার (২২ অক্টোবর) বিকেল তিনটা থেকে দিবাগত রাত ১টার পর্যন্ত চলা অভিযানে সম্পূর্ণ সনাতন পদ্ধতি অবলম্বন করে ওই নির্মাণশ্রমিককে উদ্ধার করেন ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা।

স্থানীয়দের কাছ থেকে জানা গেছে, আবু হাসানসহ তিন শ্রমিক বদরগঞ্জ পৌর এলাকার বালুয়া ভাটা গ্রামের বাবুল দাসের বাড়িতে টয়লেটের কূপ খননে সকাল থেকেই কাজ করছিলেন। দুপুর আড়াইটার দিকে খনন করা কূপ থেকে উপরে উঠতে গিয়ে বালু ধসে আটকে পড়েন আবু হাসান। বিষয়টি প্রাথমিকভাবে গুরুত্ব না দিয়ে সঙ্গের দুই শ্রমিক চলে যান।

পরে বিষয়টি জানাজানি হলে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে বিকেল ৩টা থেকে উদ্ধার অভিযান শুরু করেন। রংপুর ও বদরগঞ্জ থেকে আসা ফায়ার সার্ভিসের তিনটি ইউনিট এ উদ্ধার অভিযানে অংশ নেয়। এ সময় জীবিত রাখতে ওই শ্রমিককে উদ্ধারের সময় কূপের নিচে অক্সিজেন সরবরাহ করা হয়েছে।  

অভিযান দেখতে ঘটনাস্থলে ভিড় জমান হাজার হাজার উৎসুক মানুষ। শেষ পর্যন্ত রাত ১২টা ৫৬ মিনিটে মৃত্যুকূপ থেকে জীবিত অবস্থায় উপরের দিকে তুলে আনা হয় আবু হাসানকে। পরে সেখান থেকে তাকে দ্রুত অ্যাম্বুলেন্সে করে হাসপাতালে পাঠানো হয়।

এ ব্যাপারে বদরগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ভারপ্রাপ্ত) কাশপিয়া তাসরিন বলেন, দুর্ঘটনার সংবাদ জানার পর থেকে কূপে আটকে থাকা শ্রমিককে উদ্ধারে সব চেষ্টাই আমরা করেছি। শেষ পর্যন্ত তাকে জীবিত অবস্থায় উদ্ধার করা গেছে।

জানতে চাইলে ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের রংপুর বিভাগীয় উপ-পরিচালক জসিম উদ্দিন বলেন, বালু ধসে মাটির নিচে আটকে পড়েছিল নির্মাণশ্রমিক আবু হাসান। আমরা তাকে জীবিত ও অক্ষত অবস্থায় উদ্ধারে সর্বাত্মক চেষ্টা করেছি। সনাতন পদ্ধতি অবলম্বন করায় প্রায় সময় লাগলেও উদ্ধার অভিযান সফল হয়েছে।

news24bd.tv/আজিজ