গ্লেন ফিলিপসের একার রানই করতে পারল না লঙ্কানরা
গ্লেন ফিলিপসের একার রানই করতে পারল না লঙ্কানরা

সংগৃহীত ছবি

গ্লেন ফিলিপসের একার রানই করতে পারল না লঙ্কানরা

অনলাইন ডেস্ক

বিশ্বকাপের সুপার টুয়েলভে লড়াইয়ে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে বড় ব্যবধানে হেরেছে শ্রীলঙ্কা। কিউই ব্যাটর গ্লেন ফিলিপসের সেঞ্চুরিতে ভর করে ২০ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৬৭ রান করে নিউজিল্যান্ড। রান তাড়া করতে নেমে ১৯.২ ওভারে ১০২ রানে অলআউট হয়েছে শ্রীলঙ্কা।

জবাব দিতে নেমে টিম সাউদি এবং ট্রেন্ট বোল্টের বোলিং তোপে শুরুতেই ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় শ্রীলঙ্কা।

মাত্র ৮ রানের মধ্যে ৪ উইকেট হারিয়ে বসে লঙ্কানরা। বোল্ট প্রথম স্পেলের তিন ওভারে ১১ রান দিয়ে তুলে নেন ৩ উইকেট।  লঙ্কানদের টপ অর্ডারের চার ব্যাটসম্যানের কেউই ডাবল ডিজিটে যেতে পারেননি।  দুইজন শূন্য এবং বাকি দুইজন ফেরেন ৪ রান করে।

পাঁচে নেমে ভানুকা রাজাপাকসে লঙ্কান অধিনায়ক দাসুন শানাকাকে নিয়ে প্রতিরোধের চেষ্টা করেন। তবে ২২ বলে ৩৪ রান করে রাজাপক্ষের লড়ােই থেমে যায়। একপর্যায়ে ৬৫ রানের মধ্যে ৮ উইকেট হারিয়ে বড় ব্যবধানে হারের লঙ্কায় পড়ে দলটি। সেখান থেকে দলকে টেনে তোলার চেষ্টা করেন অধিনায়ক শানাকা।  শানাকা ৩৫ রানে ভর করে লঙ্কানরা ১০২ রান তোলে। কিউইদের পক্ষে বোল্ট ১৩ রানের বিনিময়ে ৪টি উইকেট নেন। এ ছাড়াও মিচেল স্যান্টনার ও ইশ সোধি ২টি এবং লোকি ফারগুসন ও সাউদি ১টি করে উইকেট শিকার করে নেন।

এর আগে টসে জিতে ব্যাটিং করা সিদ্ধান্ত নেয় নিউজিল্যান্ড।  মাত্র ১৫ রানের মধ্যে টপ অডারের তিন ব্যাটারকে হারিয়ে বিপাকে পড়ে নিউজিল্যান্ড। দলের এই ব্যাটিং বিপর্যয়ের মধ্যে ক্রিজে আসেন  গ্লেন ফিলিপস। চতুর্থ উইকেট জুটিতে ড্যারিল মিচেলকে সঙ্গে নিয়ে দলের হাল ধরার চেষ্টা করেন গ্লেন ফিলিপস। কিন্তু মাত্র ১২ রানে ক্যাচ তোলেন। কিন্তু লঙ্কার ফিল্ডাররা লুপে নিতে ব্যর্থ হন। এতে হাঁফ ছেড়ে বাঁচেন গ্লেন ফিলিপস, সঙ্গে নিউজিল্যান্ড। নতুন জীবন পেয়ে শুরু করেন ঝড়। সিই ঝড়ে উড়ে যায় শ্রীলঙ্কার বোলাররা। মাত্র ৬৪ বল মোকাবেলা করে ১০ চার ও চার ছক্কায় করেন ১০৪ রান, যা চলতি টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে প্রথম শতক।  

এর আগে সিডনি ক্রিকেট গ্রাউন্ডে এদিন টসে জিতে আগে ব্যাট করতে নামে নিউজিল্যান্ড। কিন্তু শ্রীলঙ্কান বোলারদের দাপটে ১৫ রানের মধ্যে ৩ উইকেট হারিয়ে বসে কিউইরা। প্রথম ওভারে ১ রান করা ফিন অ্যালেনকে ফেরান লঙ্কান স্পিনার মাহেশ থিকসানা। আরেক ওপেনার ডেভন কনওয়েও ১ রান করে ধনঞ্জয়া ডি সিলভার শিকার হন।  

তিনে নামা অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসন ১৩ বলে ৮ রান করে পেসার কাসুন রাজিথার বলে আউট হয়ে প্যাভিলিয়নের পথ ধরেন। তবে চতুর্থ উইকেটে ফিলিপসের সঙ্গে ৮৫ রানের জুটিতে মিচেল করেন ২২ রান।  

লঙ্কানদের পক্ষে পাঁচ বোলার উইকেট নিয়েছেন। যেখানে কাসুন রাজিথা দুটি এবং বাকি চারজন নেন ১টি করে উইকেট নেন।

news24bd.tv/হারুন