গাড়ি আমদানিতে মোংলা বন্দরে বাড়ছে রাজস্ব আয়
গাড়ি আমদানিতে মোংলা বন্দরে বাড়ছে রাজস্ব আয়

গাড়ি আমদানিতে মোংলা বন্দরে বাড়ছে রাজস্ব আয়

বাগেরহাট প্রতিনিধি

পদ্মাসেতু চালুর পর মোংলা বন্দরের মাধ্যমে গাড়ি আমদানি আরও বৃদ্ধি পেয়েছে। গাড়ি আমদানি খাতে মোংলা বন্দরে ২০০৯ সাল থেকে প্রতিবছরই রাজস্ব আদায়ের পরিমাণ উল্লেখযোগ্য হারে বেড়েই চলেছে। দেশে আমদানিকৃত রিকন্ডিশন গাড়ির প্রায় ৮০ভাগ গাড়িই এখন মোংলা বন্দর দিয়ে আমদানি করা হচ্ছে। গাড়ি আমদানির পর থেকে মোংলা বন্দর লাভজনক বন্দরে পরিণত হয়েছে।

সোমবার দুপুরে বন্দর কর্তৃপক্ষের সাথে রিকন্ডিশন গাড়ি ব্যবসায়ীদের বিদ্যমান সুবিধাসহ সমস্যাসমূহ নিয়ে আলোচনার সভায় এসব তথ্য তুলে ধরা হয়। এসময় দ্রুত মোংলা বন্দরের পশুর চ্যানেল ড্রেজিং কাজ শেষ করার কথা বলেন গাড়ি আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান বারবিডার নেতৃবৃন্দ।

আলোচনা সভায় বারবিডার সভাপতি হাবিবুল্লাহ ডন জানান, বন্দর প্রতিষ্ঠার ৬০ বছর পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বিশেষ নির্দেশনায় ২০০৯ সালে ৮ হাজার ৯০০টি গাড়ি আমদানির মাধ্যমে মোংলা বন্দরে গাড়ি আমদানি শুরু হয়। গাড়ি আমদানির পর থেকে মোংলা বন্দর লাভজনক বন্দরে পরিণত হয়।

এই ধারাবাহিকতায় বিগত বছরের সকল রেকর্ড ভেঙ্গে সর্বোচ্চ ২১ হাজার ৪০০টি গাড়ি আমদানি হয় এই বন্দর দিয়ে।

তিনি বলেন, দেশে আমদানিকৃত গাড়ির প্রায় ৮০ ভাগ গাড়িই এখন মোংলা বন্দর দিয়ে আমদানি করা হচ্ছে। রিকন্ডিশন গাড়ি আমদানি কারকদের কিছু সমস্যার কথাও তুলে ধরা হয় বারবিডার পক্ষ থেকে।

মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান রিয়ার এডমিরাল মোহাম্মদ মুসা জানান, পদ্মা সেতু উদ্বোধনের পর এখন মোংলা বন্দর থেকে ঢাকায় যেকোনো পণ্য পরিবহণে সময় লাগছে মাত্র ৩ থেকে ৪ ঘণ্টা। ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম বন্দরের দূরত্ব ২৬০ কিলোমিটার, সেখানে ঢাকা থেকে মোংলা বন্দরের দূরত্ব মাত্র ১৭০ কিলোমিটার। ফলে তুলনামূলক একটি গাড়ি বন্দর থেকে খালাসের পর খুবই কম সময়ে, স্বল্প খরচে ঢাকাসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে পৌঁছাতে সক্ষম হবে বিধায় মোংলা বন্দর ব্যবহার করে গাড়ি আমদানি উত্তরোত্তর বৃদ্ধি পাচ্ছে।

তিনি বলেন, গত অর্থ বছরে মোংলা বন্দরে গাড়ি আমদানি থেকে রাজস্ব আদায় হয়েছে ৩১৫ কোটি টাকা। এই অর্থ বছরের প্রথম ৬ মাসে ৭ হাজার ৫০০ গাড়ি এরই মধ্যে আমদানি হয়েছে। আমদানিকৃত গাড়ির শতভাগ নিরাপত্তার দায়িত্ব পালন করছে মোংলা বন্দরের। আপনাদের কোন ধরণের অভিযোগ থাকলে আমাকে সরাসরি বা লিখিত জানাবেন, সাথে সাথে ব্যবস্থা নেবো।

আলোচনা সভায় গাড়ি আমদানি কার্যক্রমের বিষয়টি অগ্রাধিকার দেয়া হয়েছে বলেও জানান মোংলা বন্দর চেয়ারম্যান।

গাড়ি আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান বারবিডার নেতৃবৃন্দের সাথে বৈঠকে মোংলা বন্দর কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান রিয়ার এডমিরাল মোহাম্মদ মুসা, গাড়ি আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান বারবিডার সভাপতি হাবিবুল্লাহ ডনসহ বন্দরের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা ছাড়াও ব্যবসায়ীরা উপস্থিত ছিলেন।

news24bd.tv/FA