যেকোনো দুর্যোগে মানুষের পাশে থাকে ছাত্রলীগ: শেখ হাসিনা
যেকোনো দুর্যোগে মানুষের পাশে থাকে ছাত্রলীগ: শেখ হাসিনা

ছাত্রলীগের সমাবেশে বক্তব্য দিচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

যেকোনো দুর্যোগে মানুষের পাশে থাকে ছাত্রলীগ: শেখ হাসিনা

অনলাইন ডেস্ক

যেকোনো দুর্যোগের ছাত্রলীগ মানুষের পাশে থাকে বলে মন্তব্য করেছেন প্রধামন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, ‘করোনাকালীন কৃষকরা ধান কাটা নিয়ে সংকটে পড়ে। তখন আমি ছাত্রলীগকে কৃষকদের পাশে দাঁড়াতে বলি, তারা তখন কৃষকের ধান কেটে দিয়ে তাদের পাশে দাঁড়ায়। যেকোনো দুর্যোগে মানুষের পাশে থাকে ছাত্রলীগ।

’  

মঙ্গলবার (৬ ডিসেম্বর) দুপুরে রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ছাত্রলীগের ৩০তম সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।  

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশের ইতিহাস ছাত্রলীগের ইতিহাস। বিএনপি ও জাতীয় পার্ট দেশের জন্য কিছু করেনি। দেশের জন্য যা করেছে, তা আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ  করেছে।

আওয়ামী লীগ গণতন্ত্রে বিশ্বাস কর মন্তব্য করে শেখ হাসিনা বলেন, ‘ভোট চুরির কালচার সৃষ্টি করেছিল জিয়াউর রহমান। হ্যাঁ-না ভোট, ৭৭ এর রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে ভোট চুরি করা হয়। অন্যদিকে আওয়ামী লীগ সব সময় গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে। ভোটের রাজনীতিতে বিশ্বাস করে। ভিন্ন পথে ক্ষমতায় আসতে চায় না। ’ 

জিয়াউর রহমান ও এরশাদের আমলে শিক্ষার পরিবেশ নষ্ট করা হয়ে বলে মন্তব্য করেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, জিয়াউর রহমান ক্ষমতায় আসার পর শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে শিক্ষার্থীদের হাতে অস্ত্র তুলে দেওয়া হয়। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে অস্ত্রের ঝনঝনানি।  এরশাদ ও খালেদা জিয়ার আমলেও এটা অব্যাহত ছিল। পরে আমি ‘৯৬ সালে ক্ষমতা গ্রহণের পর শিক্ষার্থীদের হাতে বই, খাতা, কলম তুলে দিয়েছিলাম। ’    

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের কথা উল্লেখ করে শেখ হাসিনা বলেন,  ‘একটি যুদ্ধ বিধ্বস্ত দেশ, কোনো রিজার্ভ ছিল না। এই অবস্থায় দেশকে এগিয়ে নেন বঙ্গবন্ধু। বাংলাদেশকে জাতিসংঘ স্বল্পোন্নত দেশ হিসেবে স্বীকৃতি দেয়। ’  

আরও পড়ুন...

ভোট চুরির কালচার সৃষ্টি করেছিল জিয়াউর রহমান: প্রধানমন্ত্রী

আওয়ামী লীগ জনগণে-গণতন্ত্রে বিশ্বাস করে: প্রধানমন্ত্রী

news24bd.tv/ইস্রাফিল