শিষ্যদের রক্ষা কবজ হয়ে গণমাধ্যম সামলালেন স্প্যানিশ কোচ
শিষ্যদের রক্ষা কবজ হয়ে গণমাধ্যম সামলালেন স্প্যানিশ কোচ

সংগৃহীত ছবি

শিষ্যদের রক্ষা কবজ হয়ে গণমাধ্যম সামলালেন স্প্যানিশ কোচ

অনলাইন ডেস্ক

ম্যাচের আগের দিন সংবাদ সম্মেলনে ফুটবলারদের ১০০০ পেনাল্টি শট অনুশীলনের কথা শুনিয়েছিলেন স্প্যানিশ কোচ লুইস এনরিকে। সেই পরীক্ষাটাও দিতে হলো সাথে সাথেই। তবে সেই পরীক্ষার পূর্ণ প্রস্তুতি থাকার পরও দুর্ভাগ্যবশত পাস করতে পারেনি এনরিকের শিষ্যরা। মরক্কোর বিপক্ষে টাইব্রেকে তার দল হেরেছে ৩-০ ব্যবধানে।

আর তাতেই বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিশ্চিত হয়েছে স্পেনের।

এদিন নির্ধারিত সময়ে একাধিকবার আক্রমণে গিয়েও একটি গোল আদায় করতে পারেনি ২০১০ বিশ্বকাপ জয়ীরা। বিপরীতে স্পেনের আক্রমণ সামলে মুনশিয়ানা দেখিয়েছে মরক্কোর রক্ষণভাগ। অথচ কাতার বিশ্বকাপ স্বপ্নের মতো শুরু করেছিল স্পেন।

বিশ্বকাপ যাত্রার শুরুর দিনে কোস্টা রিকাকে ৭-০ গোলে উড়িয়ে দিয়েছিল তারা।

সেই স্পেন একটি গোলও করতে পারেনি এদিন। নির্ধারিত সময়ে গোল শূন্য ড্র’ থাকার পর ম্যাচ গড়ায় অতিরিক্ত সময়ে। সেখানেও কাঙ্ক্ষিত গোলের দেখা পায়নি এনরিকের দল। খেলা গড়ায় টাইব্রেকে। সবাই প্রত্যাশা করেছিল এনরিকের কথা অনুযায়ী; এখানে গোল উৎসবে মাতবে তার শিষ্যরা। না, শেষ পর্যন্ত সেটি হয়নি। এখানেও ব্যর্থ হয়েছে তার দল। দলের এমন হারের পর ফুটবলারদের সমালোচনায় মেতেছেলিনে স্পেনের ক্রীড়া সাংবাদিকরা। তবে, ঢাল হয়ে শিষ্যদের রক্ষা করেছেন এনরিকে।

সাংবাদিকদের উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, ‘আপনি কি খেলা দেখেছেন? কোথায় ছিলেন, পিছন ফিরে? আমরা যদি কিছু করে থাকি, তা হলো খেলায় আধিপত্য বিস্তার করেছি। কিছু সুযোগ তৈরি করার জন্য আমাদের দোষ দেওয়া যেতে পারে। আমাদের লক্ষ্যের অভাব ছিল। তবে আমার দল যা করেছে তাতে আমি বেশ সন্তুষ্ট। তারা ফুটবল সম্পর্কে আমার ধারণা পুরোপুরি বাস্তবায়ন করেছে। আমি তাদের নিয়ে গর্বিত। বোনো দর্শনীয় ছিল এবং আমি মরক্কোর সেরা কামনা করি। ’

ফুটবলার নির্বাচনে কোন ভুল হয়েছে কিনা কিংবা স্পেনের কিছু অভাব আছে কিনা জানতে চাইলে এনরিকে বলেন, ‘আমার যে খেলোয়াড়দের প্রোফাইল আছে তাতে আমি খুব খুশি। তাদের আমিই বেছে নিয়েছি এবং আমি তাদের সাথে মৃত্যুর দিকে যাব। আমি আমার খেলোয়াড়দের অভিনন্দন জানাই, তারা আসরে প্রতিযোগিতা করেছে। ভক্তদের পুরস্কৃত করতে না পারার জন্য আমরা দুঃখিত। ’

ম্যাচের ১১৮ মিনিটে টাইব্রেকের জন্য মাঠে নেমে আক্রমণে মরক্কোকে কাঁপিয়ে দেয় পাবলো সারাবিয়া। শেষ দিকে সারাবিয়ার একটি নিশ্চিত গোল পোস্টে বাধা পেয়ে ফিরে আসে। তাতে খেলা গড়ায় টাইব্রেকে। আর সেখানেও শট নিয়ে দলকে গোল এনে দিতে ব্যর্থ হয়েছেন সারাবিয়া। এবারও তার শট বাধা পায় পোস্টে। তবে তাকে আরও বেশি সময় না খেলানোর আক্ষেপ আছে এনরিকের।

তিনি বলেন, ‘এটা খেলা। খেলোয়াড়রা আমার দেওয়া নির্দেশের ১০০% পালন করেছে। কিন্তু এখন এটা নিয়ে আর চিন্তা করে লাভ নেই। আমার খেলোয়াড়দের তিরস্কার করার কিছু নেই। আমার শুধু একজন খেলোয়াড়ের জন্য আফসোস আছে, পাবলো সারাবিয়া। আমি তাকে পেনাল্টি নিতে বাধ্য করি এবং সে মাঠে নেমেই আমাকে দুটি গোলের সুযোগ দেয়। এটি একটি ভুল ছিল, সে আমাকে দেখিয়েছে, এই ম্যাচে সে আরও মিনিট প্রাপ্য ছিল। ’

news24bd.tv/আমিরুল