গোলাপবাগ মাঠ সম্পর্কে যা জানাল ডিএসসিসি
গোলাপবাগ মাঠ সম্পর্কে যা জানাল ডিএসসিসি

সংগৃহীত ছবি

গোলাপবাগ মাঠ সম্পর্কে যা জানাল ডিএসসিসি

অনলাইন ডেস্ক

রাজধানীর সায়েদাবাদ এলাকায় গোলাপবাগ মাঠটি ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি) আওতাধীন। এই মাঠে রাজনৈতিক সমাবেশ আয়োজনে বিএনপি'র কাছ থেকে এখন পর্যন্ত কোনও আবেদন পাওয়া যায়নি, আবেদন পাওয়ার পরেই এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত জানাবে সংস্থাটি।

শুক্রবার (৯ ডিসেম্বর) বিকালে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) জনসংযোগ কর্মকর্তা আবু নাছের এ তথ্য জানান।

এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ডিএসসিসি জানায়, গোলাপবাগ খেলার মাঠের উন্নয়নে ‘ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের বিভিন্ন অবকাঠামো উন্নয়ন (মেগা)’ শীর্ষক একটি প্রকল্প চলমান রয়েছে।

প্রকল্পের আওতায় গোলাপবাগ খেলার মাঠে সীমানা প্রাচীর ও বেষ্টনী, প্যাভিলিয়ন, ড্রেসিং রুম, বাস্কেটবল গ্রাউন্ড, নর্দমা, হাঁটার পথ, পাঠাগার ভবন (লাইব্রেরি বিল্ডিং), বাজার (মার্কেট বিল্ডিং) ইত্যাদি অনুষঙ্গের উন্নয়নসহ গোলাপবাগ খেলার মাঠকে শুধু খেলাধুলার জন্য প্রস্তুত করা হয়েছে।  

মাঠের উন্নয়নে প্রকল্পের কাজ চলমান রয়েছে, যা প্রায় সমাপ্তির পথে উল্লেখ করে বিজ্ঞপ্তিতে আরও বলা হয়, শিগগিরই এই মাঠ উদ্বোধনে তারিখ নির্ধারণ করার পর্যায়ে রয়েছে। সুতরাং প্রকল্পের এই পর্যায়ে গোলাপবাগ খেলার মাঠে রাজনৈতিক সমাবেশ আয়োজন করা হলে রাষ্ট্রীয় সম্পদ বিনষ্ট হওয়ার আশঙ্কা রয়েছে।

এদিকে শুক্রবার (৯ ডিসেম্বর) দুপুরে ঢাকা মহানগর পুলিশের (ডিএমপি) ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে বৈঠকের পর বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেন জানান, বিএনপিকে গোলাপবাগ মাঠে সমাবেশ করার অনুমতি দিয়েছে ডিএমপি।

বিএনপির মিডিয়া সেলের আহ্বায়ক জহির উদ্দিন স্বপন বলেন, আমাদের দলের ভাইস চেয়ারম্যান ডা. এ জেড এম জাহিদ হোসেনকে মৌখিকভাবে বলা হয়েছে গোলাপবাগ মাঠের কথা। এখনও কাগজ দেয়নি।

বৈঠক থেকে বের হয়ে ডা. জাহিদ হোসেন বলেন, আগামীকাল শনিবার বিএনপির ঢাকা বিভাগীয় গণসমাবেশ গোলাপবাগ মাঠে হবে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কাছে আমরা গোলাপবাগ মাঠ ব্যবহার ও মাইক ব্যবহারের অনুমতি চেয়ে চিঠি দেই। পুলিশ কর্মকর্তা হারুন অর রশীদ জানিয়েছেন, গোলাপবাগ মাঠ ব্যবহার করার প্রস্তুতি নিন। তারা সার্বিক নিরাপত্তার ব্যবস্থা করবেন বলে জানিয়েছেন।

news24bd.tv/আলী