সোমবার, ১ জুন, ২০২০ | আপডেট ৩৫ মিনিট আগে

‘ক্ষমতা পাকাপোক্ত করতেই ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা চালানো হয়েছিল’

নিজস্ব প্রতিবেদক

‘ক্ষমতা পাকাপোক্ত করতেই ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা চালানো হয়েছিল’

খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম [ফাইল ছবি]

খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম বলেছেন, ক্ষমতাকে পাকাপোক্ত করার উদ্দেশ্যেই রাষ্ট্রীয় পৃষ্ঠপোষকতায় ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট জননেত্রী শেখ হাসিনার ওপর গ্রেনেড হামলা করা হয়েছিল। আগস্ট মাস এলেই বিএনপি-জামায়াত নতুন নতুন ষড়যন্ত্র শুরু করে।  

আজ (২৭ আগস্ট, সোমবার) সকাল ১১টায় জাতীয় প্রেস ক্লাবে প্রয়াত আওয়ামী লীগ নেত্রী বেগম আইভী রহমানের ১৪তম মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষ্যে “বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট” কর্তৃক আয়োজিত এক স্মরণসভায় তিনি এসব কথা বলেন।

খাদ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বেগম আইভী রহমান ছিলেন নারীদের প্রিয় নেত্রী। ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলায় আইভী রহমানসহ ২৪ জন নেতা-কর্মী শহীদ হন এবং অনেকে আহত হন। আইএস-এর পৃষ্ঠপোষকতায় এই গ্রেনেড হামলা সংগঠিত করা হয়েছিল।’ 

মন্ত্রী আরও বলেন, ‘এই ঘটনাকে ধামাচাপা দেওয়ার জন্য তৎকালীন সরকার ‘জজ মিয়া নাটক’ মঞ্চস্থ করেছিল। এখন এই মামলার যুক্তি-তর্ক চলছে। আশা করছি, আগামী সেপ্টেম্বরেই আমরা প্রত্যাশিত রায় পাবো।’
 
সাম্প্রতি বেগম খালেদা জিয়ার সঙ্গে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সাক্ষাতের বিষয়ে খাদ্যমন্ত্রী বলেন, ‘এই সরকার গণতান্ত্রিকমনা বলেই মির্জা ফখরুল বেগম জিয়ার সঙ্গে এক ঘণ্টা কথা বলার সুযোগ পেয়েছেন।’
   
বিএনপিকে সতর্ক করে দিয়ে মন্ত্রী বলেন, ‘ষড়যন্ত্র করতে আপনারা সিদ্ধহস্ত। আবার যদি ষড়যন্ত্র করেন, অগ্নি সন্ত্রাস করেন, দেশকে ধ্বংসের দিকে ঠেলে দেন- তবে এবার তা সহ্য করা হবে না। জনগণই তা প্রতিহত করবে।’

‘সামনে নির্বাচন। মুক্তিযুদ্ধের পক্ষের শক্তির জন্য এটা একটা চ্যালেঞ্জ। সকল ষড়যন্ত্রের বিরুদ্ধে সজাগ থাকতে হবে এবং নির্বাচনের জন্য প্রস্তুতি গ্রহণ করতে হবে’- যোগ করেন মন্ত্রী কামরুল।
 
স্মরণসভায় আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক ড. হাছান মাহমুদ বলেন, ‘প্রকৃতপক্ষে পুরো আওয়ামী লীগকে নিশ্চিহ্ন করার উদ্দেশ্যেই ২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলা করা হয়েছিল। 

বিএনপি-জামায়াতকে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, ‘ষড়যন্ত্রের পথ পরিহার করে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করে জনপ্রিয়তা যাচাই করুন।’

অরুণ সরকার রানার সঞ্চালনায় এবং চিত্ত রঞ্জন দাসের সভাপতিত্বে স্মরণসভায় আরও উপস্থিত ছিলেন বিএফইউজে-এর সভাপতি মোল্লা জালাল, ডিইউজে-এর সভাপতি আবু জাফর সূর্য্য ও সাধারণ সম্পাদক সোহেল হায়দার চৌধুরীসহ আরও অনেকে।


অরিন/নিউজ টোয়েন্টিফোর

মন্তব্য