দ্বিতীয়বারের মতো রংপুরের নগরপিতা মোস্তফা
দ্বিতীয়বারের মতো রংপুরের নগরপিতা মোস্তফা

দ্বিতীয়বারের মতো রংপুরের নগরপিতা মোস্তফা

অনলাইন ডেস্ক

রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে বিপুল ভোটে জয়ী হয়েছেন মোস্তাফিজার রহমান মোস্তফা। ফলে টানা দ্বিতীয়বারের মতো নগরপিতা হলেন জাতীয় পার্টি (এরশাদ) সমর্থিত এই প্রার্থী। ২২৯টি কেন্দ্রের ভোট গণনা শেষে এক লাখ ৪৬ হাজার ৭৯৮ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়েছেন তিনি।

তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশের মেয়র প্রার্থী মোহাম্মদ আমিরুজ্জামান পেয়েছেন ৪৯ হাজার ৮৯২ ভোট।

৩৩ হাজার ৮৮৩ ভোট পেয়ে তৃতীয় হয়েছেন আওয়ামী লীগের বহিস্কৃত নেতা লতিফুর রহমান মিলন। চতুর্থ হয়েছেন নৌকার প্রার্থী হোসনে আরা লুৎফা ডালিয়া। তিনি ভোট পেয়েছেন ২২ হাজার ৩০৬।

মঙ্গলবার (২৭ ডিসেম্বর) রাত ১২টায় রংপুর শিল্পকলা একাডেমি নির্বাচনি নিয়ন্ত্রণ কক্ষ থেকে মোস্তাফিজার রহমানকে বেসরকারিভাবে বিজয়ী ঘোষণা করেন সিটি করপোরেশন নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা আবদুল বাতেন।

এর আগে মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৮টায় ভোটগ্রহণ শুরু হয়। চলে বিকাল সাড়ে ৪টা পর্যন্ত। এরপর জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে শুরু হয় ভোটের ফল ঘোষণা। সবকটি কেন্দ্রেই ইভিএমে ভোট হয়েছে।

এই নির্বাচনে মোট ভোটার চার লাখ ২৬ হাজার ৪৬৯ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার দুই লাখ ১২ হাজার ৩০২ বাকি দুই লাখ ১৪ হাজার ৪৬৯ নারী ভোটার। ভোট কেন্দ্রের সংখ্যা ২২৯টি। মোট ওয়ার্ড ৩৩টি।

জানা গেছে, রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র, কাউন্সিলর ও সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলরসহ মোট প্রার্থী ২৫১ জন। এর মধ্যে ৯ জন মেয়র পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন। এছাড়া ১১টি ওয়ার্ডে সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে ৬৮ জন ও সাধারণ কাউন্সিলর প্রার্থী ১৮৩ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন।

সম্পর্কিত খবর