যুবলীগ নেতার মরদেহ নিয়ে বিক্ষোভ, গ্রেপ্তার ৪
যুবলীগ নেতার মরদেহ নিয়ে বিক্ষোভ, গ্রেপ্তার ৪

যুবলীগ নেতার মরদেহ নিয়ে বিক্ষোভ, গ্রেপ্তার ৪

অনলাইন ডেস্ক

পাবনার চাটমোহর উপজেলায় জমি নিয়ে বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত যুবলীগ নেতা আনিসুর রহমানের মরদেহ নিয়ে বিক্ষোভ মিছিল করেছে স্থানীয়রা। ইতোমধ্যে এ ঘটনায় চারজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

শনিবার (৩১ ডিসেম্বর) দুপুরে ময়নাতদন্ত শেষে নিহতের মরদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়। এ সময় মরদেহ নিয়ে বিক্ষোভ করেন স্বজন-এলাকাবাসী।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলো, প্রভাকরপাড়া গ্রামের মৃত আব্দুল হামিদ সরদারের ছেলে জাকিরুল সরদার (৪০) ও জাহিদুল সরদার (৩৬), মৃত বাহের উদ্দিনের ছেলে আইনুল হক (৬৫) ও তার ছেলে কাওসার হোসেন ওরফে সারোয়ার (২৮)।

জানা যায়, উপজেলার পার্শ্বডাঙ্গা ইউনিয়নের প্রভাকরপাড়া গ্রামের আয়নাল হক ও আনিসুর রহমানের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে জমি নিয়ে বিরোধ চলছিল। বিরোধপূর্ণ সেই জায়গা নিজের দাবি করে শুক্রবার (৩০ ডিসেম্বর) দুপুরে আনিসুর রহমান সীমানা প্রাচীর দেওয়ার সময় আয়নাল হক ও তার লোকজন হামলা চালায়। এতে আনিসসহ কমপক্ষে ছয়জন আহত হন।

পরে গুরুতর আহত অবস্থায় আনিসকে চাটমোহর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন।

স্থানীয়রা জানান, শনিবার দুপুরে বিক্ষোভ মিছিলটি চাটমোহরের নতুন বাজার থেকে শুরু হয়ে পার্শ্বডাঙ্গা ইউনিয়নের প্রভাকরপাড়া গ্রামে গিয়ে শেষ হয়। এ সময় বিক্ষোভ মিছিল থেকে হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত সবাইকে দ্রুত গ্রেপ্তার করে আইনের আওতায় এনে ফাঁসির দাবিতে স্লোগান দেওয়া হয়।

চাটমোহর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জালাল উদ্দিন জানান, এ ঘটনার পর নিহত পার্শ্বডাঙ্গা ইউনিয়ন যুবলীগের সহ-সভাপতি আনিসুর রহমান আনিসের ছেলে মিজানুর রহমান বাদী হয়ে ১৩ জনকে আসামি করে শুক্রবার (৩০ ডিসেম্বর) রাতে মামলা করেছেন। পরে একই দিন রাতে অভিযান চালিয়ে চারজনকে গ্রেপ্তার করা হয়। তবে গ্রেপ্তারকৃত ব্যক্তিদের শনিবার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে।

news24bd.tv/কামরুল