সোমবার, ১৮ নভেম্বর, ২০১৯ | আপডেট ০২ মিনিট আগে

নতুন নম্বর সিরিজে আসছে ৩ কোটি সিম

নিউজ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক

নতুন নম্বর সিরিজে আসছে ৩ কোটি সিম

বর্তমানে যে নম্বর সিরিজ আছে, তা প্রায় শেষ হয়ে আসায় নতুন নম্বর সিরিজে ৩ কোটি সিম কার্ডের অনুমোদন দিয়েছে বাংলাদেশ টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রণ কমিশন (বিটিআরসি)। এর মধ্যে রয়েছে গ্রামীণফোনের ২ কোটি ও বাংলালিংকের ১ কোটি সিম।

প্রাপ্ত তথ্যমতে, বিটিআরসির অনুমোদিত ০১৩০ ও ০১৩১ নম্বর সিরিজের প্রতিটিতে এক কোটি করে মোট ২ কোটি সিম পাবে গ্রামীণফোন। অর্থাৎ অনুমোদিত সিরিজের বাইরে অন্য কোনো নতুন নম্বর সিরিজ ব্যবহার করতে পারবে না প্রতিষ্ঠানটি। 

অন্যদিকে, ১ কোটি সিমের অনুমোদন পেয়েছে বাংলালিংক। প্রতিষ্ঠানটির নতুন নম্বর সিরিজ দেওয়া হয়েছে ০১৪০, যদিও বাংলালিংক আবেদন করেছিল ০১০ সিরিজের জন্য। 

নতুন এই নম্বর সিরিজের জন্য গ্রামীণফোনবাংলালিংককে কোনো ফি দিতে হচ্ছে না। যদিও অন্যান্য দেশে নতুন নম্বর সিরিজের জন্য ফি নিয়ে থাকে নিয়ন্ত্রক সংস্থা।

গ্রামীণফোনের প্রধান কর্পোরেট কর্মকর্তা মাহমুদ হোসেন বলেন, ‘আমরা নিয়ন্ত্রণ সংস্থার থেকে এ বিষয়ে চিঠি পেয়েছি। নতুন নম্বর সিরিয়ালের দুটি সিরিয়াল পেয়েছি। গ্রাহকরা এখন তাদের পছন্দমতো সিম সংগ্রহ করতে পারবেন। নতুন সিরিয়ালের সিমগুলো বাজারে ছাড়তে দ্রুত পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।’

বাংলালিংকের চিফ কর্পোরেট অ্যান্ড রেগুলেটরি অ্যাফেয়ার্স অফিসার তৈমুর রহমান বলেন, ‘এতদিন গ্রাহকরা তাদের পছন্দমতো নম্বর সংগ্রহ করতে সমস্যায় পড়তেন। নতুন নম্বর সিরিজের অনুমোদন পাওয়ায় গ্রাহকরা এখন তাদের পছন্দমতো নম্বর সংগ্রহ করতে পারবেন। আমরা যত দ্রুত সম্ভব নতুন সিরিয়ালের সিমগুলো বাজারজাত করবো।’

উল্লেখ্য, এর আগের বিটিআরসির কমিশন বৈঠকে গ্রামীণফোনকে ০১৩ সিরিজে মাত্র ২০ লাখ সিম বরাদ্দ দেওয়ার খসড়া সিদ্ধান্ত হলেও সংখ্যাবিভ্রাট হওয়ায় তা আর বাস্তবায়িত হয়নি। পরে আগস্টের শুরুতে এক বৈঠকে প্রধানমন্ত্রীর তথ্যপ্রযুক্তি উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয় দুই অপারেটরকে একটি করে নতুন নম্বর সিরিজ বরাদ্দ করার সিদ্ধান্ত দেন।

গেল বুধবারের (৫ সেপ্টেম্বর) কমিশন বৈঠকে আগের খসড়া সংশোধন করে নতুন করে দুটি অপারেটরের জন্য ৩ কোটি নতুন নম্বর সিরিজের অনুমোদন দেয় নিয়ন্ত্রণ সংস্থা। বর্তমানে অপারেটর দুটি যথাক্রমে ০১৭ এবং ০১৯ ব্যবহার করছে। 

৩ বছর ধরে গ্রামীণফোন তাদের ১০ কোটির কোটা পূরণ হওয়ার কথা বলে আরও একটি নম্বর সিরিজ বরাদ্দের দাবি করে আসছিল।অন্যদিকে, ২০১৬ সালের প্রথম দিকে নতুন নম্বর সিরিয়ালের দাবি তোলে বাংলালিংক। 



অরিন▐ NEWS24

মন্তব্য