১৪ নভেম্বর , বুধবার, ২০১৮

শিরোনাম

> বাংলাদেশ

>> অপরাধ

 

নিউজ টোয়েন্টিফোর ডেস্ক

১২ সেপ্টেম্বর , বুধবার, ২০১৮ ২০:৪০:০৬

শপিং করতে গিয়ে মাদক কারবারীর সাথে পরিচয়, অতঃপর...


শপিং করতে গিয়ে মাদক কারবারীর সাথে পরিচয়, অতঃপর...

এক নারী মাদকসেবী


বছর দুয়েক আগে ঢাকা নিউ মার্কেটে কেনাকাটা করতে যান গৃহবধূ সাদিয়া ইসলাম মায়া। সেখানে দুই নারীর সাথে পরিচয় হয় তার। ফোন নম্বরও আদান-প্রদান হয়। কিন্তু এই পরিচয় যে সাদিয়ার জীবনকে অন্ধকারে ঠেলে দিবে তখন তা ঘুনাক্ষরেও বুঝতে পারেননি সাদিয়া। গৃহবধূ সাদিয়া এখন আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে আটক। তিনি এখন ঢাকা শহরের শীর্ষ মাদক সম্রাজ্ঞী।

কীভাবে সাদিয়া এই অন্ধকার জগতে পা বাড়ালেন? সেই ঘটনা অনেকটা সিনেমার মতো। অর্থ-বিত্তের আকাঙ্ক্ষা সবারই থাকে। ছিল সাদিয়ারও। কেউ সৎ পথে দীর্ঘদিন পরিশ্রম করে সম্পদ গড়েন, কেউ অসৎ সঙ্গে পড়ে সহজে টাকা বানাতে খুঁজে নেন বিপজ্জনক অবৈধ পথ। সাদিয়াও তেমন 'শর্টকাট' বিপজ্জনক পথ খুঁজে পেয়েছিলেন নিউ মার্কেট এলাকায় পরিচয় হওয়া দুই নারীর সঙ্গে পরিচয়ের পর। ওই দুই নারীই জড়িত ছিল মাদক ব্যবসার সঙ্গে। তারা পরিচয়ের পর থেকেই সাদিয়ার সঙ্গে নিয়মিত ফোনে যোগাযোগ করতে শুরু করেন। মাদক ব্যবসায় নগদ টাকা, অল্প সময়ে বিত্তবান হওয়ার গল্প দুই মাদক কারবারীর কাছ থেকে প্রায়ই শুনতো সাদিয়া। একটা সময় ওই দুই মাদক কারবারী সাদিয়া ওরফে মায়াকে মাদক ব্যবসায় যোগ দেওয়ার প্রস্তাব দেয় এবং মাদকের চালান পেতে সহযোগিতারও আশ্বাস দেয়। কাচা টাকার লোভ সামলাতে পারেননি সাদিয়া। একপর্যায়ে মাদক কারবারীর খাতায় নাম লেখান। সেই থেকে শুরু সাদিয়ার অন্ধকার জগতে পথচলা।

এক সময় পুলিশের খাতায় নাম ওঠে সাদিয়ার। মাদক ব্যবসা করতে গিয়ে মাঝে মধ্যে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে ধরাও পড়তে হয়েছে তাকে। জেলও খাটতে হয়েছে। তবে অধিকাংশ সময়ই আইনের ফাঁক গলে বেরিয়ে আসে সে। ফের একই কাজে নেমে পড়ে। দীর্ঘদিন ধরে রাজধানীর বাড্ডা এলাকায় থেকে ইয়াবাসহ বিভিন্ন মাদকের অন্যতম নেটওয়ার্ক হিসেবে কাজ করছিলেন সাদিয়া। সর্বশেষ আজ (১২ সেপ্টেম্বর, বুধবার) দুপুরে সহযোগীসহ ফের ধরা পড়েছে বাড্ডা এলাকার শীর্ষ এই মাদক সম্রাজ্ঞী।

র‌্যাব-৩ এর কোম্পানি কমান্ডার লেফটেন্যান্ট আশিকুর রহমান বলেন, ‘বুধবার বাড্ডা এলাকার ১৩ নম্বর রোডের ‘সি’ ব্লকের একটি বাসা থেকে সাদিয়া ও তার সহযোগী মুহাম্মদ কাইয়ুম খানকে গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে ১০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়েছে।’ 

‘গোপন সূত্রে র‌্যাব জানতে পারে, সাদিয়ার বাড্ডার বাসায় ইয়াবার বড় একটি চালান এসেছে। সেই সংবাদের ভিত্তিতে অভিযান চালানো হয়। সাদিয়া দীর্ঘ দিন ধরে চট্টগ্রাম থেকে ইয়াবা এনে ব্যবসা করতো। বাড্ডা ও ভাটারা থানায় তার নামে মামলা রয়েছে। এর আগে জেলও খেটেছে সে। জেল থেকে বের হয়ে ফের একই পেশায় যুক্ত হয়েছে সে’- জানান র‌্যাব কর্মকর্তা আশিকুর রহমান।

র‌্যাব জানায়, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে জানা গেছে, বেশ কয়েক বছর আগে কাইয়ুম ও সাদিয়ার পরিবার একই ভবনে ভাড়া থাকতো। সেই সুবাদে তাদের পরিচয়। তবে মাঝে কাইয়ুম লন্ডনে চলে যায়। বছর দুয়েক আগে সে দেশে ফেরে। দেশে আসার পর সাদিয়া কাইয়ুমকে মাদক ব্যবসায় যুক্ত করে। তাদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট ধারায় মামলা করে পুলিশে হস্তান্তর করা হবে।


অরিন▐ NEWS24


হামাসের ক্ষেপণাস্ত্রে ইসরাইলের সেনাবাস ভস্মীভূত
'মহাজোট থেকে জাতীয় পার্টি নির্বাচনে অংশ গ্রহণ'
'ক্ষমতার জোরে' অন্যের কৃষি জমি থেকে বালু উত্তোলনের অভিযোগ
আ.লীগ বিএনপির প্রার্থী যাচাই-বাছাই হবে যেভাবে
'বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় এমপি হলে দুঃখ লাগে'
তাইজুলের ৫ উইকেট, বাংলাদেশ এগিয়ে ২১৮ রানে
অবশেষে শুরু হচ্ছে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন
৫৪ দিন পর ফিরলেন নিখোঁজ ১৫ জেলে
বুধবার ইসি কার্যালয়ে যাবে ঐক্যফ্রন্ট
স্বতন্ত্র প্রার্থী হচ্ছেন ইমরান এইচ সরকার
রাস্তায় ফেলে যাওয়া সেই বৃদ্ধাকে মারা গেছেন 
'নির্বাচন আর পেছানোর সুযোগ নেই'
ঐক্যফ্রন্টের জরুরি বৈঠক চলছে
অ্যামনেস্টির পুরস্কার হারালেন সু চি
বিএনপির কাছে ১০০ আসন চাচ্ছেন শরিকরা
সাভারে 'বন্দুকযুদ্ধে' ডাকাত নিহত
নির্বাচন করতে রাজি নন ড. কামাল
 নৌপথ খনন প্রটোকল মন্ত্রিসভায় অনুমোদন
খালেদা জিয়ার প্রার্থীতা নিয়ে অনিশ্চয়তা
সেরা করদাতার সম্মাননা পেল ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ
হামাসের ক্ষেপণাস্ত্রে ইসরাইলের সেনাবাস ভস্মীভূত
'মহাজোট থেকে জাতীয় পার্টি নির্বাচনে অংশ গ্রহণ'
খাসোগি হত্যায় ফেঁসে যাচ্ছেন যুবরাজ সালমান!
সুনামগঞ্জে অধ্যক্ষের অপসারণ দাবিতে এলাকাবাসীর প্রতিবাদ সভা
নির্বাচন নিয়ে খুলনা বিএনপি'র দাবি
'ক্ষমতার জোরে' অন্যের কৃষি জমি থেকে বালু উত্তোলনের অভিযোগ
প্রচার-প্রচারণা বন্ধ রাখতে ইসির নির্দেশ
নিউইয়র্কে শামস আল মমীনের একক কবিতা সন্ধ্যা
আ.লীগ বিএনপির প্রার্থী যাচাই-বাছাই হবে যেভাবে
'বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় এমপি হলে দুঃখ লাগে'
তাইজুলের ৫ উইকেট, বাংলাদেশ এগিয়ে ২১৮ রানে
চাঁপাইনবাবগঞ্জে সম্প্রীতি বাংলাদেশের সমাবেশ
হুমায়ূন আহমদের জন্মদিনে নুহাশ পল্লীতে কেক কাটলেন শাওন
প্রতিবন্ধী কিশোরীকে চকলেটের লোভ দেখিয়ে ধর্ষণ 
অবশেষে শুরু হচ্ছে রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন
৫৪ দিন পর ফিরলেন নিখোঁজ ১৫ জেলে
বুধবার ইসি কার্যালয়ে যাবে ঐক্যফ্রন্ট
স্বতন্ত্র প্রার্থী হচ্ছেন ইমরান এইচ সরকার
রাস্তায় ফেলে যাওয়া সেই বৃদ্ধাকে মারা গেছেন 
'নির্বাচন আর পেছানোর সুযোগ নেই'
ইতালিতে সন্তান হলে জমি পুরস্কার
নির্বাচন করবেন হিরো আলম!
৩০ ডিসেম্বর নির্বাচন ‘উদ্দেশ্যপ্রণোদিত’: রব
বিএনপিকে চাঙ্গা করতে আসছেন জোবাইদা
মাশরাফির নির্বাচন নিয়ে যা বললেন তার বাবা
নিজের মেয়েকে ধর্ষণের দায়ে পিতা গ্রেপ্তার
নির্বাচনের তারিখ চূড়ান্ত করেছে ইসি!
জিম্বাবুয়েতে দুই বাসের সংঘর্ষে নিহত ৪৭
মৃত্যুর আগে যে কথা বলেন খাসোগি
আওয়ামী লীগের মনোনয়নপত্র কিনবেন মাশরাফি
সংসদ নির্বাচনে যাচ্ছে জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট
বিএনপির কাছে ১০০ আসন চাচ্ছেন শরিকরা
চাঁদা চাওয়া সেই এসআই বরখাস্ত
খাসোগি হত্যাকাণ্ডে ইসরায়েলি প্রযুক্তি
২০ দল বেড়ে হলো ২৩ দলীয় জোট
ট্রাম্পের হার
একসঙ্গে দুই বোনের আত্মহত্যা!
‘আ.লীগে যুক্ত হবে যুক্তফ্রন্ট’
স্ত্রীর নগ্ন ভিডিও পর্ন সাইটে ছড়িয়ে দিল স্বামী!
বাবাকে পেছন থেকে ঘাড়ে কোপ দিল ছেলে, অতঃপর...

সব খবর