শাস্তি পেলেন ভারতীয় অধিনায়ক, নজরদারিতে থাকবেন ২ বছর

শাস্তি পেলেন ভারতীয় অধিনায়ক, নজরদারিতে থাকবেন ২ বছর

অনলাইন ডেস্ক

বাংলাদেশের বিরুদ্ধে তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডেতে আম্পায়ারিং নিয়ে আপত্তি তোলা ও বিতর্কিত মন্তব্য করায় কড়া শাস্তি পেয়েছেন ভারতীয় নারী দলের অধিনায়ক হারমানপ্রীত কৌর। শেষ ম্যাচের ম্যাচ ফি’র ৭৫ শতাংশ জরিমানা করা হয়েছে। সেই সঙ্গে ৩টি ডিমেরিট পয়েন্ট দেওয়া হয়েছে তাকে। আগামী ২ বছর (২৪ মাস) আইসিসির নজরদারিতে থাকবেন তিনি।

শনিবার (২২ জুলাই) ম্যাচ শেষে ঘটে ওই ঘটনা। আর রোববার (২৩ জুলাই) তার শাস্তি ঘোষণা করেছে ক্রিকেটের নিয়ন্ত্রক সংস্থা আন্তর্জাতিক ক্রিকেট কাউন্সিল-আইসিসি।  

হারমানপ্রীতকে ম্যাচ ফির ৭৫ শতাংশ জরিমানার সঙ্গে ৩টি ডিমেরিট পয়েন্ট দেওয়া হয়েছে। আগামী ২৪ মাস আইসিসির নজরদারিতে থাকবেন এবং এই সময়ের মধ্যে আর একটি ডিমেরিট পয়েন্ট পেলেই হরমনপ্রীত একটি টেস্ট ম্যাচ অথবা দু’টি সীমিত ওভারের ম্যাচে নিষিদ্ধ হবেন।

ম্যাচে ভারতীয় দলের ইনিংসের ৩৪ ওভারে বাংলাদেশি বোলার নাহিদা আখতারের বলে সুইপ করতে গিয়েছিলেন হারমানপ্রীত। বল তার ব্যাটে বা প্যাডে লেগে স্লিপে ফাহিমা খাতুনের হাতে জমা পড়ে। বোলার আবেদন করলে আম্পায়ার আঙুল তুলে দেন। হরমনপ্রীত সঙ্গে সঙ্গে ক্ষোভে ফেটে পড়েন। আম্পায়ার আউট দেওয়ায় প্রথমে ব্যাটে একটি ঘুষি মারেন আর ব্যাট দিয়ে উইকেট ভাঙেন। সাজঘরে ফিরে আম্পায়ারের উদ্দেশে কিছু বলতেও দেখা যায় তাকে। দর্শকদের দিকে আঙুল তুলে ব্যঙ্গ করেন ভারতের অধিনায়ক।  

ম্যাচ শেষ হওয়ার পর পুরস্কার বিতরণী বক্তব্যে আবারও আম্পায়ারের প্রতি তীর্যকমূলক কথা বলেন হারমানপ্রীত। ট্রফি নিয়ে দু’দলের ছবি তোলার সময় হারমানপ্রীত দুই আম্পায়ারকে বাংলাদেশের ক্রিকেটারদের সঙ্গে দাঁড়িয়ে ছবি তোলার জন্য ডাকতে বলেছিলেন। যা ক্রিকেটীয় আচরণের সঙ্গে বেমানান।

news24bd.tv/আইএএম