শেরপুরে কৃষক হত্যা মামলায় ৩ আসামি গ্রেপ্তার

সংগৃহীত ছবি

শেরপুরে কৃষক হত্যা মামলায় ৩ আসামি গ্রেপ্তার

শেরপুর প্রতিনিধি

শেরপুর সদর উপজেলার প্রত্যন্ত পল্লীতে কৃষক কবজ উদ্দিন হত্যা মামলায় তিন আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব-১৪। গতকাল সোমবার (৩১ জুলাই) গভীর রাতে পঞ্চগড় জেলার দেবীগঞ্জ উপজেলার ডাঙারপাড়া এলাকা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তার হওয়া ব্যক্তিরা হলেন, সদর উপজেলার রামেরচর গ্রামের আমির হকের ছেলে মো. লিটন মিয়া (২৫), মৃত আব্দুল করিমের ছেলে মো. নাছির মিয়া (৩৫) ও মৃত আব্দুল মোতালেবের ছেলে মো. শরিফ মিয়া (৩৫)। মঙ্গলবার দুপুরে তাদের আদালতের মাধ্যমে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

র‌্যাবের প্রেস বিজ্ঞপ্তি ও মামলা সূত্রে জানা গেছে, ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন এবং এলাকায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে শেরপুর সদর উপজেলার রামেরচর গ্রামের সরকার বাড়ি ও আকন্দ বাড়ির বিরোধ চলে আসছিল। ওই বিরোধের জেরে গত ১৬ জুলাই আকন্দ বাড়ির কবজ উদ্দিনের চাচাতো ভাই মো. মিস্টার আলী এবং তার ভাই মো. লিটন মিয়া কবজ আলীকে মারপিট করে সরকারবাড়ির লোকজন। ওই ঘটনায় সরকারবাড়ির কয়েকজনকে আসামি করে থানায় একটি মামলা করেন মো. মিস্টার আলী।

এদিকে, গত ২৬ জুলাই রাতে কবজ উদ্দিন রাতের খাবার খেয়ে স্থানীয় ছনবাজারের উদ্দেশে বের হন।

কিন্তু দীর্ঘ সময় পরও তিনি বাড়িতে না ফেরায় স্বজনেরা বিভিন্ন জায়গায় খোঁজাখুঁজি করতে থাকে। খোঁজাখুঁজির এক পর্যায়ে ২৭ জুলাই সকালে স্থানীয় একটি সবজি ক্ষেতে কবজ উদ্দিনের রক্তাক্ত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

ওই ঘটনায় কবজ উদ্দিনের স্ত্রী মোছা. মরিয়ম বেগম বাদী হয়ে সদর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার পর থেকেই আসামিরা এলাকা থেকে পালিয়ে যায়। পরে বিভিন্ন তথ্য-উপাত্ত সংগ্রহ ও বিশ্লেষণের মাধ্যমে র‌্যাব-১৪ এর জামালপুর ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার স্কোয়াড্রন লিডার আশিক উজ্জামানের নেতৃত্বে র‌্যাবের একটি অভিযানিক দল ৩১ জুলাই রাতে পঞ্চগড় জেলার দেবীগঞ্জ থানার ডাঙ্গাপাড়া এলাকা হতে হত্যা মামলার ৩ আসামিকে গ্রেপ্তার করে।

এ ব্যাপারে র‌্যাব-১৪ এর জামালপুর ক্যাম্পের কোম্পানি কমান্ডার স্কোয়াড্রন লিডার আশিক উজ্জামান জানান, গ্রেপ্তার আসামিদের সদর থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

news24bd.tv/SHS

পাঠকপ্রিয়