১১ হাজার কিমি’র ‘সারমাত’ এখন রাশিয়ার সামরিক বাহিনীতে

১১ হাজার কিমি’র ‘সারমাত’ এখন রাশিয়ার সামরিক বাহিনীতে

অনলাইন ডেস্ক

১১ হাজার কিলোমিটার পাল্লার সারমাত ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রকে সামরিক কাজে ব্যবহারের জন্য অনুমোদন দিয়েছে রাশিয়া। রাশিয়ার মহাকাশ গবেষণা সংস্থা রসকসমসের প্রধান ইউরি বোরিসভ আজ শুক্রবার এ কথা ঘোষণা করেছেন।

সারমাত হচ্ছে রাশিয়ার সবচেয়ে দীর্ঘ পাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র; যেটি ১০ টন ওজনের ওয়ার হেড বহন করতে পারে। ধারণা করা হচ্ছে রাশিয়ার ভান্ডারে যে সমস্ত পরমাণুবাহী ক্ষেপণাস্ত্র রয়েছে তার মধ্যে এটিই হবে সবচেয়ে ভারী এবং দীর্ঘ পাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র।

গত বছর এর চূড়ান্ত পরীক্ষা সম্পন্ন হয়। রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন এর আগে জানিয়েছিলেন, সারমাত ক্ষেপণাস্ত্র শত্রুর এন্টি-ব্যালিস্টিক মিসাইল সিস্টেমকে পরাস্ত করতে পারে কারণ এটি চলার সময় গতিপথ পরিবর্তন করতে পারে।

রাশিয়ার হাতে যে তুলনামূলক কমপল্লার আন্তঃমহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র রয়েছে সেগুলো আর্কটিকের উপর দিয়ে উড়ে গিয়ে আমেরিকায় আঘাত হানতে পারে এবং এজন্য রাশিয়ার ক্ষেপণাস্ত্র হামলার সম্ভাব্য এই পথে আমেরিকা স্থল ইন্টারসেপ্টর বসিয়েছে।

গত ডিসেম্বরে রাশিয়ার প্রতিরক্ষামন্ত্রী সের্গেই শোইগু বলেছিলেন, সারমাত ক্ষেপণাস্ত্র মোতায়েনের কাজ এরইমধ্যে শুরু হয়েছে এবং ২০২৩ সালের মধ্যে এটি পুরোপুরিভাবে ব্যবহারের উপযোগী করে তোলা হবে।

এই রকম আরও টপিক