নিউ স্বর্ণ ভূবনে মুখোশ পরে চুরি!

সংগৃহীত ছবি

নিউ স্বর্ণ ভূবনে মুখোশ পরে চুরি!

অনলাইন ডেস্ক

চাঁদপুর শহরের আব্দুল করিম পাটওয়ারী সড়কে মুখোশ পরে নিউ স্বর্ণ ভূবন নামে একটি দোকানে চুরি করেছে সংঘবদ্ধ চোর চক্র। দোকান মালিকের দাবি, তারা প্রায় ৫০ ভরি স্বর্ণ নিয়ে গেছে। তবে পুলিশ বলছে, চুরি যাওয়া স্বর্ণ ২৫-৩০ ভরি হতে পারে।

সোমবার (০৪ সেপ্টেম্বর) ভোরে এই চুরির ঘটনা ঘটে বলে ওই দোকানে থাকা সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজ দেখে জানা গেছে।

স্থানীয় ব্যবসায়ীরা জানান, ভোরে ঘটনা ঘটলেও সকাল সাড়ে ৯টার দিকে মার্কেট খোলার সময় সেখানের মেহজাবিন স্টোরের মালিক বাদল প্রথমে দেখেন প্রধান ফটকের তালা কাটা। তিনি তাৎক্ষণিক আশপাশের লোকজন ও নিউ স্বর্ণ ভূবনের মালিক মানিক মজুমদারকে বিষয়টি জানান।

মানিক মজুমদার বলেন, বাদল আমাকে জানানোর পর প্রথম প্রধান ফটকের তালা কাটা দেখলেও আমার দোকানের তালা কাটা তা খেয়াল করিনি। কিছুক্ষণ পরে কর্মচারী রিপন সাহা দোকান খুলতে গিয়ে দেখেন দোকানের দুইটি তালা কাটা এবং সবকিছু এলোমেলো।

চোর চক্র আমার প্রায় ৫০ ভরি স্বর্ণ নিয়ে গেছে যার আনুমানিক মূল্য ৫০ লাখ টাকা। বিষয়টি তখনই আমি চাঁদপুর সদর মডেল থানা পুলিশকে জানিয়েছি।

এদিকে চুরির ঘটনা জেনে কিছু সময় পরে চাঁদপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শেখ মুহসীন আলম ও পুলিশ সদস্যরা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হন। এর কিছু সময় পর ঘটনাস্থলে যান চাঁদপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সুদীপ্ত রায়।

অপরদিকে সিসিটিভি ক্যামেরার ফুটেজে দেখা যায়, অত্যন্ত কৌশলে ৮ থেকে ১০ জন চোর চক্রের সদস্যদের কয়েকজন রাস্তার দুইপাশে দাঁড়িয়ে পর্যবেক্ষণ করছেন কেউ আসছে কিনা। আবার কেউ মার্কেটের সামনে বসে আছেন। তারা সবাই মুখোশ পরা ছিলেন। সিনেমার শুটিংয়ের মতো তারা মার্কেটের মূল ভবনের তালা ভাঙার সময় কাপড় দিয়ে কৌশলে আড়াল করে ভবনের মূল গেটের তালা কাটেন।

চাঁদপুর সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শেখ মুহসীন আলম বলেন, বিষয়টি আমরা পর্যবেক্ষণ করছি। এই মুহূর্তে কোনো কথা বলা যাবে না।

চাঁদপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন ও অর্থ) সুদীপ্ত রায় বলেন, ঘটনাটি জানতে পেরে ওই দোকানে গিয়েছি। বেশ কিছু সময় সেখানে ছিলাম। মালিকসহ লোকজনের সঙ্গে কথা বলেছি। ২৫-৩০ ভরি স্বর্ণ চুরি হয়েছে। বিষয়টি আমরা গুরুত্ব সহকারে তদন্ত করছি। আশা করি খুব দ্রুত সময়ের মধ্যে চুরির রহস্য উদ্‌ঘাটন হবে।

news24bd.tv/Kamrul

এই রকম আরও টপিক