সংস্কৃতির বিভিন্ন বিষয়ে পড়াশোনার হার বেড়েছে: সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী 

সংস্কৃতির বিভিন্ন বিষয়ে পড়াশোনার হার বেড়েছে: সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী 

নিজস্ব প্রতিবেদক

সংস্কৃতি বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী কে এম খালিদ এমপি বলেছেন, ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন বর্তমান সরকারের আমলে দেশে সংস্কৃতি ক্ষেত্রে জাগরণ ঘটেছে। সে কারণে বর্তমান সময়ে সংস্কৃতির বিভিন্ন বিষয়ে শিক্ষার্থীদের পড়াশোনার হারও আগের চেয়ে অনেক বেড়েছে। আগে বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে শিক্ষার্থীদের বাংলা সাহিত্য বিষয়ে পড়াশোনা করতে দেখা যেত। বর্তমান সরকারের উদ্যোগের কারণে সরকারি-বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলা বিষয়ের পাশাপাশি সংগীত, নাট্যকলা, চারুকলা, নৃত্যকলা, প্রত্নতত্ত্ব সহ সংস্কৃতির বিভিন্ন বিষয়ে শিক্ষার্থীদের পড়াশোনার আগ্রহ বেড়েছে।

প্রতিমন্ত্রী আজ বিকালে রাজধানীর বাংলাদেশ জাতীয় জাদুঘর এর কবি সুফিয়া কামাল মিলনায়তনে 'নগর উপাখ্যান- পারসিভ' আয়োজিত 'World Heritage Voluntary (WHV) Program' শীর্ষক দশ দিনব্যাপী কর্মশালার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।  

প্রধান অতিথি বলেন, বাংলাদেশে গেজেটভুক্ত ৫১৭টি প্রত্নতাত্ত্বিক স্থাপনা রয়েছে। এসব সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের সংস্কার-সংরক্ষণে বর্তমান সরকার কাজ করে যাচ্ছে। সংস্কৃতি প্রতিমন্ত্রী বলেন, গতকাল জাতীয় জাদুঘরে আমাদের বিমূর্ত বা অপরিমেয় সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের অনলাইন জাতীয় ইনভেন্টরির শুভ উদ্বোধন হয়েছে।

এর মাধ্যমে আমাদের আরও বেশ কিছু সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য ইউনেস্কো'র স্বীকৃতির অর্জন করবে এবং আমাদের প্রত্নতাত্ত্বিক সংস্কার-সংরক্ষণ কাজ আরও বেগবান হবে মর্মে আমার বিশ্বাস।

কে এম খালিদ বলেন, সংস্কৃতিবান, সংস্কৃতি সচেতন মানুষসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান আমাদের সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য সংরক্ষণে এগিয়ে এসেছে। তিনি বলেন, তাঁরা হৃদয় দিয়ে আমাদের সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের সংরক্ষণ ও প্রসারে কাজ করে যাচ্ছেন, কোনো অর্থের মোহে নয়। সেজন্য সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে তাঁদের সাধুবাদ জানাই।  

বাংলাদেশ জাতীয় জাদুঘর এর মহাপরিচালক মো. কামরুজ্জামান এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তৃতা করেন সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ও প্রত্নতত্ত্ব অধিদপ্তরের ভারপ্রাপ্ত মহাপরিচালক মো. ইমরুল চৌধুরী এবং জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রত্নতত্ত্ব বিভাগের অধ্যাপক ড. একেএম শাহনেওয়াজ। সম্মানিত অতিথি বক্তৃতা করেন ইউনেস্কো ঢাকা অফিসের অফিসার-ইন-চার্জ সুজান ভাইজ। অনুষ্ঠানে মূল প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রত্নতত্ত্ব বিভাগের অধ্যাপক ড. বুলবুল আহমেদ। প্যারিস থেকে অনলাইনে বক্তব্য দেন Global Coordination World Heritage Volunteers Initiative এর পরিচালক Francesco VOLPINI. আলোচনা করেন অস্ট্রেলিয়ার মেলবোর্নের Deakin University-এর অধ্যাপক মিজানুর রশিদ। স্বাগত বক্তব্য রাখেন 'নগর উপাখ্যান- পারসিভ' এর প্রতিষ্ঠাতা পরিচালক ফাতিহা পলিন।  

উল্লেখ্য, 'পারসিভ' এর নগর উপাখ্যান বিভাগ দ্বিতীয় বারের মতো আয়োজন করেছে World Heritage Voluntary (WHV) Program। এবারের প্রতিপাদ্য বিষয় হলো-"Interpretation of the terracotta plaque of the Buddhist Vihara at Paharpur, Bangladesh." 

উল্লেখ্য, এ ভলেন্টিয়ার প্রোগ্রাম ১ অক্টোবর থেকে শুরু হয়ে আগামী ১০ অক্টোবর ২০২৩ তারিখ পর্যন্ত চলবে এবং এ প্রোগ্রামে ভলেন্টিয়ার হিসাবে দেশ-বিদেশের স্থাপত্য, প্রত্নতত্ত্ব ও বিশ্ব ঐতিহ্য নিয়ে কাজ করা শিক্ষক, গবেষক,  লেখক এবং শিক্ষার্থীগণ অংশগ্রহণ করছেন।

প্রতিমন্ত্রী পরে বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির বাউলকুঞ্জে একাডেমি আয়োজিত ১২ দিনব্যাপী (০১-১২ অক্টোবর) 'গণজাগরণের পালাগান উৎসব ২০২৩' এর উদ্বোধন করেন।

news24bd.tv/Towhid

 

এই রকম আরও টপিক

পাঠকপ্রিয়