তিন পথে ব্যাপক আক্রমণের পরিকল্পনা ইসরায়েলের

সংগৃহীত ছবি

তিন পথে ব্যাপক আক্রমণের পরিকল্পনা ইসরায়েলের

অনলাইন ডেস্ক

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু গাজা গুড়িয়ে দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছেন। হামাসের হামলার পর তারা গাজায় আকাশ পথে হামলা শুরু করে। শুক্রবার থেকে স্থল পথেও হামলা চালাচ্ছে। এখন সমুদ্র পথেও হামলার পরিকল্পনার কথা জানিয়েছে ইসরায়েল।

বাংলাদেশ সময় শনিবার রাত ১১টার কিছুক্ষণ আগে তারা একটি বিবৃতি প্রকাশ করে এ তথ্য জানায়।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, কয়েক হাজার সংরক্ষিত সেনার সহায়তায় ‘আইডিএফ একটি ব্যাপক আক্রমণের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছে। ’ তবে আক্রমণ শুরুর কোনো সময় তারা জানায়নি।

গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলের একটি স্থল আক্রমণ প্রত্যাশিত ছিল।

সে কারণে ইসরায়েল গাজার উত্তরাঞ্চলের বাসিন্দাদের সরে যেতে সময় বেধে দিয়েছিল।

নতুন এই বিবৃতি অনুসারে, আইডিএফ ‘বিমান, নৌ ও স্থল’ বাহিনীকে নিয়ে একটি আক্রমণাত্মক পরিকল্পনা করেছে।

আইডিএফ আরও বলেছে, প্রয়োজনীয় যুদ্ধ সরঞ্জাম ইতিমধ্যে প্রাসঙ্গিক অবস্থানে পাঠানো এবং আইডিএফ ব্যাটালিয়ন ও সেনাদের কৌশলগতভাবে সারা দেশে মোতায়েন করা হয়েছে।

এ ছাড়া সেনারা একটি উল্লেখযোগ্য স্থল অভিযান চালাতে উদগ্রীব বলেও ইসরায়েলি প্রতিরক্ষা বাহিনী উল্লেখ করেছে।

প্রসঙ্গত, ৭ অক্টোবরে হামাসের শত শত বন্দুকধারী গাজার চারপাশের সামরিক সীমানা ভেদ করে ইসরায়েলে প্রবেশ করে নজিরবিহীন হামলা চালায়। এতে প্রায় এক হাজার ৩০০ মানুষ নিহত হয়। পাশাপাশি ১৫০ ইসরায়েলি ও বিদেশিকে জিম্মি করে নিয়ে যায় তারা।

ইসরায়েলও গাজায় হামাসের লক্ষ্যবস্তুতে হামলা চালাচ্ছে। সেখানকার কর্তৃপক্ষ এখন পর্যন্ত দুই হাজার ২০০ জনেরও বেশি মানুষ নিহত হওয়ার খবর দিয়েছে। এমন পরিস্থিতিতেই ইসরায়েল হামাসকে ধ্বংস করতে এমন অভিযানের পরিচালনা করছে বলে মনে করা হচ্ছে।  
সূত্র : বিবিসি

news24bd.tv/আইএএম