প্রধানমন্ত্রী যেভাবে চাইবেন সেভাবে হবে: ওবায়দুল কাদের 

সংগৃহীত ছবি

প্রধানমন্ত্রী যেভাবে চাইবেন সেভাবে হবে: ওবায়দুল কাদের 

অনলাইন ডেস্ক

নির্বাচনকালীন সরকার কেমন হবে এমন এক প্রশ্নের উত্তরে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘প্রধানমন্ত্রী যেভাবে চাইবেন-সেভাবে হবে। যদি মনে করেন, কেবিনেট ছোট করবেন বা এভাবেই থাকবে- সেটা তার এখতিয়ার। ’

রোববার (১৫ অক্টোবর) সচিবালয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের উত্তরে তিনি এসব কথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘নির্বাচনকালীন সরকার একটা থাকতে পারে।

গতবার যেটা ছিল সেটাই নির্বাচনকালীন সরকার হিসেবে কাজ করেছে। প্রধানমন্ত্রী যদি মনে করেন, নির্বাচনকালীন সরকার ছোট করতে পারেন। তফসিল ঘোষণার পর নির্বাচনকালীন সরকার হবে। তফসিল ঘোষণার পর সরকার শুধু রুটিন ওয়ার্ক করবে।
সবকিছু ইসির নিয়ন্ত্রণে থাকবে। আমরা সে সময় ইসির নির্দেশ অনুযায়ী কাজ করতে বাধ্য। ’

এসময় বাংলাদেশের নির্বাচনে যুক্তরাষ্ট্রের হস্তক্ষেপের বিষয়ে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‌‌‌‘যুক্তরাষ্ট্র আমাদের বন্ধু দেশ। তাদের সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক আছে। তারা নির্বাচন নিয়ে পর্যবেক্ষণ করতে পারে; কিন্তু কোনো শর্ত দিতে পারে না। ’  
 
ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমরা জাতির কাছে যে অঙ্গীকার করেছি নির্বাচন সুষ্ঠু করার— সেটা করবো। তাদের (যুক্তরাষ্ট্র) কাছে আমরা অঙ্গীকার করবো কেন, তারা কে? বন্ধু রাষ্ট্র হিসেবে তারা আলোচনা করেছে। তাদের কথায় আমরা নির্বাচন করবো কেন? তারা চাইলে নির্বাচনে পর্যবেক্ষক পাঠাক। সুষ্ঠু নির্বাচন করছি কি না সেটা দেখুক। ’

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘মার্কিন প্রতিনিধিদের সঙ্গে আমাদের ডিটেইলস আলোচনা হয়েছে। নির্বাচন ফ্রি-ফেওয়ার করার বিষয়ে আমরা বলেছি। তারা সংলাপ সম্পর্কে আমাদের কিছু বলেনি। বিএনপি বলছে, সংলাপের শর্তে প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ চায়, পার্লামেন্টের পদত্যাগ চায়, ইসির পদক্ষেপ চায়। শর্তযুক্ত কোনো সংলাপ আওয়ামী লীগ করবে না। এটির বাইরে যে পরামর্শ তাতে সরকারের কোনো আপত্তি নেই। ’

তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী পদত্যাগ করলে বিএনপি সংলাপ করবে কার সঙ্গে? এর আগে তারা রাষ্ট্রপতির আমন্ত্রণে যায়নি। সংবিধানে নির্বাচনের বিষয়ে যে বিধিবিধান আছে সেভাবে নির্বাচন করবো। দুনিয়ার সব গণতান্ত্রিক দেশের মতো নির্বাচন হবে। ’

সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপির সঙ্গে শর্তযুক্ত কোনো সংলাপ হবে না। আগে তাদের দেওয়া ৪টি শর্ত প্রত্যাহার করতে হবে। এর পর সংলাপের চিন্তা করবো। সংলাপ হবে শর্তমুক্ত। ’ তিনি বলেন, ‘সুষ্ঠু নির্বাচনের স্বার্থে লেভেল প্লেইং ফিল্ড নিয়ে সরকারের কোনো দ্বিমত নেই। ’

news24bd.tv/আইএএম

পাঠকপ্রিয়