জাতীয় পরিচয়পত্র নম্বরসহ নিহতের তালিকা প্রকাশ করলো ফিলিস্তিন

সংগৃহীত ছবি

জাতীয় পরিচয়পত্র নম্বরসহ নিহতের তালিকা প্রকাশ করলো ফিলিস্তিন

অনলাইন ডেস্ক

ইসরায়েলের হামলায় গাজায় নিহত ফিলিস্তিনির সংখ্যা নিয়ে সংশয় প্রকাশ করেছে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন। বাইডেনের ওই সংশয় প্রকাশের ৪৮ ঘণ্টা পেরোনোর আগেই নিহতের পূর্ণ সংখ্যা প্রকাশ করেছে গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। ২১২ পৃষ্ঠার সেই নথি অনুযায়ী, ইসরায়েলের বিমান বাহিনীর অভিযানে গত ২০ দিনে নিহত হয়েছেন মোট ৭ হাজার ২৮ জন। এই নিহতদের মধ্যে শিশু ও অপ্রাপ্তবয়স্কদের সংখ্যা ২ হাজার ৯১৩ জন।



নিহতদের মধ্যে ৬ হাজার ৭৪৭ জনের নাম, বয়স ও এবং জাতীয় পরিচয়পত্রের নাম্বার উল্লেখ করা হয়েছে নথিতে। বাকি ৫১৯ জনের নাম-পরিচয়ের উল্লেখ পাওয়া যায়নি। নথিতে তাদের ‘শনাক্ত করা যায়নি’ (আনআইডেন্টিফায়েড) তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। শনাক্ত না হওয়া এই নিহতদের মধ্যে প্রাপ্তবয়স্ক নারী ও পুরুষের সংখ্যা ২৮১ জন এবং শিশু ও অপ্রাপ্তবয়স্কদের সংখ্যা ২৪৮ জন।

এ প্রসঙ্গে এক বিবৃতিতে মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে বলা হয়, ‘আমাদের লোকজনরা নাম-পরিচয়বিহীন কোনো সত্ত্বা নয়, যে চাইলেই তাদের অবহেলা করা যায়। ’

বুধবার হোয়াইট হাউসে এক ব্রিফিংয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন জানিয়েছিলেন, ইসরায়েল ও হামাসের চলমান যুদ্ধে নিহত ফিলিস্তিনিদের যে সংখ্যা জানাচ্ছে ফিলিস্তিনি কর্তৃপক্ষ, তাতে আস্থা নেই তার।

তিনি বলেন, ‘যুদ্ধ শুরু হলে নিরপরাধ লোকজনকে প্রাণ দিয়ে তার মূল্য শোধ করতে হয়। আমি নিশ্চিত যে ইসরায়েলের অভিযানে বেসামরিক লোকজন প্রাণ হারাচ্ছেন। কিন্তু ফিলিস্তিন নিহতের যে সংখ্যা জানাচ্ছে, তার সত্যতা নিয়ে আমি নিশ্চিত নই। আমি আত্মবিশ্বাসের সঙ্গে বলতে পারছি না যে, তারা যে সংখ্যা প্রকাশ করছে, সেটি সঠিক। ’ 

news24bd.tv/আইএএম