হামাস মুজাহিদরা ভূমি রক্ষায় যুদ্ধ করছে: এরদোয়ান 

হামাস মুজাহিদরা ভূমি রক্ষায় যুদ্ধ করছে: এরদোয়ান 

অনলাইন ডেস্ক

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোয়ান ঘোষণা করেছেন, গাজায় ইসরায়েলের বর্বর আগ্রাসনের কারণে অধিকৃত ফিলিস্তিনি ভূখণ্ডে পরিকল্পিত সফর বাতিল করেছেন।

একইসঙ্গে তিনি বলেছেন, ফিলিস্তিনি প্রতিরোধকামী সংগঠন হামাস ‘সন্ত্রাসী নয় বরং তারা মুক্তিদাতা। ’ 

গত বুধবার রাজধানী আঙ্কারায় ক্ষমতাসীন জাস্টিস অ্যান্ড ডেভলপমেন্ট পার্টি বা একেপি’র সংসদীয় গ্রুপের সভায় বক্তৃতাকালে এরদোগান এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, ৭ অক্টোবর সংঘাত শুরুর আগে ইসরাইল সফরের পরিকল্পনা করেছিলেন তিনি কিন্তু এখন সে পরিকল্পনা বাতিল করছেন।

এরদোয়ান বলেন, "সম্পর্ক ভিন্ন হতে পারত কিন্তু দুর্ভাগ্যবশত তা আর হবে না। " তুরস্কের সৎ-উদ্দেশ্যের সুযোগ নেয়ার জন্য তিনি ইসরাইলের বিরুদ্ধে ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করেন।

ইসরায়েলের নৃশংস আগ্রাসনের নিন্দা করে এরদোগান বলেন, গাজায় ইসরাইলি হামলায় নিহতদের প্রায় অর্ধেকই শিশু। তিনি আরো বলেন, বিশ্বের কোথাও এমন রাষ্ট্র খুঁজে পাওয়া যাবে না যার সেনাবাহিনী এমন অমানবিক আচরণ করে।

 

তুর্কি প্রেসিডেন্ট আরো বলেন, হামাস কোনো সন্ত্রাসী সংগঠন নয়। "এটি একটি মুক্তিকামী গোষ্ঠী; এই মুজাহিদরা তাদের ভূমি এবং জনগণকে রক্ষা করার জন্য যুদ্ধ করছে। " 

এরদোয়ান পশ্চিমাদের অভিযুক্ত করে বলেন, ইউক্রেনে রাশিয়ার সামরিক অভিযানের পর পশ্চিমারা যেভাবে সাড়া দিয়েছে, গাজায় ইসরাইলের ‘ইচ্ছাকৃত গণহত্যা’র ক্ষেত্রে একই সিদ্ধান্ত নিতে ব্যর্থ হয়েছে। একে তিনি পশ্চিমাদের ভণ্ডামি বলে অভিহিত করেন।

এরদোয়ান বলেন, "যারা ইসরায়েলকে সীমাহীন সমর্থন দিচ্ছে তারাই গাজায় গণহত্যা ও ধ্বংসযজ্ঞের মূল অপরাধী। "

 

এই রকম আরও টপিক

পাঠকপ্রিয়