মালয়েশিয়ার নতুন রাজা সুলতান ইব্রাহিম

সংগৃহীত ছবি

মালয়েশিয়ার নতুন রাজা সুলতান ইব্রাহিম

অনলাইন ডেস্ক

মালয়েশিয়ার নতুন রাজা বা রাষ্ট্রপ্রধান হিসেবে সুলতান ইব্রাহিম সুলতান ইস্কান্দারের নাম ঘোষণা করেছে দেশটির রয়্যাল কাউন্সিল। সবকিছু ঠিক থাকলে ২০২৪ সালের ৩১ ডিসেম্বর মালয়েশিয়ার বর্তমান রাজা আল সুলতান আবদুল্লাহর স্থলাভিষিক্ত হবেন তিনি।

দক্ষিণপূর্ব এশিয়ার দেশ মালয়েশিয়ায় মন্ত্রিপরিষদ শাসিত সরকার ব্যবস্থা প্রচলিত এবং রাষ্ট্রপ্রধানের পদটি রাজার জন্য নির্ধারিত। দেশটির সরকার পরিচালনায় রাজার ভূমিকা অনেকটাই আনুষ্ঠানিক, তবে গত কয়েক বছর ধরে দেশটিতে রাজনৈতিক অস্থিতিশীলতা চলতে থাকায় দেশটির অভ্যন্তরীণ রাজনীতিতে রাজার প্রভাব দিন দিন বাড়ছে।

তেরটি রাজ্য ও তিনটি ঐক্যবদ্ধ প্রদেশ নিয়ে গঠিত মালয়েশিয়ায় বর্তমানে রাজ পরিবার রয়েছে ৯টি। চক্রাকারে প্রতি পাঁচ বছর পর পর প্রত্যেক রাজ পরিবারের প্রধান ব্যক্তিকে রাজা হিসেবে মনোনীত করা হয়। এই কাজটি মূলত পরিচালনা করে দেশটির রয়্যাল কাউন্সিল। দেশটির বর্তমান বিদায়ী রাজা আল সুলতান আবদুল্লাহ ২০১৮ সালে সিংহাসনে বসেছিলেন।

নতুন রাজা সুলতান ইব্রাহিম সুলতান ইস্কান্দার মালয়েশিয়ার দক্ষিণাঞ্চলীয় রাজ্য জোহরের রাজ পরিবারের প্রধান এবং মালয়েশিয়ার অভ্যন্তরীণ রাজনীতিতে স্পষ্টভাষী ব্যক্তি হিসেবে পরিচিত। দেশটির বর্তমান প্রধানমন্ত্রী আনোয়ার ইব্রাহিমের সঙ্গে ভালো সম্পর্ক রয়েছে তার।

রিয়েলে এস্টেট ও খনি বাণিজ্যের সঙ্গ যুক্ত সুলতান ইব্রাহিমের বিলাসবহুল গাড়ি ও মোটর সাইকেলের প্রতি দুর্বলতা রয়েছে। তার গাড়ি ও মোটর সাইকেরের সংগ্রহশালাটিও বেশ সমৃদ্ধ।

সাংবিধানিকভাবে মালয়েশিয়ার রাজার মেয়াদ ৫ বছর এবং তার ক্ষমতা বেশ সীমিত । অর্থাৎ প্রধানমন্ত্রীকে নিয়োগ, পার্লামেন্টের মেয়াদ উত্তীর্ণ হওয়ার পর তা ভেঙে দেওয়া এবং প্রধানমন্ত্রী ও মন্ত্রীপরিষদকে শাসন সংক্রান্ত পরামর্শ দেওয়া, সর্বোচ্চ আদালতে দোষী অপরাধীকে ক্ষমা করা— প্রভৃতির মধ্যেই তার ক্ষমতা সীমাবদ্ধ।

তবে ২০২০ সালের পর দেশটির পার্লামেন্ট ও রাজনীতিতে অস্থিতিশীলতা দেখা দিলে তৎকালীন রাজাকে রাজনীতি সংক্রান্ত বিভিন্ন ইস্যুতে তৎপর দেখা গেছে। বিদায়ী রাজা আল সুলতান আবদুল্লাহ তার মেয়াদে ৩ জন প্রধানমন্ত্রীকে নিয়োগ দিয়েছেন।

সূত্র : রয়টার্স

news24bd.tv/A