নিজ এলাকায় সাবেক যোগাযোগমন্ত্রীর দাফন না হওয়ায় ক্ষোভ

নিজ এলাকায় সাবেক যোগাযোগমন্ত্রীর দাফন না হওয়ায় ক্ষোভ

মাদারীপুর প্রতিনিধি

মাদারীপুর-৩ আসনের সাবেক এমপি ও সাবেক যোগাযোগ মন্ত্রী সৈয়দ আবুল হোসেনে দাফন হলো না তার নিজ এলাকা ডাসারে। মাদারীপুরের ডাসারে তার নিজ জন্ম এলাকায় লাশ দাফন ও জানাজা না হওয়ায় ক্ষোভ বিরাজ করছে স্থানীয় বাসিন্দা ও তার আত্মীয় স্বজনদের মাঝে।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার দিবাগত রাতে ঢাকার একটি বেসরকারি হাসপাতালে মারা যান সৈয়দ আবুল হোসেন। বৃহস্পতিবার তার প্রথম জানাজা গুলশান আজাদ মসজিদে ও দ্বিতীয় জানাজা আওয়ামী লীগের দলীয় কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত হয়।

তৃতীয় জানাজা ও দাফন তার নিজ জন্মস্থান মাদারীপুরের ডাসারে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। সে মোতাবেক গত দুইদিন জেলার বিভিন্ন এলাকায় মাইকিং করা হয়। শুক্রবার বাদ জানাজায় অংশ নিতে জেলার বিভিন্ন স্থান থেকে হাজার হাজার মানুষ সমবেত হয়। জানাজায় অংশ নিতে এসেছিলেন মাদারীপুর-৩ আসনের সংসদ সদস্য আব্দুস সোবাহান গোলাপ, সাবেক সংসদ সদস্য বাহাউদ্দিন নাছিম, কালকিনি উপজেলা চেয়ারম্যান মীর গোলাম ফারুকসহ বিভিন্ন স্তরের হাজার হাজার নেতা-কর্মী।
কিন্তু শুক্রবার দুপুরের দিকে জানানো হয় তার জানাজা ও দাফন করা হবে সিরাজগঞ্জের এনায়েতপুরে। এতে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন স্থানীয় বাসিন্দা ও তার স্বজনরা।

পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, সিরাজগঞ্জের এনায়েতপুরে সাবেক মন্ত্রী সৈয়দ আবুল হোসেনের শ্বশুরবাড়িতে তার জানাজা শেষে দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে। সৈয়দ আবুল হোসেনের স্ত্রী খাজা নার্গিসের সিদ্ধান্তেই সিরাজগঞ্জে তার দাফন হয়েছে বলে পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে।

সৈয়দ আবুল হোসেন ছোট ভাই সৈয়দ আবুল হাসান আক্ষেপ করে বলেন, ‘আমি ঢাকার কোনো জানাজায় অংশগ্রহণ করি নাই। ভেবেছিলাম এলাকার জানাজায় অংশ নেব। কিন্তু তা আর সম্ভব হলো না। ’

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য বাহাউদ্দিন নাছিম বলেন, জানাজায় অংশ নিতে এসেছিলাম কিন্তু এখানে কোনো জানাজা হয়নি। তাই আর সুযোগ হলো না। এদিকে সৈয়দ আবুল হোসেনের মরদেহ তার নিজ এলাকায় আনার দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল করেছে স্থানীয়রা শুক্রবার দুপুরে ডাসার উপজেলা চত্ত্বরে।

news24bd.tv/তৌহিদ

এই রকম আরও টপিক