‌‘মাদকের টাকা না পেয়ে’ মাকে বটি দিয়ে কুপিয়ে হত্যা

‌‘মাদকের টাকা না পেয়ে’ মাকে বটি দিয়ে কুপিয়ে হত্যা

অনলাইন ডেস্ক

'মাদকের টাকা না পেয়ে' নিজ মাকে নির্মমভাবে কুপিয়ে হত্যা করেছে ছেলে। পরে বাবা এসে দেখেন মাকে হত্যার পর বটি হাতে দাঁড়িয়ে আছে ছেলে।

গতকাল বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার রেলস্টেশন সংলগ্ন উকিলবাড়ি এলাকায় এ ঘটনা ঘটে৷

এ ব্যাপারে ফতুল্লা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নূরে আজম জানান, ওই এলাকার নুরুল ইসলামের স্ত্রী নিহত মধুমালা বেগমের (৫৫) মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। পুলিশ নিহতের ছেলে মো. সুমনকে (৩৫) বাড়ি থেকে রক্তাক্ত বটিসহ আটক করেছে।

পরিবারের সদস্য ও স্থানীয় লোকজনের ভাষ্য, সুমন একজন মাদকাসক্ত ও মানসিক ভারসাম্যহীন যুবক৷

প্রত্যক্ষদর্শী ও পুলিশের কাছ থেকে জানা যায়, মাদকের টাকা চাওয়াকে কেন্দ্র করে গত রাতে মা ও ছেলের মধ্যে ঝগড়া হয়। মা টাকা দিতে অস্বীকার করলে সুমন তাকে ধারাল বটি দিয়ে এলোপাতাড়ি কোপান। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যান মধুমালা।

নুরুল ইসলামের চার সন্তানের মধ্যে সুমন দ্বিতীয়।

স্ত্রীকে নিয়ে বাড়ির পাশে একটি খাবার হোটেল চালাতেন তিনি৷

নুরুল বলেন, 'খবর পেয়ে হোটেল থেকে এসে আমি দেখলাম আমার স্ত্রীর লাশ মাটিতে পড়ে আছে। তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে গভীর ক্ষত। আমার ছেলে রক্তাক্ত বটি হাতে পাশে দাঁড়িয়ে আছে। '

ওসি নূরে আজম জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে হত্যার অস্ত্র হিসেবে ব্যবহৃত বটিসহ সুমনকে আটক করে।

এ ঘটনায় শুক্রবার দুপুর ১২টা পর্যন্ত থানায় কোনো মামলা হয়নি। বিষয়টি প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলে জানান এই পুলিশ কর্মকর্তা।

news24bd.tv/তৌহিদ

এই রকম আরও টপিক