কুকুরের মাংস দিয়ে হতো বার্গার-গ্রিলের মতো খাবার

সংগৃহীত ছবি

কুকুরের মাংস দিয়ে হতো বার্গার-গ্রিলের মতো খাবার

অনলাইন ডেস্ক

খুলনার খালিশপুরে কুকুর মাংসসহ আটক চারজনের কাছ থেকে মিলেছে নানা তথ্য। নগরীর বিভিন্ন হোটেল ও রেস্তোরাঁয় নাকি কুকুরের মাংস দিয়ে তৈরি হচ্ছিল বিরিয়ানি, বার্গার, গ্রিলসহ বিভিন্ন মুখরোচক খাবার।

বুধবার সন্ধ্যায় খুলনা সরকারি পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের পরিত্যক্ত একটি ভবন থেকে কুকুরের মাংস বিক্রি চক্রের মূলহোতাসহ ৪ সদস্যকে হাতেনাতে আটক করে পুলিশ। ভবনটি থেকে অনেকগুলো কুকুরের চামড়া ও হাড় উদ্ধার করা হয়েছে।

আটকরা জানিয়েছেন তারা প্রায় দেড় এক মাস ধরে কুকুরের মাংস দিয়ে বিরিয়ানির ব্যবসা করছিলো। তারা নগরীর বিভিন্ন হোটেলে এই মাংস অল্প দামে সরবরাহ করে আসছিলো।

ওই ঘটনায় আটকরা হলেন- মহানগরীর খালিশপুর থানাধীন ডলার হাউজ মোড় এলাকার লিংকন হাওলাদারের ছেলে অষ্টম শ্রেণীর ছাত্র তাজ (১৬), একই থানার বঙ্গবাসী মোড় এলাকার নর্থ জোন -২৩ এর হাবিবুর রহমানের ছেলে মো. আবু সাইদ (৩৭), ২ নং নেভি গেট এলাকার কুতুব আলীর ছেলে মো. সিয়াম (১৬) এবং দিঘলিয়া থানাধীন চরের হাট এলাকার শোভন সরদারের ছেলে প্রেম সরদার (১৬)।  

বুধবার রাত ১০টা নাগাদ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট প্রাণী কল্যাণ আইনের ২০১৯-এর ৭ ধারা মোতাবেক আটককৃতদের আদালতে পাঠানোর আদেশ দেন।

সে অনুযায়ী বৃহস্পতিবার (১৪ ডিসেম্বর) আটকদের আদালতে পাঠানো হয়েছে।

news24bd.tv/FA

এই রকম আরও টপিক

পাঠকপ্রিয়